হেরেই চলেছে মোহামেডান

  স্পোর্টস রিপোর্টার ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ব্যাটিং ব্যর্থতায় ঢাকা প্রিমিয়ার ক্রিকেট লীগে টানা দ্বিতীয় ম্যাচে হারল মোহামেডান। দলের বাঁ-হাতি পেসার কাজী অনিকের পাঁচ উইকেটের পরও লিজেন্ড অব রূপগঞ্জের বিপক্ষে কাল তারা ৬২ রানের বড় ব্যবধানে হেরেছে। একইদিনে বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে শেখ জামালের কাছে ২৮ রানে হেরেছে অগ্রণী ব্যাংক। ফতুল্লায় অপর ম্যাচে অলক কাপালির অলরাউন্ড পারফরম্যান্সে প্রাইম ব্যাংকের বিপক্ষে ২৪ রানে জিতেছে ব্রাদার্স ইউনিয়ন।

বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে প্রথমে ব্যাট করে ওপেনার আবদুল মাজিদের হাফসেঞ্চুরিতে সাত উইকেটে ২৩১ রান করে রূপগঞ্জ। ১১৫ বলে ৭০ রান করেন মাজিদ। এছাড়া তুষার ইমরান ৪০ ও অভিষেক মিত্র ৪৫* রান করেন। ৪৪ রান দিয়ে পাঁচ উইকেট তুলে নেন পেসার কাজী অনিক। জবাবে মোহামেডানের কেউই বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। সর্বোচ্চ ৩৪ রান আসে অধিনায়ক শামসুর রহমানের ব্যাট থেকে। এছাড়া পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান সালমান বাট ৪৯ বলে করেন ২১ রান। মোহাম্মদ শহীদ ও আসিফ হাসানের তিনটি করে এবং মোশাররফ হোসেনের চার উইকেটে মাত্র ১৬০ রানে অলআউট হয় মোহামেডান। আগের ম্যাচে অগ্রণী ব্যাংক বড় জয় পেলেও দ্বিতীয় ম্যাচে সম্ভাবনা জাগিয়ে হেরেছে। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৩৬ রানের মধ্যেই দুই উইকেট হারায় শেখ জামাল। তবে মিডলঅর্ডার ও লেজের ব্যাটসম্যানদের কল্যাণে তিনশ’ ছুঁই ছুঁই (২৯৪/১০) রান করে তারা। চারটি উইকেট নেন অগ্রণী ব্যাংকের শফিউল ইসলাম। জবাবে ২৬৬ রানে অলআউট হয় অগ্রণী ব্যাংক। ধীমান ঘোষ ৪৮ ও শফিউল ইসলাম ৪৪ রান করেন। তিনটি করে উইকেট নেন নাজমুল ইসলাম ও ইলিয়াস সানী। দিনের অপর ম্যাচে প্রাইম ব্যাংকের তিন ব্যাটসম্যান হাফসেঞ্চুরি করলেও কাপালির অলরাউন্ড নৈপুণ্যে শেষ হাসি হাসে ব্রাদার্স। প্রথমে ব্যাট করে কাপালির ৭৯ এবং ইয়াসির আলীর ৬৯* রানে সাত উইকেটে ২৯৪ রান করে ব্রাদার্স। জবাবে শ্রীলংকার বিপক্ষে টি ২০ সিরিজের দলে সুযোগ পাওয়া জাকির হাসান (৫০), কে চান্দেলা (৫০) ও নাহিদুল ইসলাম হাফসেঞ্চুরি করেন। কিন্তু বাকিদের ব্যর্থতায় ২৭০ রানে অলআউট হয় প্রাইম ব্যাংক। কাপালি ৪৬ রান দিয়ে নেন তিন উইকেট। ব্রাদার্সের টানা দুই জয়ের দুটিতেই ম্যাচসেরা হলেন কাপালি।

লিজেন্ড অব রূপগঞ্জ ২৩১/৭, ৫০ ওভারে (আবদুল মাজিদ ৭০, নাঈম ইসলাম ৩৬, তুষার ইমরান ৪০, অভিষেক মিত্র ৪৫*। কাজী অনিক ৫/৪৪)। মোহামেডান ১৬৯/১০, ৪৪.৩ ওভারে (রনি তালুকদার ৩০, শামসুর রহমান ৩৪, রকিবুল হাসান ৩২। মোহাম্মদ শহীদ ৩/৩৩, আসিফ হাসান ৩/৩৭, মোশাররফ হোসেন ৪/২৩)। ফল : রূপগঞ্চ ৬২ রানে জয়ী। শেখ জামাল ২৯৪/৯, ৫০ ওভারে (সৈকত আলী ৪৩, ডিএস রাঙ্গি ৫৮, ইলিয়াস সানী ৪০, তানভির হায়দার ৭১। শফিউল ইসলাম ৪/৬৮, সৌম্য সরকার ২/৫০)। অগ্রণী ব্যাংক ২৬৬/১০, ৪৯.১ ওভারে (সৌম্য সরকার ২২, রাফাতুল্লাহ মোহাম্মদ ৪৩, ধীমান ঘোষ ৪৮, শফিউল ইসলাম ৪৪। সোহাগ গাজী ২/৫৫, নাজমুল ইসলাম ৩/২১, ইলিয়াস সানী ৩/৫০)। ফল : শেখ জামাল ২৮ রানে জয়ী। ব্রাদার্স ইউনিয়ন ২৯৪/৭, ৫০ ওভারে (জুনায়েদ সিদ্দিকী ৪৫, অলক কাপালি ৭৯, ইয়াসির আলী ৬৯*। দেলোয়ার হোসেন ২/৫৪, আরিফুল হক ২/৭৬)। প্রাইম ব্যাংক ২৭০/১০, ৪৭.৪ ওভারে (জাকির হাসান ৫০, কে চান্দেলা ৫০, নাহিদুল ইসলাম ৮৮। খালেদ আহমেদ ২/৪৩, অলক কাপালি ৩/৪৬, সোহরাওয়ার্দী শুভ ২/৫৪)। ফল : ব্রাদার্স ইউনিয়ন ২৪ রানে জয়ী।

 

 

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter