মোসাদ্দেকও আজ ভারতের সমর্থক
jugantor
মোসাদ্দেকও আজ ভারতের সমর্থক

  স্পোর্টস রিপোর্টার  

৩০ জুন ২০১৯, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বিশ্বকাপে কঠিন এক সমীকরণের পেছনে ছুটছে বাংলাদেশ। নিজেদের ম্যাচ নিয়ে তো ভাবতে হচ্ছেই, তাকিয়ে থাকতে হচ্ছে অন্য ম্যাচের দিকেও। সেমিফাইনালে খেলতে হলে বাংলাদেশের শেষ দুই ম্যাচে জিততে হবে। একটি জিতলেও সম্ভাবনা আছে কিন্তু সেক্ষেত্রে ইংল্যান্ডকে তাদের বাকি দুই ম্যাচেই হারতে হবে। আজ এজবাস্টনে ভারতের মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড। মঙ্গলবার নিজেদের বাঁচা-মরার ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ আবার ভারত। তবে আজ বিরাট কোহলির দল জিতলেই বাংলাদেশের সুবিধা। মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান মোসাদ্দেক হোসেনও তাই আজ ভারতকেই সমর্থন করবেন। কাল তিনি বলেন, ‘ব্যাপারটা স্বার্থপরের মতো হয়ে যায়। তবে যারা জিতলে আমাদের লাভ হয়, আমরা তাদেরই সমর্থন করব।’

সবার আলোচনাতেই এগিয়ে রয়েছে ভারত। তবে নিজেদের দিনে ইংল্যান্ড ভয়ংকর হয়ে উঠতে পারে। মোসাদ্দেকের মতো আজ বাংলাদেশ দলের বাকি ক্রিকেটাররাও ভারতের জয় আশা করছেন। পরের ম্যাচে আবার তাদের হারানোর ব্যাপারেও আত্মবিশ্বাসী ক্রিকেটাররা। মোসাদ্দেক বলেন, ‘আমরা টুর্নামেন্টের এমন একটা পর্যায়ে আছি যে অন্য কোনো দলের বোলিং নিয়ে চিন্তা করছি না। সেটা ভারত বা অন্য যে দলই হোক না কেন। অবশ্যই ভারত শক্ত প্রতিপক্ষ। যদি আমরা ভালো কিছু করতে পারি অবশ্যই ফল আমাদের পক্ষে আসবে।’ তিনি বলেন, ‘উইকেট ব্যাটসম্যানদের জন্য সহায়ক হতে পারে। যদি আগে ফিল্ডিং করি প্রথম ১০ ওভারে ২-৩ উইকেট বের করার চেষ্টা করব।’

এই বিশ্বকাপে শেষদিকে দ্রুত রান তোলার কাজটা ভালোই করেছেন মোসাদ্দেক। নিজের দায়িত্বটা আরও ভালোভাবে পালন করতে চান তিনি। মোসাদ্দেক বলেন, ‘সাতে ব্যাটিং শুধু আমার জন্য নয়, সবার জন্যই চ্যালেঞ্জিং। সময় বেশি থাকে না। দ্রুত মানিয়ে নিয়ে দ্রুত রান তুলতে হয়। আমি চেষ্টা করেছি। ভাবনা ছিল, যখনই উইকেটে যাই, একশ’র বেশি স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করব।’ তিনি বলেন, ‘বোলিংয়েও আমার ভূমিকা কী হবে সেটা ভালোভাবে জানতাম। উইকেট নেয়ার চেয়ে রান আটকানো গুরুত্বপূর্ণ। দলের চাওয়া মতো অবদান রাখতে পেরে আমি খুশি। সামনে আরও ভালো করার চেষ্টা করব।’

মোসাদ্দেকও আজ ভারতের সমর্থক

 স্পোর্টস রিপোর্টার 
৩০ জুন ২০১৯, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বিশ্বকাপে কঠিন এক সমীকরণের পেছনে ছুটছে বাংলাদেশ। নিজেদের ম্যাচ নিয়ে তো ভাবতে হচ্ছেই, তাকিয়ে থাকতে হচ্ছে অন্য ম্যাচের দিকেও। সেমিফাইনালে খেলতে হলে বাংলাদেশের শেষ দুই ম্যাচে জিততে হবে। একটি জিতলেও সম্ভাবনা আছে কিন্তু সেক্ষেত্রে ইংল্যান্ডকে তাদের বাকি দুই ম্যাচেই হারতে হবে। আজ এজবাস্টনে ভারতের মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড। মঙ্গলবার নিজেদের বাঁচা-মরার ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ আবার ভারত। তবে আজ বিরাট কোহলির দল জিতলেই বাংলাদেশের সুবিধা। মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান মোসাদ্দেক হোসেনও তাই আজ ভারতকেই সমর্থন করবেন। কাল তিনি বলেন, ‘ব্যাপারটা স্বার্থপরের মতো হয়ে যায়। তবে যারা জিতলে আমাদের লাভ হয়, আমরা তাদেরই সমর্থন করব।’

সবার আলোচনাতেই এগিয়ে রয়েছে ভারত। তবে নিজেদের দিনে ইংল্যান্ড ভয়ংকর হয়ে উঠতে পারে। মোসাদ্দেকের মতো আজ বাংলাদেশ দলের বাকি ক্রিকেটাররাও ভারতের জয় আশা করছেন। পরের ম্যাচে আবার তাদের হারানোর ব্যাপারেও আত্মবিশ্বাসী ক্রিকেটাররা। মোসাদ্দেক বলেন, ‘আমরা টুর্নামেন্টের এমন একটা পর্যায়ে আছি যে অন্য কোনো দলের বোলিং নিয়ে চিন্তা করছি না। সেটা ভারত বা অন্য যে দলই হোক না কেন। অবশ্যই ভারত শক্ত প্রতিপক্ষ। যদি আমরা ভালো কিছু করতে পারি অবশ্যই ফল আমাদের পক্ষে আসবে।’ তিনি বলেন, ‘উইকেট ব্যাটসম্যানদের জন্য সহায়ক হতে পারে। যদি আগে ফিল্ডিং করি প্রথম ১০ ওভারে ২-৩ উইকেট বের করার চেষ্টা করব।’

এই বিশ্বকাপে শেষদিকে দ্রুত রান তোলার কাজটা ভালোই করেছেন মোসাদ্দেক। নিজের দায়িত্বটা আরও ভালোভাবে পালন করতে চান তিনি। মোসাদ্দেক বলেন, ‘সাতে ব্যাটিং শুধু আমার জন্য নয়, সবার জন্যই চ্যালেঞ্জিং। সময় বেশি থাকে না। দ্রুত মানিয়ে নিয়ে দ্রুত রান তুলতে হয়। আমি চেষ্টা করেছি। ভাবনা ছিল, যখনই উইকেটে যাই, একশ’র বেশি স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করব।’ তিনি বলেন, ‘বোলিংয়েও আমার ভূমিকা কী হবে সেটা ভালোভাবে জানতাম। উইকেট নেয়ার চেয়ে রান আটকানো গুরুত্বপূর্ণ। দলের চাওয়া মতো অবদান রাখতে পেরে আমি খুশি। সামনে আরও ভালো করার চেষ্টা করব।’