ক্রিকেটাররা ঐক্যবদ্ধ

  স্পোর্টস রিপোর্টার ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

১১ দফা দাবিতে ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ডাকার ব্যাপারটি অনেকের কাছেই আচমকা মনে হচ্ছে। তাদের দাবিও যৌক্তিক। বিশ্বের অন্যতম ধনী ক্রিকেট বোর্ড বিসিবি চাইলেই সেগুলো পূরণ করতে পারে। তারপরও খেলোয়াড়দের বিভিন্ন দাবি পূরণ করে না বিসিবি। উল্টো বিসিবির সিদ্ধান্তই মেনে নিতে হয় খেলোয়াড়দের। তবে হঠাৎ মনে হলেও ক্রিকেটাররা নিজেদের দাবি আদায়ে ঐক্যবদ্ধ হয়েছেন ছয় বছর ধরে।

ক্রিকেটারদের অধিকার আদায়ের যে সংগঠন কোয়াব, সেখানে যারা দায়িত্বে রয়েছেন তারা বিসিবির বিভিন্ন পদে আসীন। বিভিন্ন সময়ে নানা কথা দিয়েও বিসিবি পরে তা পূরণ করেনি। বোর্ডের ওপর বিশ্বাস হারিয়ে ফেলেছেন ক্রিকেটাররা। ক্রিকেটারদের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছিল ঠিক ছয় বছর আগে। যখন ঢাকা লিগের ঐতিহ্য ভেঙে ক্রিকেটারদের নির্দিষ্ট গ্রেডের মধ্যে নিয়ে আসা হয়। বিসিবির বেঁধে দেয়া পারিশ্রমিকে খেলতে হয় ক্রিকেটারদের। দল বাছাই ও খেলোয়াড় নির্বাচনে ক্রিকেটার ও ক্লাবের কোনো হাত থাকে না। আগের নিয়মে ক্রিকেটাররা যে পারিশ্রমিক পেতেন এখন তার চেয়ে অনেক কম পান তারা। নতুন নিয়ম করার পর তখনই প্রায় ৫০ জন ক্রিকেটার মিরপুরে গিয়ে এমন সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছিলেন। তখন বিসিবি সভাপতি জানিয়েছিলেন, পরের আসরেই আগের নিয়মে ফিরে যাওয়া হবে। কিন্তু ছয় মৌসুমেও সেই কথা রাখেনি বিসিবি।

চারদিনের ম্যাচে জাতীয় ক্রিকেট লিগে প্রথম স্তরের ক্রিকেটাররা পান ৩৫ হাজার ও দ্বিতীয় স্তরের ক্রিকেটাররা ২৫ হাজার টাকা। এছাড়া তাদের প্রতিদিনের থাকা-খাওয়া বাবদ ১৫০০ এবং এক ভেন্যু থেকে অন্য ভেন্যুতে যাওয়ার জন্য দেয়া হয় ২৫০০ টাকা। অথচ ভারতে রাজ্য দলের টুর্নামেন্টেও ক্রিকেটাররা প্রায় এক লাখ টাকা পান। অনেকদিন ধরে ক্রিকেটাররা দাবি করলেও বিসিবি ম্যাচ ফি বাড়ানোর চেষ্টা করছে না। উল্টো বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান গত বৃহস্পতিবার বলেন, ‘তারা যা পায় সেটা খারাপ না। যতই বাড়ানো হোক না কেন চাওয়ার শেষ হবে না।’ বিসিবি সভাপতির এ কথাটাও ক্রিকেটারদের নতুন করে একত্রিত করতে সাহায্য করেছে। এছাড়া বিপিএলেও ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক অনেক কমে গেছে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×