বাংলাদেশকে ২৫টি সাইকেল উপহার সুইজারল্যান্ডের
jugantor
বাংলাদেশকে ২৫টি সাইকেল উপহার সুইজারল্যান্ডের

  স্পোর্টস রিপোর্টার  

০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সুইজারল্যান্ড থেকে ১৫টি ট্র্যাক সাইকেল এবং ১০টি এন্ট্রিলেবেল সাইকেল পাচ্ছে বাংলাদেশ। এর ফলে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আবারও দেশের সাইক্লিস্টরা সাফল্য পাবেন বলে আশা করা হচ্ছে। বাংলাদেশ সাইক্লিং ফেডারেশনের সভাপতি শফিউল্লাহ আল মুনীর বলেন, ‘শনিবার আমার জন্মদিনে আমাকে উইশ করে বাংলাদেশকে এই উপহার দেয়ার কথা জানান বিশ্ব সাইক্লিংয়ের কর্তা দাতো অমরজিত সিং।’

আন্তর্জাতিক আসর দূরে থাক, এশিয়ান পর্যায়েও বাংলাদেশ সাইক্লিংয়ের কোনো মান নেই। দক্ষিণ এশীয় গণ্ডিতে সর্বশেষ ২০১০ সালে ঢাকা এসএ গেমসে ব্রোঞ্জ জিতেছিল বাংলাদেশ। ২০১৬ গৌহাটি-শিলং ও গেল বছর নেপাল এসএ গেমসে শূন্য হাতে ফিরতে হয় সাইক্লিস্টদের। নারীদের ব্যক্তিগত রোড রেসে শিল্পি খাতুন ৩৫০ ন্যানো সেকেন্ডে পদক হারান। নারীদের টাইম ট্রায়ালে মাত্র চার সেকেন্ডের জন্য পদক হারান সুবর্ণা বর্মণ।

বাংলাদেশের পদক হাতছাড়া হওয়ার পেছনে নিুমানের সাইকেলকে দায়ী করেন সাইক্লিস্টরা। এবার তাদের আক্ষেপ

দূর হচ্ছে। বিনামূল্যে সুইজারল্যান্ড ২৫টি সাইকেল দিচ্ছে বাংলাদেশকে। মুনীরের কথায়, ‘গেল বছর আমি সুইজারল্যান্ডে গিয়েছিলাম বিশ্ব সাইক্লিং ইউনিয়নের (ইউসিআই) কংগ্রেসে। সেখানে গিয়ে বুঝতে পারি যে, শুধু ভালোমানের সাইক্লিংয়ের অভাবেই আমরা আন্তর্জাতিক আসরে পদক জিততে পারছি না।’ তিনি যোগ করেন, ‘আমার উপস্থাপনায় খুশি হয়ে ২৫টি সাইকেল উপহার দিচ্ছে সুইজারল্যান্ড। এর মধ্যে ১৫টি আন্তর্জাতিক মানের এবং ১০টি জাতীয় পর্যায়ে খেলবেন সাইক্লিস্টরা। এ মাসেই এসে পৌঁছবে সাইকেলগুলো। এজন্য আমাদের শুধু শিপিং খরচ দিতে হবে।’

সাইক্লিং ফেডারেশনের সভাপতি বলেন, ‘এশিয়ান সাইক্লিং অ্যাসোসিয়েশনের ট্রেজারার ও ওয়ার্ল্ড সাইক্লিংয়ের ম্যানেজমেন্ট কমিটির সদস্য দাতো অমরজিত সিং। আমার জন্মদিনে এই সুখবর দিয়েছেন তিনি। এই সাইকেল দিয়ে বিশ্বসেরা সাইক্লিস্টরা খেলে থাকেন। এবার আমাদের সাইক্লিস্টরাও খেলবে। আশা করি, ভবিষ্যতে দেশকে পদক উপহার দিতে পারব।’

বাংলাদেশকে ২৫টি সাইকেল উপহার সুইজারল্যান্ডের

 স্পোর্টস রিপোর্টার 
০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সুইজারল্যান্ড থেকে ১৫টি ট্র্যাক সাইকেল এবং ১০টি এন্ট্রিলেবেল সাইকেল পাচ্ছে বাংলাদেশ। এর ফলে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আবারও দেশের সাইক্লিস্টরা সাফল্য পাবেন বলে আশা করা হচ্ছে। বাংলাদেশ সাইক্লিং ফেডারেশনের সভাপতি শফিউল্লাহ আল মুনীর বলেন, ‘শনিবার আমার জন্মদিনে আমাকে উইশ করে বাংলাদেশকে এই উপহার দেয়ার কথা জানান বিশ্ব সাইক্লিংয়ের কর্তা দাতো অমরজিত সিং।’

আন্তর্জাতিক আসর দূরে থাক, এশিয়ান পর্যায়েও বাংলাদেশ সাইক্লিংয়ের কোনো মান নেই। দক্ষিণ এশীয় গণ্ডিতে সর্বশেষ ২০১০ সালে ঢাকা এসএ গেমসে ব্রোঞ্জ জিতেছিল বাংলাদেশ। ২০১৬ গৌহাটি-শিলং ও গেল বছর নেপাল এসএ গেমসে শূন্য হাতে ফিরতে হয় সাইক্লিস্টদের। নারীদের ব্যক্তিগত রোড রেসে শিল্পি খাতুন ৩৫০ ন্যানো সেকেন্ডে পদক হারান। নারীদের টাইম ট্রায়ালে মাত্র চার সেকেন্ডের জন্য পদক হারান সুবর্ণা বর্মণ।

বাংলাদেশের পদক হাতছাড়া হওয়ার পেছনে নিুমানের সাইকেলকে দায়ী করেন সাইক্লিস্টরা। এবার তাদের আক্ষেপ

দূর হচ্ছে। বিনামূল্যে সুইজারল্যান্ড ২৫টি সাইকেল দিচ্ছে বাংলাদেশকে। মুনীরের কথায়, ‘গেল বছর আমি সুইজারল্যান্ডে গিয়েছিলাম বিশ্ব সাইক্লিং ইউনিয়নের (ইউসিআই) কংগ্রেসে। সেখানে গিয়ে বুঝতে পারি যে, শুধু ভালোমানের সাইক্লিংয়ের অভাবেই আমরা আন্তর্জাতিক আসরে পদক জিততে পারছি না।’ তিনি যোগ করেন, ‘আমার উপস্থাপনায় খুশি হয়ে ২৫টি সাইকেল উপহার দিচ্ছে সুইজারল্যান্ড। এর মধ্যে ১৫টি আন্তর্জাতিক মানের এবং ১০টি জাতীয় পর্যায়ে খেলবেন সাইক্লিস্টরা। এ মাসেই এসে পৌঁছবে সাইকেলগুলো। এজন্য আমাদের শুধু শিপিং খরচ দিতে হবে।’

সাইক্লিং ফেডারেশনের সভাপতি বলেন, ‘এশিয়ান সাইক্লিং অ্যাসোসিয়েশনের ট্রেজারার ও ওয়ার্ল্ড সাইক্লিংয়ের ম্যানেজমেন্ট কমিটির সদস্য দাতো অমরজিত সিং। আমার জন্মদিনে এই সুখবর দিয়েছেন তিনি। এই সাইকেল দিয়ে বিশ্বসেরা সাইক্লিস্টরা খেলে থাকেন। এবার আমাদের সাইক্লিস্টরাও খেলবে। আশা করি, ভবিষ্যতে দেশকে পদক উপহার দিতে পারব।’

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন