মোহামেডানের কাছে মেরিনার্সও ধরাশায়ী

হকিতে সাদা-কালো বিপ্লব

  স্পোর্টস রিপোর্টার ২৪ মে ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

মোহামেডান,

আবাহনীর পর ধরাশায়ী বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ঢাকা মেরিনার্স। মোহামেডানের কাছে নাস্তানাবুদ ঘরোয়া হকির দুই পরাশক্তি। প্রিমিয়ার হকি লিগে এবার মাঝারি মানের দল নিয়েই সাদা-কালো বিপ্লব ঘটিয়ে ফেলেছে মোহামেডান।

বুধবার মওলানা ভাসানী হকি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত নিজেদের দশম ম্যাচে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের কাছে ৩-১ গোলে হেরে মৌসুমের প্রথম পয়েন্ট খুইয়েছে মেরিনার্স। টানা ১০ ম্যাচ জিতে ৩০ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে শীর্ষে উঠে এসেছে মোহামেডান।

অন্যদিকে ২৭ পয়েন্ট নিয়ে মেরিনার্স দ্বিতীয়স্থানে। ম্যাচের ক্ষণে ক্ষণে ছিল উত্তেজনা, উন্মাদনা আর আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ। দু’দফায় ম্যাচ বন্ধ ছিল প্রায় ২০ মিনিট। আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে রিভিউ নিয়ে দু’বার জিতেছে মোহামেডান।

টানটান উত্তেজনার ম্যাচে শেষ পর্যন্ত আর চাপ নিতে পারেনি মেরিনার্স। অন্যদিকে চাপেই ভালো খেলে মোহামেডান। দু’দিন আগে তারা আবাহনীকে ২-১ গোলে হারিয়েছে। এবার তাদের কাছে বধ হয়েছে মেরিনার্স।

‘আমরা দল হিসেবে খেলেছি। তাই জিতেছি’, বললেন মোহামেডানের অধিনায়ক রাসেল মাহমুদ জিমি। তিনি যোগ করেন, ‘অনেকবার আমাদের উত্তেজিত করার চেষ্টা করেছে মেরিনার্সের খেলোয়াড়রা। কিন্তু আমরা মাথা ঠাণ্ডা রেখে খেলেছি। কোনোভাবেই উত্তেজিত হইনি।’

জাতীয় দলের একঝাঁক তারকার পাশাপাশি মিসর, জার্মানি ও ভারতের মতো দেশ থেকে খেলোয়াড় এনেও বড় ম্যাচ জিততে পারল না মেরিনার্স। ম্যাচের আট মিনিটে রাব্বি সালেহিনের রিভার্স হিট লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়। পরের মিনিটেই বল নিয়ে এগিয়ে যাওয়া গুরজিন্দরকে অবৈধভাবে বাধা দেন মেরিনার্সের গোলকিপার অসীম গোপ।

পেনাল্টি স্ট্রোক পায় মোহামেডান। কিন্তু অরবিন্দর স্ট্রোক রুখে দেন অসীম। ২২ মিনিটে ফের হতাশ হতে হয় সাদা-কালোদের। পেনাল্টি কর্নার (পিসি) থেকে শামসের সিংয়ের পুশ কামরুজ্জামান রানার স্টপের পর অরবিন্দরের হিট লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়।

প্রথমার্ধের শেষ মিনিটে মেরিনার্সকে এগিয়ে দেন হাসান যুবায়ের নিলয়। পুষ্কর খিসা মিমোর ডান দিক দিয়ে বাড়ানো বলে নিলয়ের হিট মোহামেডানের বোর্ডে আছড়ে পড়ে (১-০)। বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি মেরিনার্সের উল্লাস।

নয় মিনিট পর ফের পেনাল্টি স্ট্রোক পায় জিমি বাহিনী। গুরজিন্দরের হিট সরাসরি জালে আশ্রয় নিলে সমতায় ফেরার উল্লাসে ফেটে পড়ে সাদা-কালো শিবির। পরবর্তীতে মেরিনার্সের পাওয়া একটি পেনাল্টি স্ট্রোকে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে রিভিউ চায় মোহামেডান। খেলা বন্ধ থাকে। সিদ্ধান্তটা মোহামেডানের পক্ষেই যায়।

এরপর সাইড লাইনে গিয়ে দাঁড়িয়ে থাকে মেরিনার্স। প্রায় ১৫ মিনিট খেলা বন্ধ থাকে। এর আগেও একবার আট মিনিট বন্ধ ছিল খেলা। শেষ দিকে টানা দু’গোল করে মোহামেডানকে চ্যাম্পিয়নদের বিপক্ষে জয় এনে দেন ভারতীয় খেলোয়াড় অরবিন্দর সিং। দুটি গোলই পিসি থেকে আসে। শামসের সিংয়ের পুশে রানা বল স্টপ করালে নিখুঁত হিটে ড্রাগ করে জালে জড়ান অরবিন্দর।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter