সাক্ষাৎকারে নাজমুল আবেদিন ফাহিম

‘বিপক্ষ বোলারদের জন্য মুশফিক এখন হুমকি’

  স্পোর্টস রিপোর্টার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

মুশফিক,

এশিয়া কাপের উদ্বোধনী ম্যাচে শ্রীলংকার বিপক্ষে ১৩৭ রানের বড় জয়ে উজ্জীবিত বাংলাদেশ। ব্যাটিংয়ে সূচনালগ্নে ধস নামার পরও মুশফিকুর রহিম ও মোহাম্মদ মিঠুনের লড়াকু ইনিংস এবং তামিম ইকবালের অসম সাহসিকতার প্রশংসা গোটা ক্রিকেটবিশ্বে। এ ম্যাচ নিয়ে বিকেএসপির সাবেক কোচ ও বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের ইনচার্জ নাজমুল আবেদিন ফাহিমের বিশ্লেষণ-

প্রশ্ন : মুশফিকের ইনিংস...

নাজমুল : মুশফিক এমন পরিস্থিতিতে আগেও অনেকবার ভালো খেলেছে। সে নিজের উইকেট বিলিয়ে দিতে চায়নি। সময় নিয়েছে, সময়ের সঙ্গে দ্রুত রান তোলার দিকেও নজর দিয়েছে। টপঅর্ডারে যে কোনো সময় ধস নামতে পারে, মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যানদের সেটা মাথায় রাখতে হবে। নতুন করে ইনিংস শুরু করার মানসিকতা থাকতে হবে। মুশফিক সেটা করে দেখিয়েছে। সে যে ধৈর্য নিয়ে ব্যাট করেছে তাতে প্রশংসার দাবিদার। এই ম্যাচ থেকে সে আরও বড় শিক্ষা নেবে। যদি টপঅর্ডারে আবারও কখনও ধস নামে, তাহলে পরিস্থিতি মোকাবেলা ও ইনিংস বড় করার জন্য একজন ব্যাটসম্যান থাকবে।

প্রশ্ন : মুশফিকের শট নির্বাচন...

নাজমুল : আমরা তার শটে কোনো ভুল দেখিনি। যেদিকে বল সেদিকেই মারার চেষ্টা করেছে। যা অন্য শটগুলোর চেয়ে তুলনামূলক সহজ পন্থা। সাধারণত উইকেটে টিকে গেলেই বল যেখানেই যাক না কেন, তার লক্ষ্য থাকে মিড উইকেট দিয়ে মারার। এভাবে সে অনেকবার আউট হয়েছে। এই ইনিংসে সে সব ধরনের শট খেলেছে। তার শট খেলার পরিধি এখন অনেক বেশি। তার বিরুদ্ধে বোলারদের বল করার অপশন অনেক কমে গেছে। প্রতিপক্ষ বোলারদের জন্য মুশফিক এখন হুমকি।

প্রশ্ন : মিঠুনের ইনিংস কীভাবে দেখছেন?

নাজমুল : মিঠুন সাহসের পরিচয় দিয়েছে। ও ধীরগতিতে ব্যাট করেনি। সে যদি মন্থর ব্যাট করত, তাহলে শ্রীলংকার চড়াও হওয়ার সুযোগ থাকত। মিঠুনের ওই ইনিংস খেলার কারণে মুশফিক সময় নিতে পেরেছে। তা না হলে মুশফিকের ওপর চাপ চলে আসত। এশিয়া কাপে শুরুর ম্যাচে আমাদের যে মোমেন্টাম দরকার ছিল, সেটা শুরু হয়েছে মিঠুনকে দিয়ে। তার বড় শট খেলার ক্ষমতা রয়েছে। বড় স্কোর করতে হলে তার মতো ব্যাটসম্যান দলে লাগবে।

প্রশ্ন : তামিমের শূন্যতায় উদ্বোধনী

জুটির কী হবে?

নাজমুল : তামিমের না থাকায় প্রভাব তো পড়বেই। তামিম যদি না খেলে সে পরিস্থিতিতে কী হবে আমরা এই পরিকল্পনা আগে করিনি। তামিমের ফর্ম বিচারে তার না থাকা দলের জন্য বড় ক্ষতি। আমাদের জন্য বড় সমস্যার কারণ হবে। তবে তার জায়গায় যে-ই খেলুক না কেন, এটা তার জন্য বড় সুযোগ।

প্রশ্ন : আফগানিস্তানের বিপক্ষে চ্যালেঞ্জের জায়গা কোথায়?

নাজমুল : ওয়ানডে ক্রিকেটে আফগানিস্তানের বিপক্ষে চ্যালেঞ্জের কিছু দেখি না। আমাদের ৫০ ওভার খেলার মতো ব্যাটিং সামর্থ্য আছে। আফগানিস্তানের দু’একজন বোলারের বিপক্ষে বড় শট না খেলতে পারলেও বাকিদের কাছ থেকে যথেষ্ট রান আদায় করে নিতে পারব। আমরা আফগানিস্তানের বিপক্ষে জিতব।

প্রশ্ন : বড় মঞ্চে ব্যাটিংয়ে ধস নামার পর ঘুরে দাঁড়ানো কীভাবে দেখছেন?

ফাহিম : এই ইনিংস দুটি বার্তা দেয়। একটা হল, টপঅর্ডারে আরও ধারাবাহিক হওয়া উচিত। আরেকটা হল, আমাদের এভাবেও ঘুরে দাঁড়ানোর সামর্থ্য আছে। আমাদের মিডলঅর্ডারের ব্যাটসম্যানরা ক্রিকেটবিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে অভিজ্ঞদের কাতারে। তবে এভাবে সব ম্যাচ জেতা যাবে না।

প্রশ্ন : ইনজুরি-ঝুঁকির জন্য আমাদের পর্যাপ্ত বিকল্প খেলোয়াড় প্রস্তুত আছে কী?

নাজমুল : মুশফিক-সাকিব-তামিমদের ক্ষেত্রে আমাদের কোনো বিকল্প নেই। ওদের বদলি ক্রিকেটার আমরা তৈরি করতে পারিনি।

দ্রুত সম্ভবও না। এদের একজন ইনজুরিতে পড়লে হয়তো সামাল দেয়া সম্ভব। ইনজুরির কথা মাথায় রেখে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। ক্রিকেটাররা যদি ক্যারিয়ার লম্বা করতে চায়, প্রতিটা সিরিজ, ম্যাচে শতভাগ দিতে চায়, তাহলে সবাইকে খুব যত্নসহকারে পরিচর্যা করতে হবে।

ঘটনাপ্রবাহ : এশিয়া কাপ ২০১৮

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×