খাসোগি হত্যার বিচার নিয়ে প্রশ্ন জাতিসংঘের

  যুগান্তর ডেস্ক ০৬ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

সাংবাদিক জামাল খাসোগি
সাংবাদিক জামাল খাসোগি। ফাইল ছবি

সাংবাদিক জামাল খাসোগি হত্যার বিচারের নিরেপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে জাতিসংঘ। আর বরাবরের মতোই এ হত্যাতদন্তের বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়ে আবারও সংশয় প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। খবর আলজাজিরা, ওয়াশিংটন পোস্টের।

শুক্রবার জাতিসংঘের মুখপাত্র রবিনা শামদাসানি বলেন, ‘সৌদি আরবে সাংবাদিক জামাল খাসোগি হত্যাকাণ্ডের যে বিচার চলছে তার স্বচ্ছতা নিশ্চিত করা সম্ভব হচ্ছে না। এই বিচার ‘যথেষ্ট নয়’। হত্যাকাণ্ডের ব্যাপারে আন্তর্জাতিকমহলের সংশ্লিষ্টতায় একটি নিরপেক্ষ তদন্তের দাবি জানাচ্ছে জাতিসংঘ। একইসঙ্গে অভিযুক্তদের মৃত্যুদণ্ডের আবেদনেরও বিরোধিতা করছে জাতিসংঘ।’

আন্তর্জাতিক সম্পৃক্ততার মাধ্যমে খাসোগি হত্যার একটি স্বাধীন তদন্ত প্রক্রিয়া সম্পন্ন হোক। সৌদিতে খাসোগি হত্যাকাণ্ডের বিচার শুরু হওয়ার একদিন পর এমন মন্তব্য এলো জাতিসংঘের পক্ষ থেকে।

একই দিনে, খাসোগি হত্যাকাণ্ডের বিশ্বাসযোগ্য তদন্তে এখনও সৌদি আরবের ঘাটতি আছে বলে দাবি করছেন যুক্তরাষ্ট্রের একজন সিনিয়র কর্মকর্তা। তিনি মনে করছেন পূর্ণাঙ্গ বিশ্বাসযোগ্য ও স্বচ্ছতায় ঘাটতি আছে এ তদন্তে। খবর এএফপির।

মধ্যপ্রাচ্যের আটটি দেশ সফরের অংশ হিসেবে আগামী সপ্তাহে রিয়াদ সফরে যাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। এ সময়ে তিনি খাসোগি হত্যাকাণ্ড নিয়ে সৌদি আরবের ওপর চাপ প্রয়োগ করবেন বলে বলা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্র সরকারের একজন কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেছেন, এ সফরে মাইক পম্পেও সাংবাদিক জামাল খাসোগি হত্যার বিষয়টি উত্থাপন করবেন এবং সৌদি আরবের কাছ থেকে জবাবদিহিতা ও বিশ্বাসযোগ্যতার জন্য চাপ সৃষ্টি করবেন। ওই কর্মকর্তা আরও বলেন, আমাদের দৃষ্টিভঙ্গি থেকে আমি মনে করি না যে, আইনগত সব বিষয়কে পূর্ণাঙ্গভাবে অবলম্বন করতে পারছে সৌদি আরব।

খাসোগি হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় গ্রেফতার সন্দেহভাজন ১১ জনের মধ্যে পাঁচজনের বিচারের প্রথম শুনানি অনুষ্ঠিত হয় বৃহস্পতিবার। জাতিসংঘ বলছে, সৌদিতে খাসোগি হত্যাকাণ্ডের বিচার হলে তার নিরপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যায়।

গত বছরের ২ অক্টোবর তুরস্কের ইস্তাম্বুলে অবস্থিত সৌদি কনস্যুলেটে খাসোগিকে হত্যা করে সৌদির পাঠানো একটি কিলিং স্কোয়াড। ওয়াশিংটন পোস্টের কলাম লেখক খাসোগিকে হত্যার কথা প্রথমে অস্বীকার করলেও চাপের মুখে সৌদি কর্তৃপক্ষ স্বীকার করতে বাধ্য হয় যে কনস্যুলেটের ভেতরে খাসোগিকে তারাই হত্যা করেছে।

তুরস্কের তদন্ত কর্মকর্তাদের দাবি অনুযায়ী, এক সময় সৌদি রাজপরিবারের ঘনিষ্ঠ ব্যক্তি থেকে রাজতন্ত্রের সমালোচক হয়ে ওঠা খাসোগিকে হত্যার পর তার লাশ টুকরো টুকরো করা হয়। আর এ হত্যাকাণ্ড পরিচালনার জন্য ১৫ সদস্যের একটি কিলিং স্কোয়াড পাঠিয়েছিল সৌদি আরব।

ঘটনাপ্রবাহ : সাংবাদিক জামাল খাসোগি নিখোঁজ

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×