পাল্টে গেছে সেই বরফ বালকের জীবন

  যুগান্তর ডেস্ক ০৯ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পাল্টে গেছে সেই বরফ বালকের জীবন
ছবি: বিবিসি

মাথায় বরফ জমে যাওয়া ৮ বছরের শিশুর স্কুলে পৌঁছানোর ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গত বছর ভাইরাল হয়েছিল। তার খেতাব জুটেছিল ‘বরফ বালক’।

যত দূর হোক তবু তাকে স্কুলে যেতেই হবে। বাড়ি থেকে প্রায় সাড়ে চার কিলোমিটার হাঁটা পথ। অর্থ থাকলে হয়তো কোনো যানবাহনেই যেতে পারত সে। কিন্তু সেই অর্থ নেই।

ওয়াং ফুম্যান নামের সেই চীনা বালক মাইনাস ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার শীতের মধ্যে হেঁটে স্কুলে হাজির হয়েছিল। গত বছরের জানুয়ারিতে চীনের ইউনান প্রদেশের লুদিয়ান কাউন্টি এলাকার ঘটনা এটি। এক বছরে তার জীবন অনেক পাল্টে গেছে।

বিবিসি জানায়, বছর শেষের ফলাফলে ক্লাসে সেরা শিক্ষার্থী হয়েছে ওয়াং। প্রাকৃতিক প্রতিকূলতার মধ্যে স্কুলের প্রতি ওয়াংয়ের ভালোবাসা সবার নজর কাড়ে। মাথার চুল ও চোখের ভ্রু বরফে জমে যাওয়া ওয়াংয়ের সেই ছবি হ্যাশট্যাগ আইসবয় দিয়ে শেয়ার করেন চীনের সামাজিক মাধ্যম সিনা উইবো ব্যবহারকারীরা।

দেশের বিভিন্ন মহলের মানুষ তার প্রতি সাহায্যের হাত বাড়ায়। কুঁড়েঘর থেকে ওয়াংয়ের পরিবার এখন দোতলা বাড়িতে থাকে। তার বাবা ওয়াং গাং কুই বলেন, ‘জীবন অনেক সুন্দর। মাটির দেয়াল ও কর্দমাক্ত রাস্তার চেয়ে আমরা এখন আলো-বাতাসের মধ্যে উত্তম আশ্রয় পেয়েছি।’

শুধু ওয়াং নয়, তার স্কুলের জন্যও সাহায্য পাঠায় মানুষ। স্কুলেরও অনেক উন্নতি হয়েছে। শ্রেণীকক্ষে শীত নিবারণ ব্যবস্থা স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়া দূর-দূরান্ত থেকে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের জন্য তৈরি হয়েছে আবাসিক ভবন। স্কুলের ডেপুটি প্রিন্সিপাল ফু হেং বলেন, ওয়াং আমাদের স্কুলের সেরা ছাত্র।

অন্য শিক্ষার্থীদের মধ্যে সে স্বপ্ন বুনে দিয়েছে। তাদের ভবিষ্যতের দুয়ার হবে মসৃণ। তবে ওয়াংয়ের স্বপ্ন আগের মতোই আছে। বড় হয়ে সে পুলিশ অফিসার হতে চায় বলে জানিয়েছিল ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে।

গত বছর প্রকাশিত ছবিতে দেখা গিয়েছিল, ওয়াংয়ের মাথার চুল ও চোখের ভ্রুতে বরফ জমে গেছে। গায়ে পাতলা জ্যাকেট। হাতে লেগে আছে ময়লা, তীব্র ঠাণ্ডায় ফুলে গেছে হাত।

ওই হাতের আঙুল দিয়েই সে বুলিয়ে নিচ্ছে স্কুলের খাতা। এক বছর পর হ্যাশট্যাগ আইসবয়এইয়ারঅন দিয়ে উইবো ব্যবহারকারীরা তার পরিবর্তিত জীবনের গল্প শুনিয়েছেন।

একজন বলেন, সামাজিক মাধ্যমের শক্তি পরিমাপ করা যায় না। চেন লি নামের একজন লিখেছেন, ওয়াং ও তার পরিবারের নতুন জীবন তাদের খুশি করেছে।

আরেকজন লিখেছেন, সুশাসন আরও অনেক বরফ বালককে গলিয়ে দিতে পারে। গরিব মেধাবী শিশুকে জাগিয়ে তুলতে পারে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×