হোয়াইট হাউসেও শাটডাউন বিড়ম্বনা

পকেটের পয়সায় অতিথি খাওয়ালেন ট্রাম্প

রাঁধুনিরা ছুটিতে : অতিথিদের আগমন বাতিল হোক চাননি

প্রকাশ : ১৬ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক

অতিথি খাওয়ালেন ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় সরকারের আংশিক অচলাবস্থার মধ্যে খাবার সরবরাহ ও পরিবেশন কর্মীর ঘাটতি দেখা দিয়েছে হোয়াইট হাউসে।

প্রেসিডেন্টের দাফতরিক ভবনে ফাস্ট ফুড দিয়েই অতিথি আপ্যায়ন সেরেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সরকারের অচলাবস্থা চতুর্থ সপ্তাহে গড়ালেও কোনো পক্ষই ছাড় দিচ্ছে না।

ফলে শিগগিরই সংকট নিরসনের সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না। মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণের অর্থায়নকে ঘিরে ডেমোক্র্যাট আইনপ্রণেতাদের সঙ্গে ট্রাম্পের মতবিরোধে ২২ ডিসেম্বর থেকে এ অচলাবস্থা শুরু হয়।

বিবিসি জানায়, সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের বিজয়ী দল দ্য ক্লেমসন টাইগার্সকে হোয়াইট হাউসে স্বাগত জানান ট্রাম্প। প্রেসিডেন্ট তাদেরকে ৩০০ বার্গার, ফ্রেঞ্চ ফ্রাই ও পিৎজা দিয়ে আপ্যায়ন করেন।

সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘অচলাবস্থার কারণে, বাইরে গিয়ে আমার খরচে আমেরিকান ফাস্ট ফুড অর্ডার করেছি।’ স্টেট ডাইনিং রুমে উপস্থিত অতিথিদের সামনে ট্রাম্প বলেন, ‘আমাদের কাছে পিৎজা আছে, আছে ৩০০ হ্যামবার্গার, অনেক অনেক ফ্রেঞ্চ ফ্রাই। সবই আমাদের প্রিয় খাবার। আমরা যখন চলে যাব, তখন কী অবশিষ্ট থাকে তা দেখতে চাই।

কারণ, আমার মনে হচ্ছে খুব বেশি কিছু থাকবে না।’ ট্রাম্প বলেন, চলমান অচলাবস্থার কারণে হোয়াইট হাউসে অতিথিদের আগমন বাতিল হয়ে যাক, তা চাননি তিনি।

তবে এদিন অতিথি আপ্যায়নে প্রেসিডেন্টের পকেট থেকে কত ডলার খরচ হয়েছে তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। প্রেসিডেন্টের প্রিয় ফাস্ট ফুডের নাম কি, এক সংবাদিকের করা এ প্রশ্নের জবাবে দুই বছর আগে হোয়াইট হাউসের বাসিন্দা হওয়া ট্রাম্প জানান, তিনি সব ধরনের ফাস্ট ফুডই পছন্দ করেন। তিনি বলেছিলেন, যদি এটি আমেরিকান হয়, আমি পছন্দ করব।

আমি সব আমেরিকান পণ্যই পছন্দ করি। রেকর্ড ২৪ দিন ধরে চলা এ অচলাবস্থায় হোয়াইট হাউসের আবাসিক কর্মীসহ যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে প্রায় আট লাখ সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীকে হয় বাধ্যতামূলক ছুটি নয়তো বেতন ছাড়াই কাজ চালিয়ে যেতে হচ্ছে। দেয়াল নির্মাণের বরাদ্দ ছাড়া কংগ্রেস থেকে আসা কোনো বাজেট বিলে স্বাক্ষর করবেন না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন ট্রাম্প।