মোদি হটানোর মহার‌্যালিতে ফারুক আব্দুল্লাহ

‘চোর মেশিন’ ইভিএম

  যুগান্তর ডেস্ক ২০ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনকে (ইভিএম) ‘চোর মেশিন’ আখ্যায়িত করেছেন জম্মু ও কাশ্মীরের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী এবং ন্যাশনাল কনফারেন্সের নেতা ফারুক আবদুল্লাহ। কলকাতার ব্রিগেড ময়দানে শনিবার তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি মমতা ব্যানার্জির আহ্বানে বিজেপি হটানোর মহাসমাবেশে দেয়া ভাষণে তিনি এ দাবি জানান। তিনি বলেন, ভারতের নির্বাচনে এ চোর মেশিনের ব্যবহার বন্ধ করতে হবে।

স্বচ্ছ নির্বাচন প্রক্রিয়ার স্বার্থে ব্যালট পেপার পুরোপুরি ফিরিয়ে আনার দাবি জানিয়ে ফারুক আবদুল্লাহ বলেন, ‘ইভিএম চোর মেশিন। এর মাধ্যমে কারচুপি করা হয়। বিশ্বের কোনো দেশ এটি ব্যবহার করে না। তাই এটি বন্ধ করার জন্য সব রাজনৈতিক দলের নেতাদের একযোগে নির্বাচন কমিশন এবং প্রেসিডেন্টের কাছে দাবি জানানো উচিত।’

আগামী লোকসভা নির্বাচনে ইভিএম বন্ধে প্রায় সব বিরোধী দল দাবি তুলেছে। তাদের দাবি, এ মেশিনের মাধ্যমে ভোট প্রভাবিত করা যায়। যদিও প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) সুনীল অরোরা বলেছেন, ‘ইভিএম মেশিন অনেকটা ফুটবলের মতো। হারলে তার ঘাড়ে দোষ দেয়া হয়। জিতলে সমস্যা নেই।’ একই কথা বলেছেন সাবেক সিইসি ওপি রাওয়াত, ‘কেবল পরাজিত হলেই রাজনৈতিক দল ইভিএম নিয়ে প্রশ্ন তোলেন।’ তিনি আরও বলেন, ‘এটি একটি ট্রেন্ড হয়ে গেছে। জিতলে কেউ ইভিএমকে ক্রেডিট দেন না। কিন্তু, হেরে গেলেই দোষারোপ করেন।’

নির্বাচন কমিশন পুরোপুরি ব্যালট পেপারে ফিরে আসার দাবি সরাসরি নাকচ করে দিয়েছে। ক্ষমতাসীন বিজেপি বলছে, বিরোধীশিবির তাদের দুর্বলতা ঢাকতেই ইভিএমের বিরোধিতা করে আসছে।

শনিবারের এ মহাসমাবেশে ফারুক আবদুল্লাহর ছেলে ওমর আবদুল্লাহসহ ২২টি বিরোধী দলের নেতারা উপস্থিত হন। এ সমাবেশ মঞ্চ থেকেই বিজেপিকে হঠানোর ডাক দেয়া হয়েছে।

ভায় বক্তব্য দিতে উঠে তিন তালাকসহ নরেন্দ্র মোদি পরিচালিত কেন্দ্রীয় সরকারের বিভিন্ন নীতির সমালোচনা করার পাশাপাশি কাশ্মীরের পরিস্থিতিকে জটিল করার জন্য বিজেপিকেই দায়ী করেন ফারুক।

এ অবস্থায় কেন্দ্র থেকে নরেন্দ্র মোদি এবং বিজেপিকে সরানোটাই সবার মূল লক্ষ্য হওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন তিনি। পাশাপাশি এই লক্ষ্য পূরণের জন্য সব অবিজেপি নেতাদের আত্মত্যাগ করার কথাও বলেন ফারুক আবদুল্লাহ।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×