যুক্তরাষ্ট্রে নয়া ভিসা আইন

প্রকাশ : ০৩ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা পেতে গেলে এবার থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের সব তথ্য জমা দিতে হবে। শনিবার দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে জানানো হয়, যুক্তরাষ্ট্রের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতেই এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। যারা এ দেশে আসার জন্য ভিসার আবেদন করবেন, তাদের গত পাঁচ বছরের সোশ্যাল মিডিয়ায় সব অ্যাকাউন্টের তথ্য, সব ই-মেইল অ্যাড্রেস ও ফোন নম্বর জমা দিতে হবে। তারপরই সব বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে, তাকে ভিসা দেয়া হবে কি হবে না। যারা বেড়াতে আসছেন, বা পড়াশোনার কাজে আসছেন, তাদেরকে এই তথ্য জমা দিতে হবে বলে জানানো হয়েছে। তবে কোনো দেশের সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে যারা আসবেন তাদের কোনো রকম তথ্য জমা দিতে হবে না।

জানা গিয়েছে, গত বছরই এ নির্দেশিকা বলবৎ করার জন্য প্রস্তাব দেয়া হয়েছিল। কিন্তু তখন এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। এর ফলে প্রতিবছর মার্কিন মুলুকে যাওয়া অন্তত ১৪.৭ মিলিয়ন মানুষের ওপর এই প্রভাব পড়বে বলে জানা গিয়েছে। স্টেট ডিপার্টমেন্টের এই আধিকারিক জানিয়েছেন, আমরা প্রতিনিয়ত এই চেষ্টা করছি, কীভাবে আমাদের দেশের নাগরিকদের সুরক্ষা বাড়ানো যায়। আর তাই বাইরে থেকে আসা মানুষকে এই নিয়মের মধ্যে দিয়ে যেতে হবে। এটা আমাদের দেশের সুরক্ষার প্রশ্নে। এই প্রশ্নে কোনো অনিয়ম হবে না।

এর আগেও অবশ্য আমেরিকার ভিসা পেতে গেলে এ ধরনের তথ্য জমা দিতে হতো। তবে সেটা শুধু তাদেরই দিতে হতো, যারা কোনো জঙ্গিগোষ্ঠীর দ্বারা নিয়ন্ত্রিত দেশ থেকে আমেরিকা যাচ্ছেন। এবার সবার ক্ষেত্রেই এ নিয়ম করা হল।

এ নির্দেশিকায় স্পষ্ট করে জানিয়ে দেয়া হয়েছে, কেউ যদি নিজেদের ব্যাপারে ভুল তথ্য দেন, তাহলে তার ফল তাকে ভুগতে হবে। হয়তো ভবিষ্যতে আর কোনোদিন তিনি আমেরিকার ভিসার জন্য আবেদনই করতে পারবেন না।