বন পোড়ানো ঠেকাতে ব্রাজিলে দুই মাসের জরুরি অবস্থা জারি

  যুগান্তর ডেস্ক ৩০ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ছবি: এএফপি

বিশ্বের বন পোড়ানো ঠেকাতে দুই মাসের জরুরি অবস্থা জারি করেছে ব্রাজিল। আমাজনের ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে আন্তর্জাতিক সমালোচনার মুখে বুধবার এ মর্মে এক প্রেসিডেন্সিয়াল ডিক্রি জারি করেন দেশটির কট্টর ডানপন্থী প্রেসিডেন্ট জাইর বলসোনারো। পরদিন বৃহস্পতিবার সরকারিভাবে প্রকাশিত হয় ডিক্রিটি।

এতে বলা হয়েছে, ব্রাজিলজুড়ে আগামী ৬০ দিনের জন্য সব ধরনের আগুন লাগানো নিষিদ্ধ থাকবে। তবে কৃষি ও বনবিভাগের নিয়মিত কাজের ক্ষেত্রে কোনো নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হবে না। আমাজনের আগুন নেভাতে এর আগেই সেনাবাহিনীও নামান বলসোনারো।

বিমান থেকে পানি ছিটিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। এ কাজে ব্রাজিল সরকারের সঙ্গে একযোগে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

বুধবার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসনের এক কর্মকর্তা বলেন, আমাজনের আগুন নেভাতে বলসোনারোর সরকাকে সহায়তা করতে প্রস্তুত ওয়াশিংটন। খবর এএফপির।

কয়েক মাস ধরে আগুনে পুড়ছে বিশ্বের বৃহত্তম চিরহরিৎ বন আমাজন। বৈশ্বিক উষ্ণতা ঠেকানো ও জলবায়ু পরিবর্তনের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় বনটির গুরুত্ব অপরিহার্য ও সীমাহীন।

আমাজনজুড়ে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড নিয়ে গত সপ্তাহে খবর প্রকাশের পর এ নিয়ে সারাবিশ্বে হইচই শুরু হয়। ব্রাজিল ও ইউরোপীয় নেতাদের মধ্যেও এ নিয়ে কূটনৈতিক দ্বন্দ্ব দেখা দেয়। ফ্রান্সের বিয়ারিতজে জি-৭ সম্মেলনের আলোচনায় সর্বাধিক গুরুত্ব পায় আমাজন।

সম্মেলন থেকে বলসোনারোকে আগুন নেভানোর জন্য ব্যবস্থা নেয়ার আহ্বান জানানো হয়। এজন্য সহায়তা হিসেবে ঘোষণা করা হয় ২ কোটি ডলার। প্রাথমিকভাবে সহায়তা নিতে অস্বীকার করলেও পরে ‘এক হাতে খরচ’ করার শর্তে অর্থ গ্রহণের আগ্রহ প্রকাশ করেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট।

এদিকে ইউরোপের নেতাদের সঙ্গে দ্বন্দ্বে বলসোনারো বলেছেন, ফ্রান্স-জার্মানি আমাজনে আগুন নিয়ন্ত্রণের আর্থিক সাহায্য দিয়ে ব্রাজিলের সার্বভৌমত্ব কিনে নিতে চাইছে। বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

এর আগে ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রোঁর সঙ্গে বিতর্ক জড়িয়ে জি-৭ দেশগুলোর দেয়া ২ কোটি ২০ লাখ ডলার সহায়তার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেন বলসোনারো। ম্যাক্রোঁ তার উদ্দেশে ‘অপমানমূলক মন্তব্য’ করেছেন অভিযোগ এনে বৃহস্পতিবারও ফের মন্তব্য ফিরিয়ে নেয়ার আহ্বান জানান ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট। তিনি বলেন, ‘প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রোঁ তার বক্তব্য প্রত্যাহার করলেই অর্থ সহায়তার ব্যাপারে আমরা ফের আলোচনা শুরু করতে পারি।’

তিনি বলেন, ‘জার্মানি এবং বিশেষ করে ফ্রান্স আমাদের সার্বভৌমত্ব কিনে নিতে চায়। বিষয়টি এমন যেন ২ কোটি ডলার আমাদের বিক্রয় মূল্য। ২ কোটি বা ২ লাখ কোটি ডলার ব্রাজিলের মূল্য নয়, টাকার পরিমাণ যাই হোক আমাদের কাছে বিষয়টি একই।’

এদিন চিলির প্রেসিডেন্টের সঙ্গে এক বৈঠকে আগুন নিয়ন্ত্রণে প্রস্তাবকৃত চারটি ফায়ার প্লেন গ্রহণ করেন বলসোনারো। এছাড়া পেরু ও কলম্বিয়ার সহায়তা প্রস্তাবও গ্রহণ করেন তিনি। ব্রাজিল সরকার বলেছে, তারা আগুন নিয়ন্ত্রণে সাতটি শহরে ৪৪ হাজার সেনা মোতায়েন করেছে।

আগামী সপ্তাহে আমাজনের এ সংকট নিয়ে আলোচনায় বসবে দক্ষিণ আমেরিকার দেশগুলো। পৃথিবীর অক্সিজেনের অন্যতম উৎস আমাজনের আগুন বৈশ্বিক উষ্ণতার জন্য একটি বড় শঙ্কা। আগস্টের মাঝামাঝি সময়ে ব্রাজিলের স্পেস এজেন্সি জানায়, ‘এ বছর ১ জানুয়ারি থেকে ২৭ আগস্ট পর্যন্ত ৮৩ হাজারেরও বেশি অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে।

ঘটনাপ্রবাহ : পুড়ছে আমাজন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: jugantor.mai[email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত