ছেলেকে পুড়িয়ে মারতে বললেন ধর্ষকের মা
jugantor
ছেলেকে পুড়িয়ে মারতে বললেন ধর্ষকের মা

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ছেলে দোষী হলে তাকেও পুড়িয়ে মারা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন হায়দরাবাদ গণধর্ষণ ও খুনের মামলায় এক অভিযুক্তের মা। নিহত তরুণীর মা আগেই হত্যাকারীদের পুড়িয়ে মারা উচিত বলে মন্তব্য করেছিলেন।

রোববার সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত একটি ভিডিওতে এক অভিযুক্তের মাকে বলতে শোনা যাচ্ছে, ‘আমার ছেলে দোষী হলে তাকেও পুড়িয়ে মারা উচিত। নিহত তরুণীও তো কারও মেয়ে। এখন আমি কষ্ট পাচ্ছি।

বুঝতে পারছি, ওই তরুণীর মা কতটা কষ্ট পাচ্ছেন।’ তবে তিনি কোন অভিযুক্তের মা তা স্পষ্ট নয়। অন্য এক অভিযুক্ত চিন্তকুন্ত চেন্নাকেশাভুলুর মা বলেন, ‘ওকে উপযুক্ত শাস্তি দিন। আমারও মেয়ে আছে।’

আর এক অভিযুক্ত জল্লু শিবার মা বলেন, ‘যা করা প্রয়োজন বলে মনে হয়, তা-ই করুন। ঈশ্বর জানেন কী হবে।’ চেন্নাকেশভুলুর এক আত্মীয় বলেন, ‘ও গ্রেফতার হওয়ার পর থেকে আমরা মুখ দেখাতে পারছি না।’

তরুণীর পরিবারের সঙ্গে দেখা করেছেন কংগ্রেস সাংসদ রেবন্ত রেড্ডি। স্থানীয় এক নারী বাসিন্দার প্রশ্ন, ‘এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এখনও টুইট করলেন না কেন?’ এ পরিস্থিতিতে সোমবার মুখ খুলেছেন মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও। তিনি বলেন, ‘এ এক ভয়ঙ্কর ঘটনা। ফাস্ট ট্র্যাক কোর্টে দ্রুত বিচার হবে।’

ছেলেকে পুড়িয়ে মারতে বললেন ধর্ষকের মা

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ছেলে দোষী হলে তাকেও পুড়িয়ে মারা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন হায়দরাবাদ গণধর্ষণ ও খুনের মামলায় এক অভিযুক্তের মা। নিহত তরুণীর মা আগেই হত্যাকারীদের পুড়িয়ে মারা উচিত বলে মন্তব্য করেছিলেন।

রোববার সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত একটি ভিডিওতে এক অভিযুক্তের মাকে বলতে শোনা যাচ্ছে, ‘আমার ছেলে দোষী হলে তাকেও পুড়িয়ে মারা উচিত। নিহত তরুণীও তো কারও মেয়ে। এখন আমি কষ্ট পাচ্ছি।

বুঝতে পারছি, ওই তরুণীর মা কতটা কষ্ট পাচ্ছেন।’ তবে তিনি কোন অভিযুক্তের মা তা স্পষ্ট নয়। অন্য এক অভিযুক্ত চিন্তকুন্ত চেন্নাকেশাভুলুর মা বলেন, ‘ওকে উপযুক্ত শাস্তি দিন। আমারও মেয়ে আছে।’

আর এক অভিযুক্ত জল্লু শিবার মা বলেন, ‘যা করা প্রয়োজন বলে মনে হয়, তা-ই করুন। ঈশ্বর জানেন কী হবে।’ চেন্নাকেশভুলুর এক আত্মীয় বলেন, ‘ও গ্রেফতার হওয়ার পর থেকে আমরা মুখ দেখাতে পারছি না।’

তরুণীর পরিবারের সঙ্গে দেখা করেছেন কংগ্রেস সাংসদ রেবন্ত রেড্ডি। স্থানীয় এক নারী বাসিন্দার প্রশ্ন, ‘এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এখনও টুইট করলেন না কেন?’ এ পরিস্থিতিতে সোমবার মুখ খুলেছেন মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও। তিনি বলেন, ‘এ এক ভয়ঙ্কর ঘটনা। ফাস্ট ট্র্যাক কোর্টে দ্রুত বিচার হবে।’