২২তম দিনে বর্ণবাদবিরোধী বিক্ষোভ

পুলিশে অর্থায়ন বন্ধ মূর্তি সরানোর দাবি

আলবুকারেকে মূর্তি ভাঙা নিয়ে দ্বন্দ্বে এক কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে গুলি * পুলিশ সংস্কার বিল নিয়ে কংগ্রেসে রিপাবলিকান-ডেমোক্র্যাট দ্বন্দ্ব * নতুন করে পুলিশ সংস্কার বিল তুলছে রিপাবলিকানরা * যুক্তরাষ্ট্রে বর্ণবাদ-পুলিশি বর্বরতার জাতিসংঘ তদন্ত দাবি আফ্রিকার

  যুগান্তর ডেস্ক ১৮ জুন ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ছবি: বিবিসি

যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশ সংস্কার নয়, অর্থায়ন বন্ধ করে পুরো পুলিশ ব্যবস্থাই ভেঙে দেয়ার জোর দাবি জানাচ্ছেন বিক্ষোভকারীরা।

সেই সঙ্গে দাসত্ব ও ঔপনিবেশিকতার সঙ্গে সম্পর্কিত সব মূর্তি সরিয়ে নেয়ার দাবিও তাদের। একের পর এক কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার প্রতিবাদে যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে চলমান বর্ণবাদবিরোধী বিক্ষোভের প্রধান দাবি এখন এই দুটিই।

মঙ্গলবার ২২তম দিনের মতো দেশটির রাজ্যে রাজ্যে ও শহরে শহরে বিক্ষোভ থেকে একই দাবিতে স্লোগান দেন ব্ল্যাক লাইভস ম্যাটার বিক্ষোভকারীরা। সেই সঙ্গে সরিয়ে না নেয়ায় বেশ কয়েকটি মূর্তি ভাংচুরও করেছেন তারা। নিউ মেক্সিকো রাজ্যের আলবুকারেক শহরে মূর্তি ভাঙার সময় গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে।

এক কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে গুলি করেছে এক শ্বেতাঙ্গ বন্দুকধারী। এদিকে মার্কিন পুলিশের বর্ণবাদ ও বর্বরতার ব্যাপারে জাতিসংঘের নিয়মিত তদন্ত দাবি করেছে আফ্রিকার দেশগুলো। খবর সিএনএন, আলজাজিরা ও বিবিসির।

জর্জ ফ্লয়েড হত্যাসহ একের পর কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার প্রেক্ষিতে পুলিশি সংস্কার ও তহবিল কমানোর ব্যাপারে চাপের মুখে পড়েছেন মার্কিন রাজনীতিকরাও।

চাপের মুখে পুলিশ সংস্কার নিয়ে ভাবতে বাধ্য হচ্ছে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সরকার, সেই সঙ্গে বিরোধী দল ডেমোক্র্যাট পার্টিও। পুলিশি ব্যবস্থা ঢেলে সাজাতে ইতোমধ্যে কংগ্রেসে একটি বিল উত্থাপন করেছেন ডেমোক্র্যাট নেতারা।

এ নিয়ে দ্বন্দ্বও শুরু হয়েছে দুই দলের মধ্যে। মঙ্গলবার ডেমোক্র্যাটদের প্রস্তাবের কঠোর সমালোচনা করেছেন সিনেটে সংখ্যাগরিষ্ঠ রিপাবলিকদের নেতা মিচ ম্যাককনেল। সেই সঙ্গে রিপাবলিকানদের পক্ষ থেকে নতুন প্রস্তাব তোলার ঘোষণাও দিয়েছেন তিনি।

শুক্রবারই নতুন পুলিশ সংস্কার বিল কংগ্রেসে উঠতে পারে বলেও তিনি ইঙ্গিত দিয়েছেন।

পুলিশ সংস্কারে আরও পদক্ষেপ নিতে যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটিক পার্টির প্রার্থী জো বাইডেনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে বর্ণবাদবিরোধী অধিকার সংগঠনগুলো। বাইডেনের কাছে একটি চিঠিও লিখেছে তারা।

৫০টির বেশি সংগঠন স্বাক্ষরিত ওই চিঠিতে বাইডেনকে উদ্দেশ করে কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা বন্ধে আরও কার্যকর পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে।

না হলে তিনি কৃষ্ণাঙ্গ সমর্থন ও ভোট ব্যাংক হারাবেন বলেও হুশিয়ারি দেয়া হয়েছে। ফ্লয়েড হত্যার পর চলমান বিক্ষোভের মধ্যে আসন্ন নির্বাচন সামনে রেখে বাইডেনের ‘ক্রিমিনাল জাস্টিস এজেন্ডা’ নতুন করে অনেকের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে।

পুলিশ কর্মকর্তাদের রাজনৈতিক ফায়দা হাসিল করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ তোলা হয়েছে চিঠিতে।

বিক্ষোভের মধ্যে পুলিশ সংস্কারে নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর ট্রাম্পের : টানা বিক্ষোভের মুখে অবশেষে মঙ্গলবার পুলিশি কর্মকাণ্ডে সংস্কারের একটি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন ট্রাম্প।

তবে তিনি পুলিশের তহবিল বন্ধ বা বিলুপ্তির দাবি প্রত্যাখ্যান করেছেন। যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশি হেফাজতে কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড হত্যার পর দেশটির পুলিশ বিভাগে সংস্কারের জোর দাবি উঠেছিল।

ভয়েস অব আমেরিকা জানিয়েছে, এ সংস্কারের মধ্যে থাকছে পুলিশের বিচক্ষণতা বাড়ানোর জন্য বরাদ্দ বা অনুদান বৃদ্ধি এবং কো-রেসপন্ডেন্ট সার্ভিস অর্থাৎ সমাজকর্মীদের সঙ্গে জোট করে পুলিশ যেন স্থানীয় সম্প্রদায়ের বিভিন্ন কাজে সহায়তা করার দক্ষতা অর্জন করতে পারে।

ঘটনাপ্রবাহ : কৃষ্ণাঙ্গ হত্যায় অগ্নিগর্ভ যুক্তরাষ্ট্র

আরও

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত