নির্যাতিত নারী নিয়ে বই লিখছেন মালালা
jugantor
নির্যাতিত নারী নিয়ে বই লিখছেন মালালা

  যুগান্তর ডেস্ক  

১৩ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

নারী অধিকার নিয়ে কাজ করা পাকিস্তানি তরুণী মালালা ইউসুফজাই এবার নারীদের নিয়ে বই লিখছেন। নারীদের উচ্চতর আসনে তুলে আনার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি।

নারী অধিকার নিয়ে কাজ করা পাকিস্তানি তরুণী মালালা ইউসুফজাই এবার নারীদের নিয়ে বই লিখছেন। নারীদের উচ্চতর আসনে তুলে আনার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি।

বিশ্বের সেরা ২৫ সাহসী নারীকে নিয়ে লিখছেন আরেকটি বই। ১২ এপ্রিল মালালা দিবসে এ ঘোষণা এসেছে। আগামী বছরে বইটি প্রকাশিত হবে। তবে বইটির নাম প্রকাশ করা হয়নি। খবর হিন্দুস্তান টাইমসের। মালালার জন্মদিন ১২ জুলাইকে স্মরণে জাতিসংঘ এ দিনকে মামালা দিবস ঘোষণা করে।

২০১২ সালের ৯ অক্টোবর পাকিস্তানে তালেবানের গুলিতে প্রাণটাই হারাতে বসেছিলেন মালালা। কিন্তু লন্ডনে চিকিৎসার পর সুস্থ হয়ে ওঠেন।

নতুন উদ্যমে নারীদের জন্য কাজ শুরু করেন। এ পর্যন্ত অসংখ্য ফাউন্ডেশনের সঙ্গে জড়িত হয়েছেন মালালা। তিনি নিজেই নারী সাহসিকতার অনন্য উদাহরণ।

বিশ্বজুড়ে নারীরা যেন সাহসী হওয়ার প্রেরণা খুঁজে পান, তাদের জন্য আরেকটি বই লিখতে উদ্যোগী হয়েছেন এই তরুণী।

এই বইয়ে তিনি নিজেকে উদাহরণ হিসেবে তুলে ধরবেন যে, ভয় না পেলে মানুষ কত উঁচুতে উঠতে পারে। মানুষের জন্য কতটুকু ভূমিকা রাখতে পারে সে। বিশ্বের সেরা ২৫ সাহসী নারীকে নিয়ে এ গ্রন্থটি প্রকাশ করার ঘোষণা দিয়েছে হারপার কলিন্স পাবলিকেশন্স। এর অর্থায়ন করবে ‘মালালা ফান্ড’।

আগামী বছরই বইটি বাজারে আসবে। প্রকাশক সংস্থা আশা প্রকাশ করছে, নারীদের নিয়ে মালালার স্বপ্নপূরণে সহায়তা করবে এই গ্রন্থ।

২০১৯ সালের প্রথম দিকে ‘উই আর ডিসপ্লেসড’ নামে একটি বই প্রকাশিত হয়।

বইটিতে তিনি নিজের এবং তারই মতো বয়সে নবীন নারী শরণার্থীদের কথা সামনে এনেছেন, যারা বাড়ি ছেড়ে আসতে বাধ্য হয়েছেন। বইটি লেখার কারণ হিসেবে মালালা বলেছেন, ‘আমরা শরণার্থী ও অভিবাসীদের কথা শুনি। কিন্তু তাদের কাছ থেকে শুনি না।

বিশেষ করে কম বয়সী নারী শরণার্থীদের কথা।’ ২০১৩ সালে প্রকাশিত তার লেখা ‘আই অ্যাম মালালা’ এখনও বেস্ট সেলারের তালিকায় রয়েছে।

নির্যাতিত নারী নিয়ে বই লিখছেন মালালা

 যুগান্তর ডেস্ক 
১৩ জুলাই ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ
নারী অধিকার নিয়ে কাজ করা পাকিস্তানি তরুণী মালালা ইউসুফজাই এবার নারীদের নিয়ে বই লিখছেন। নারীদের উচ্চতর আসনে তুলে আনার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি।
ছবি: সংগৃহীত

নারী অধিকার নিয়ে কাজ করা পাকিস্তানি তরুণী মালালা ইউসুফজাই এবার নারীদের নিয়ে বই লিখছেন। নারীদের উচ্চতর আসনে তুলে আনার জন্য দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি।

বিশ্বের সেরা ২৫ সাহসী নারীকে নিয়ে লিখছেন আরেকটি বই। ১২ এপ্রিল মালালা দিবসে এ ঘোষণা এসেছে। আগামী বছরে বইটি প্রকাশিত হবে। তবে বইটির নাম প্রকাশ করা হয়নি। খবর হিন্দুস্তান টাইমসের। মালালার জন্মদিন ১২ জুলাইকে স্মরণে জাতিসংঘ এ দিনকে মামালা দিবস ঘোষণা করে।

২০১২ সালের ৯ অক্টোবর পাকিস্তানে তালেবানের গুলিতে প্রাণটাই হারাতে বসেছিলেন মালালা। কিন্তু লন্ডনে চিকিৎসার পর সুস্থ হয়ে ওঠেন।

নতুন উদ্যমে নারীদের জন্য কাজ শুরু করেন। এ পর্যন্ত অসংখ্য ফাউন্ডেশনের সঙ্গে জড়িত হয়েছেন মালালা। তিনি নিজেই নারী সাহসিকতার অনন্য উদাহরণ।

বিশ্বজুড়ে নারীরা যেন সাহসী হওয়ার প্রেরণা খুঁজে পান, তাদের জন্য আরেকটি বই লিখতে উদ্যোগী হয়েছেন এই তরুণী।

এই বইয়ে তিনি নিজেকে উদাহরণ হিসেবে তুলে ধরবেন যে, ভয় না পেলে মানুষ কত উঁচুতে উঠতে পারে। মানুষের জন্য কতটুকু ভূমিকা রাখতে পারে সে। বিশ্বের সেরা ২৫ সাহসী নারীকে নিয়ে এ গ্রন্থটি প্রকাশ করার ঘোষণা দিয়েছে হারপার কলিন্স পাবলিকেশন্স। এর অর্থায়ন করবে ‘মালালা ফান্ড’।

আগামী বছরই বইটি বাজারে আসবে। প্রকাশক সংস্থা আশা প্রকাশ করছে, নারীদের নিয়ে মালালার স্বপ্নপূরণে সহায়তা করবে এই গ্রন্থ।

২০১৯ সালের প্রথম দিকে ‘উই আর ডিসপ্লেসড’ নামে একটি বই প্রকাশিত হয়।

বইটিতে তিনি নিজের এবং তারই মতো বয়সে নবীন নারী শরণার্থীদের কথা সামনে এনেছেন, যারা বাড়ি ছেড়ে আসতে বাধ্য হয়েছেন। বইটি লেখার কারণ হিসেবে মালালা বলেছেন, ‘আমরা শরণার্থী ও অভিবাসীদের কথা শুনি। কিন্তু তাদের কাছ থেকে শুনি না।

বিশেষ করে কম বয়সী নারী শরণার্থীদের কথা।’ ২০১৩ সালে প্রকাশিত তার লেখা ‘আই অ্যাম মালালা’ এখনও বেস্ট সেলারের তালিকায় রয়েছে।