জাপানের ‘যুবক’ গ্রাম ওগিমি
jugantor
জাপানের ‘যুবক’ গ্রাম ওগিমি

   

২৭ জুলাই ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাপানের ‘যুবক’ গ্রাম ওগিমি। ওকিনাওয়া প্রদেশের কুনিগামি জেলার সব থেকে আলোচিত গ্রাম। ৮০ বছর বয়সেও টগবগে তরুণ থাকেন এই গ্রামের মানুষ। ১০০ থেকে ১১০ বছর পর্যন্ত সুস্থ ও প্রাণবন্তভাবে বেঁচে থাকেন। গ্রামবাসীর এই দীর্ঘ ও সুখী জীবনের গোপন রহস্য হলো ইকিগাই। বাংলা অর্থে দাঁড়ায় ‘অর্থবহ জীবন’। জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত ইকিগাই মেনে চলেন সবাই। জীবনযাপনের ক্ষেত্রে প্রত্যেকের অভ্যাসই প্রায় এক। তারা বার্ধক্যকে সরিয়ে কর্মচঞ্চলতা ধরে রাখার চেষ্টা করেন। এখানকার অধিবাসীরা সকাল সকাল ঘুম থেকে ওঠেন। হাঁটাহাঁটি করেন। কায়িক পরিশ্রম করেন খুব বেশি। ফাস্ট ফুডের বদলে ফলমূলকে গুরুত্ব দেন। পর্যাপ্ত ঘুমান এবং লবণ খান কম। সব সময় কম খাবার খান।

জাপানের ‘যুবক’ গ্রাম ওগিমি

  
২৭ জুলাই ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাপানের ‘যুবক’ গ্রাম ওগিমি। ওকিনাওয়া প্রদেশের কুনিগামি জেলার সব থেকে আলোচিত গ্রাম। ৮০ বছর বয়সেও টগবগে তরুণ থাকেন এই গ্রামের মানুষ। ১০০ থেকে ১১০ বছর পর্যন্ত সুস্থ ও প্রাণবন্তভাবে বেঁচে থাকেন। গ্রামবাসীর এই দীর্ঘ ও সুখী জীবনের গোপন রহস্য হলো ইকিগাই। বাংলা অর্থে দাঁড়ায় ‘অর্থবহ জীবন’। জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত ইকিগাই মেনে চলেন সবাই। জীবনযাপনের ক্ষেত্রে প্রত্যেকের অভ্যাসই প্রায় এক। তারা বার্ধক্যকে সরিয়ে কর্মচঞ্চলতা ধরে রাখার চেষ্টা করেন। এখানকার অধিবাসীরা সকাল সকাল ঘুম থেকে ওঠেন। হাঁটাহাঁটি করেন। কায়িক পরিশ্রম করেন খুব বেশি। ফাস্ট ফুডের বদলে ফলমূলকে গুরুত্ব দেন। পর্যাপ্ত ঘুমান এবং লবণ খান কম। সব সময় কম খাবার খান।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন