কবিতা আবৃত্তি করল রোবোট
jugantor
কবিতা আবৃত্তি করল রোবোট

  অনলাইন ডেস্ক  

২৭ নভেম্বর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জীবদ্দশায় চির নির্বাসনে থাকা ইটালিয়ান কিংবদন্তি মহাকবি দান্তে আলিগিয়েরির কবিতা দি ডিভাইন কমেডি আবৃত্তি করল এআই জেনারেটেড রোবোট। দি গার্ডিয়ান।

দান্তের ডিভাইন কমেডি অগণিত শিল্পীকে অনুপ্রাণিত করেছে। সেই প্রেক্ষাপট থেকেই কবির মৃত্যুর ৭০০তম বার্ষিকী উপলক্ষ্যে একটি প্রদর্শনীতে এ শৈল্পিক কাজটি প্রদর্শন করেছেন তার এক আধুনিক ভক্ত।

শুক্রবার অক্সফোর্ডের এইডান মেলায় জেজি নিকোলসের ইংরেজি অনুবাদে, দান্তের মহাকাব্যটি (তিন-অংশের বর্ণনামূলক কবিতা) ডিভাইন কমেডি আবৃত্তি করে উপস্থিত দর্শকদের প্রশংসা কুড়িয়েছে রোবটটি।

অ্যাডা লাভলেসের নামে নামকরণ করা রোবোটটি একটি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাসম্পন্ন একটি ভাস্কর্য। ২০১৯ সালে প্রথম এই রোবোট তৈরি করা হয়। রোবোটিক কোম্পানি কমিশ রোবোটিক্সের সঙ্গে যৌথভাবে এটি তৈরি করেছেন আইডান মেলার।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক এর শিল্পনির্দেশনা বুদ্ধিমত্তা উন্নয়নে কাজ করেছে। রোবোটটির সিলিকন ত্বক, স্বতন্ত্রভাবে খোঁচা চুল, থ্রি ডি প্রিন্টের দাঁত-মাড়ি এবং চোখ রয়েছে। তার পা আছে কিন্তু হাঁটতে পারে না, কিন্তু তার হাত, ধড় এবং মাথা অবাধে চলাচল করে।

কবিতা আবৃত্তি করল রোবোট

 অনলাইন ডেস্ক 
২৭ নভেম্বর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জীবদ্দশায় চির নির্বাসনে থাকা ইটালিয়ান কিংবদন্তি মহাকবি দান্তে আলিগিয়েরির কবিতা দি ডিভাইন কমেডি আবৃত্তি করল এআই জেনারেটেড রোবোট। দি গার্ডিয়ান।

দান্তের ডিভাইন কমেডি অগণিত শিল্পীকে অনুপ্রাণিত করেছে। সেই প্রেক্ষাপট থেকেই কবির মৃত্যুর ৭০০তম বার্ষিকী উপলক্ষ্যে একটি প্রদর্শনীতে এ শৈল্পিক কাজটি প্রদর্শন করেছেন তার এক আধুনিক ভক্ত।

শুক্রবার অক্সফোর্ডের এইডান মেলায় জেজি নিকোলসের ইংরেজি অনুবাদে, দান্তের মহাকাব্যটি (তিন-অংশের বর্ণনামূলক কবিতা) ডিভাইন কমেডি আবৃত্তি করে উপস্থিত দর্শকদের প্রশংসা কুড়িয়েছে রোবটটি।

অ্যাডা লাভলেসের নামে নামকরণ করা রোবোটটি একটি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাসম্পন্ন একটি ভাস্কর্য। ২০১৯ সালে প্রথম এই রোবোট তৈরি করা হয়। রোবোটিক কোম্পানি কমিশ রোবোটিক্সের সঙ্গে যৌথভাবে এটি তৈরি করেছেন আইডান মেলার।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক এর শিল্পনির্দেশনা বুদ্ধিমত্তা উন্নয়নে কাজ করেছে। রোবোটটির সিলিকন ত্বক, স্বতন্ত্রভাবে খোঁচা চুল, থ্রি ডি প্রিন্টের দাঁত-মাড়ি এবং চোখ রয়েছে। তার পা আছে কিন্তু হাঁটতে পারে না, কিন্তু তার হাত, ধড় এবং মাথা অবাধে চলাচল করে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন