চাঁদে যাচ্ছে নাসার দানব রকেট
jugantor
চাঁদে যাচ্ছে নাসার দানব রকেট

   

১৮ আগস্ট ২০২২, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চলতি মাসের শেষের দিকে চাঁদের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করবে মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার দানবাকৃতির অত্যাধুনিক ও শক্তিশালী রকেট ‘স্পেস লঞ্চ সিস্টেম’ বা এসএলএস। কোনো মানুষ ছাড়াই উৎক্ষেপণের ৪২ দিন পরে চাঁদকে প্রদক্ষিণ করে এটি পৃথিবীতে ফিরে আসবে। নাসার ওয়েবসাইট থেকে জানা গেছে, আর্টেমিস প্রোগ্রামের আওতায় ফ্লোরিডা থেকে যাত্রা শুরু হবে মনুষ্যবিহীন রকেটটির।

৩৩২ ফুট লম্বা রকেটটিকে মঙ্গলবার অ্যাসেম্বলি বিল্ডিং থেকে লঞ্চিংপ্যাড কেনেডি স্পেস সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়। পরীক্ষার সময়, রকেটের মূল অংশে মাত্র সাত সেকেন্ডে দেড় মিলিয়ন পাউন্ডের বেশি শক্তি তৈরি করা গেছে। ৩৫ লাখ পাউন্ড ওজনের রকেটটি মঙ্গল গ্রহে ভবিষ্যৎ মানুষকে চন্দ্রপৃষ্ঠে ফিরিয়ে আনার মিশনেরই অংশ। গ্রিক দেবী আর্টেমিসের নামে রাখা এই প্রোগ্রামের লক্ষ্য হচ্ছে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহারের জন্য এসএলএস রকেটের ক্ষমতা বাড়ানোর চেষ্টা অব্যাহত রাখা।

চাঁদে যাচ্ছে নাসার দানব রকেট

  
১৮ আগস্ট ২০২২, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চলতি মাসের শেষের দিকে চাঁদের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করবে মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার দানবাকৃতির অত্যাধুনিক ও শক্তিশালী রকেট ‘স্পেস লঞ্চ সিস্টেম’ বা এসএলএস। কোনো মানুষ ছাড়াই উৎক্ষেপণের ৪২ দিন পরে চাঁদকে প্রদক্ষিণ করে এটি পৃথিবীতে ফিরে আসবে। নাসার ওয়েবসাইট থেকে জানা গেছে, আর্টেমিস প্রোগ্রামের আওতায় ফ্লোরিডা থেকে যাত্রা শুরু হবে মনুষ্যবিহীন রকেটটির।

৩৩২ ফুট লম্বা রকেটটিকে মঙ্গলবার অ্যাসেম্বলি বিল্ডিং থেকে লঞ্চিংপ্যাড কেনেডি স্পেস সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়। পরীক্ষার সময়, রকেটের মূল অংশে মাত্র সাত সেকেন্ডে দেড় মিলিয়ন পাউন্ডের বেশি শক্তি তৈরি করা গেছে। ৩৫ লাখ পাউন্ড ওজনের রকেটটি মঙ্গল গ্রহে ভবিষ্যৎ মানুষকে চন্দ্রপৃষ্ঠে ফিরিয়ে আনার মিশনেরই অংশ। গ্রিক দেবী আর্টেমিসের নামে রাখা এই প্রোগ্রামের লক্ষ্য হচ্ছে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহারের জন্য এসএলএস রকেটের ক্ষমতা বাড়ানোর চেষ্টা অব্যাহত রাখা।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন