এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের জীববিজ্ঞান প্রথমপত্র

  মো. মোসলেম উদ্দিন ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

প্রভাষক, উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগ

বৃন্দাবন সরকারি কলেজ, হবিগঞ্জ

সপ্তম অধ্যায় নগ্নবীজী ও আবৃতবীজী উদ্ভিদ

মৌলিক আলোচনা ও নমুনা উদ্দীপক

প্রকৃতির বৈচিত্র্যের দিকে লক্ষ করলে আমরা দেখতে পাই যে, উদ্ভিদ জগতের অধিকাংশই পুষ্পক উদ্ভিদ বা সবীজ উদ্ভিদ। যাকে বিজ্ঞানী বেনথাম ও হুকার ফ্যানেরোগ্যামিয়া বা পুষ্পক উদ্ভিদ উপজগতে স্থান দিয়েছেন।

‘অর্থাৎ যেসব উদ্ভিদের বীজ হয় এবং ফুল হয় তারা এ উপজগতের অন্তর্ভুক্ত। সাধারণত বীজ দ্বারা-এদের বংশবৃদ্ধি হয়।

এসব পুষ্পক উদ্ভিদ দু’ভাগে বিভক্ত। যথা :

বিভাগ ১- জিমনোস্পার্ম বা নগ্নবীজী (ব্যক্তবীজী উদ্ভিদ):- এদের সত্যিকার কোন ফুল হয় না, তবে এরা বীজ তৈরি করতে পারে। এদের গর্ভাশয় নাই, তাই ফল হয় না এবং বীজ ব্যক্ত অবস্থায় থাকে। প্রায় ৭০০-৮০০ প্রজাতির উদ্ভিদ নগ্নবীজী উদ্ভিদ।

যেমনা: Cycas, Pinus, Gnetum প্রভৃতি।

বিভাগ ২- অ্যানজিওস্পার্ম বা আবৃতবীজী বা গুপ্তবীজী উদ্ভিদ: এসব উদ্ভিদের ফুল হয় এবং ফুলে গর্ভাশয় আছে, তাই ফল হয় এবং বীজ ফলের অভ্যন্তরে থাকে।

“অ্যানজিওস্পার্মকে আবার বীজপত্রের সংখ্যার ওপর ভিত্তি করে একবীজপত্রী [Oryya sativa (ধান), cocos nucifere (নারিকেল) ইত্যাদি] এবং দ্বিবীজপত্রী [Mangifera indica (আম), Arto carpus heterophyllus (কাঁঠাল) ইত্যাদি] দুই ভাগে ভাগ করা যায়।

এ অধ্যায়ে নগ্নবীজী উদ্ভিদের মধ্যে cycas এর গঠন, জনন, অর্থনৈতিক গুরুত্ব এবং আবৃতবীজী উদ্ভিদের মধ্যে Poaceae ও Malvaceae উদ্ভিদের পরিচিতি, বিভিন্ন অংশ, পুষ্প সংকেত, প্রতীক ও অর্থনৈতিক গুরুত্ব সম্পর্কে জানতে হবে।

নিম্নে একটি নমুনা উদ্দীপক দেয়া হল

(ক) কোরালয়েড মূল কী? ১

(খ) জীবন্ত জীবাশ্ম বলতে কী বুঝ? ২

(গ) উদ্দীপকের চিত্রের আলোকে একটি পুষ্প প্রতীক অঙ্কন করে দেখাও। ৩

(ঘ) উদ্দীপকের চিত্রটি যে গোত্রের উদ্ভিদকে নির্দেশ করে সে গোত্রের উদ্ভিদের অর্থনৈতিক গুরুত্ব লিখ। ৪

উত্তর (ক) : cycas এর মূল দেখতে অনেকটা সামুদ্রিক প্রবাল বা কোরালের মতো বলে এদের কোরালয়েড মূল বলে।

উত্তর (খ) : সুদূর অতীতে বিলুপ্ত কোনো জীবের দেহ বা দেহাংশ বা কোনো চিহ্ন প্রকৃতিক উপায়ে পাললিক শিলায় পস্তরীভূত হয়ে সংরক্ষিত থাকলে তাকে জীবাশ্ম বা ফসিল বলে। অতীতে বিলুপ্ত প্রাপ্ত জীব যাদের নিদর্শন কেবল জীবাশ্মে পাওয়া যায় তাদের সঙ্গে বর্তমানে জীবিত কোনো প্রজাতির জীবের সাদৃশ্য থাকলে ওই প্রজাতিকে জীবন্ত জীবাশ্ম বা লিভিং ফসিল বলে।

উত্তর (গ) : উদ্দীপকের চিত্রের আলোকে পুষ্প প্রতীক নিচে আঁকা হল:

উত্তর (ঘ) : উদ্দীপকের অমরা বিনাসের চিত্রটি Malvaceae গোত্রের উদ্ভিদকে নির্দেশ করে। নিচে Malvaceae গোত্রের উদ্ভিদের অর্থনৈতিক গুরুত্ব আলোচনা করা হল:

মানবসভ্যতা বিকাশের সঙ্গে Malvaceae গোত্রের উদ্ভিদের গুরুত্ব অনেক। এদের অনেক প্রজাতিকে মানুষের ব্যবহারের জন্য আবাদ করা হয়:

১) তুলা : কাপড় উৎপাদনের প্রধান কাঁচামাল তুলা (Cotton) এ গোত্রের Gossypium এর বিভিন্ন প্রজাতি থেকে আসে।

২) আঁশ : কেনাফ ও মেস্তাপাট হতে আঁশ পাওয়া যায় যেগুলো পাটের মতো ব্যবহার করা হয়।

৩) সব্জি : কচি ঢেঁড়শকে সব্জি হিসেবে ব্যবহার করা হয়।

৪) ওষুধ : জবা, বন ওকরাসহ এই গোত্রের অনেক উদ্ভিদের ভেষজ গুণ আছে।

৫) শোভা বর্ধনকারী : জবা, স্থলপদ্ম, পেতারী প্রভৃতি উদ্ভিদকে বাগানে শোভাবর্ধনের জন্য লাগানো হয়।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×