বরেণ্য: স্যার আলেকজান্ডার ফ্লেমিং
jugantor
বরেণ্য: স্যার আলেকজান্ডার ফ্লেমিং

   

২৬ নভেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জীবাণুনাশক পেনিসিলিনের আবিষ্কারক ব্রিটিশ নাগরিক আলেকজান্ডার ফ্লেমিং ১৮৮১ সালের ৬ আগস্ট স্কটল্যান্ডের লকফিল্ড গ্রামের একটি কৃষক পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯০৬ সালে সেন্ট মরিস হাসপাতাল মেডিকেল স্কুল থেকে চিকিৎসাবিজ্ঞানে পড়ালেখা শেষ করেন। ১৯০৮ সালে ডাক্তার হিসেবে সেনাবাহিনীতে যোগ দেন। প্রকৃতির কীটপতঙ্গ, বিশেষ করে ছত্রাক, ব্যাকটেরিয়া- এসবের ওপর ছোটবেলা থেকেই কৌতূহলী ছিলেন তিনি। ডাক্তার হলেও জীবাণু সংক্রান্ত বিষয়গুলোই তাকে বেশি আকৃষ্ট করত। ১৯২৯ সালে তিনি জীবাণুনাশক ছত্রাক ‘পেনিসিলিন’ আবিষ্কার করেন। হাওয়ার্ড ফ্লোরি ও আর্নস্ট চেইন, ১৯৩৮ সালে পেনিসিলিনের নিষ্কাশন ও বিশুদ্ধকরণের কাজ সম্পন্ন করেন। ফলে এ দুই বিজ্ঞানী এবং আলেকজান্ডার ফ্লেমিং সম্মিলিতভাবে ১৯৪৫ সালে চিকিৎসাবিজ্ঞানে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। ১৯৪৪ সালে তিনি নাইট উপাধিতে ভূষিত হন। তিনি ১৯৫৫ সালের ১১ মার্চ লন্ডনে মৃত্যুবরণ করেন।

বরেণ্য: স্যার আলেকজান্ডার ফ্লেমিং

  
২৬ নভেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জীবাণুনাশক পেনিসিলিনের আবিষ্কারক ব্রিটিশ নাগরিক আলেকজান্ডার ফ্লেমিং ১৮৮১ সালের ৬ আগস্ট স্কটল্যান্ডের লকফিল্ড গ্রামের একটি কৃষক পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯০৬ সালে সেন্ট মরিস হাসপাতাল মেডিকেল স্কুল থেকে চিকিৎসাবিজ্ঞানে পড়ালেখা শেষ করেন। ১৯০৮ সালে ডাক্তার হিসেবে সেনাবাহিনীতে যোগ দেন। প্রকৃতির কীটপতঙ্গ, বিশেষ করে ছত্রাক, ব্যাকটেরিয়া- এসবের ওপর ছোটবেলা থেকেই কৌতূহলী ছিলেন তিনি। ডাক্তার হলেও জীবাণু সংক্রান্ত বিষয়গুলোই তাকে বেশি আকৃষ্ট করত। ১৯২৯ সালে তিনি জীবাণুনাশক ছত্রাক ‘পেনিসিলিন’ আবিষ্কার করেন। হাওয়ার্ড ফ্লোরি ও আর্নস্ট চেইন, ১৯৩৮ সালে পেনিসিলিনের নিষ্কাশন ও বিশুদ্ধকরণের কাজ সম্পন্ন করেন। ফলে এ দুই বিজ্ঞানী এবং আলেকজান্ডার ফ্লেমিং সম্মিলিতভাবে ১৯৪৫ সালে চিকিৎসাবিজ্ঞানে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। ১৯৪৪ সালে তিনি নাইট উপাধিতে ভূষিত হন। তিনি ১৯৫৫ সালের ১১ মার্চ লন্ডনে মৃত্যুবরণ করেন।