নির্বাচন ও নতুন সরকার

  মোহাম্মদ শরীফ ০৯ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

নির্বাচন ও নতুন সরকার

নির্বাচনের হাত ধরেই নতুন বছরটা শুরু হল। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন যেমন আনন্দের, তেমনি তার মধ্যে আছে ক্ষোভও। বলা যায়, চাপা ক্ষোভ আর উৎসব দু’হাতে নিয়ে শুরু হল আমাদের নতুন বছর।

এ ক্ষোভের কারণ হতে পারে নির্বাচনের ভুলভ্রান্তি ও ত্রুটি। গণতান্ত্রিক দেশে নির্বাচন এক মহোৎসব। স্বচ্ছ নির্বাচন গণতন্ত্রের একমাত্র উপাদান না হলেও অন্যতম উপাদান। স্বচ্ছ নির্বাচনের মাধ্যমে একটি দেশের জনগণ তাদের আগামী দিনের শাসক নির্বাচিত করে।

সেই নির্বাচন যদি ত্রুটিপূর্ণ হয়, স্বাভাবিকভাবেই রাষ্ট্রের জনগণের মধ্যে চাপা ক্ষোভ তৈরি হয়। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির মতে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ছিল ত্রুটিপূর্ণ। এ নিয়ে তারা প্রতিবেদনও প্রকাশ করেছে।

নির্বাচন শেষে ভারতীয় নির্বাচন পর্যবেক্ষক দলের প্রধান বলেছেন, এই নির্বাচন ভারতের নির্বাচনের অনুরূপ হয়েছে। তিনি বলেছেন, ভারতে যেমন স্বচ্ছ নির্বাচন হয়, বাংলাদেশেও তাই হয়েছে।

এটা দ্বারা তিনি ঠিক কী বোঝাতে চেয়েছেন, তা বোধগম্য নয়। কেননা ভারতের নির্বাচনও ত্রুটিপূর্ণ হতে আমরা দেখি। সেখানেও ঘটে ভোট কেন্দ্র দখল, জোর করে সিল মারা, অগ্নিকাণ্ড ও দাঙ্গার মতো ঘটনা।

বাংলাদেশের মতো উন্নয়নশীল দেশগুলোয় ত্রুটিপূর্ণ নির্বাচন অপ্রত্যাশিত নয়। অন্যান্য উন্নয়নশীল ও অনুন্নত দেশেও এমনটি স্বাভাবিক ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। উদাহরণ হিসেবে পাশের দেশ ভারত ও পাকিস্তান প্রাসঙ্গিক। যদিও নির্বাচনী ত্রুটি সব দেশই কমিয়ে আনার চেষ্টা করে যাচ্ছে।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন দেশে একটি গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়। হতে পারে এই নির্বাচনের মধ্য দিয়ে আগামী অর্ধশতাব্দীর শাসন প্রক্রিয়ায় একটি নতুন ধারা উদিত হয়েছে। আওয়ামী লীগ টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার গঠন করেছে।

এই সরকারের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ মানবাধিকার রক্ষা ও দুর্নীতি রোধ। আন্তর্জাতিক সমর্থন রক্ষায় এই দুটি ইস্যু নতুন সরকারের মানদণ্ড হিসেবে বিবেচিত হয় বেশি। এছাড়া বিপুলসংখ্যক বেকারের কর্মসংস্থানও সরকারের জন্য একটি বড় চ্যালেঞ্জ।

স্থিতিশীলতা রক্ষা ও উন্নয়নের স্বার্থে বেকার তরুণদের কাজ দিতে হবে। সরকারের দলীয় কোন্দলও একটি ব্যাধি। আওয়ামী লীগের ইতিহাসে দলীয় কোন্দলই দলটিকে বেশি বিপদে ফেলেছে।

একচ্ছত্র ক্ষমতার লোভ দলীয় নেতাকর্মীদের মধ্যে কোন্দল সৃষ্টি করতে পারে; অতীতের ইতিহাস এমনটাই বলে। নতুন বছরে আমরা নতুন সরকার পেয়েছি। প্রত্যাশা থাকবে, দেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি ভালো ও স্থিতিশীল থাকুক। দেশ এগিয়ে যাক গণতন্ত্র ও উন্নয়নের পথে।

শিক্ষার্থী, ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজ কুমিল্লা

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×