এনজিও লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ড

প্রকাশ : ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  মো. বিল্লাল হোসেন

গ্লোবাল এনজিও লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ড মূলত বিভিন্ন বেসরকারি সংস্থার সঙ্গে সংলাপ ও সহযোগিতার জন্য একটি ফোরাম হিসেবে বিশ্বের সব দেশের এনজিওগুলোকে একত্রিত করার লক্ষ্যে কাজ করে থাকে। ফোরাম আঞ্চলিক ও জাতীয় নীতিগুলো প্রভাবিত করার জন্য এবং আঞ্চলিক অংশীদারিত্ব ও প্রকল্পগুলোর সংখ্যা এবং গুণমান বাড়াতে এনজিওগুলোর ক্ষমতা শক্তিশালী করে তাদের মধ্যে সংলাপ ও সহযোগিতার স্তর বাড়ানোর প্রয়াস চালায়। বলার অপেক্ষা রাখে না, বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা বা এনজিওগুলো দেশ ও অঞ্চলের জন্য ইতিবাচক সামাজিক পরিবর্তন আনার লক্ষ্যে কাজ করছে। বিগত তিন দশকে বাংলাদেশে এনজিও কার্যক্রম বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে সুসংগঠিতভাবে পরিচালিত হচ্ছে। এগুলো হচ্ছে, তৃণমূল পর্যায়ে কার্যকর গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ার প্রচলন, দারিদ্র্য বিমোচন, নারী অধিকার, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, পরিবার পরিকল্পনা এবং পরিবেশ ইত্যাদি।

বাংলাদেশে এনজিও তৎপরতা বস্তুত উন্নয়ন উপযোগিতা রয়েছে- এমন সব খাতেই বিস্তৃত। দেশের এনজিওগুলো বিভিন্ন নবোদ্ভাবনার জন্য এরই মধ্যে বিশ্বজুড়ে পরিচিতি লাভ করেছে। উল্লেখযোগ্য নবোদ্ভাবনার মধ্যে আছে ক্ষুদ্রঋণ, অপ্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ও প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবায় অনুসৃত বিভিন্ন মডেল। সমাজজীবনে পরিবর্তন আনয়নে সক্ষম বিভিন্ন কর্মসূচি নিয়ে কাজ করছে যেসব বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা, তাদের মধ্যে ‘পায়াক্ট বাংলাদেশ’ অন্যতম। এ বছর এনজিও লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ডের জন্য ‘পায়াক্ট বাংলাদেশ’কে মনোনীত করা হয়েছে এবং পদকটি গ্রহণের উদ্দেশ্যে ‘পায়াক্ট বাংলাদেশ’-এর পরিচালক আবু ইউসুফ চৌধুরী ১৫ ফেব্রুয়ারি ভারতের মুম্বাই পৌঁছেছেন। সম্মানসূচক এ পদক প্রাপ্তি ‘পায়াক্ট বাংলাদেশ’-এর পাশাপাশি দেশের অন্যান্য বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার কার্যক্রমে গতিশীলতা আনবে বলে আমরা আশাবাদী।

উন্নয়নকর্মী, ঢাকা