উদ্ভাবনের পথে অগ্রদূত
jugantor
উদ্ভাবনের পথে অগ্রদূত

  সাবরিনা নওরিন লিমু  

১৩ জানুয়ারি ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

দেশের ফার্মাসিউটিক্যাল শিল্পে অন্যতম উদ্ভাবনী প্রতিষ্ঠান হেল্থকেয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড (এইচপিএল) এশিয়া, আফ্রিকা এবং সিআইএস অঞ্চলের স্থানীয় ও বিদেশি বাজারের জন্য শ্রেণিবদ্ধ ব্র্যান্ডেড জেনেরিক পণ্য উৎপাদন করে থাকে। এ মহামারির সময়েও ব্যবসায়িক উদ্যম চাঙা রাখতে এইচপিএল সম্প্রতি সর্বাধুনিক প্রযুক্তি গ্রহণ করেছে।

ছয় হাজার ৫০০-এর বেশি কর্মক্ষম লোক নিয়ে বছর শেষের বিজনেস অ্যালাইনমেন্ট সম্মেলনটি পরবর্তী বছরের ব্যবসায়ের লক্ষ্য এবং লক্ষ্য নির্ধারণে সব সময় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। সাধারণত কক্সবাজারের মতো অভ্যন্তরীণ আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন স্থানে প্রতি বছর একটি করে ‘business with pleasure’ (আনন্দের সঙ্গে ব্যবসা) অভিজ্ঞতাভিত্তিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু এ বছরের জন্য বার্ষিক বিক্রয় সম্মেলনটি স্বাভাবিক মাত্রায় সম্পন্ন করার এ সুযোগটি মহামারির কারণে বাতিল করা হয়েছে। তবে এইচপিএল দেশব্যাপী বিক্রয় সম্মেলন পরিচালনার জন্য ডিজিটাল প্রযুক্তি গ্রহণ করেছে। রিয়েল টাইমে উভয় পক্ষের লাইভ যোগাযোগের মাধ্যমে বার্ষিক বিক্রয় সম্মেলন-২০২০ সম্পন্ন হয়, যা বাংলাদেশের সব আঞ্চলিক অফিসকে সংযুক্ত করেছে। এ অনিশ্চিত সময়ে শত প্রতিকূলতা সত্ত্বেও প্রতিষ্ঠানটির গতিশীলতার অনুশীলন বজায় রাখতে কর্মীদের মনোবল ও উদ্যম অটুট রাখার ব্যবস্থা করা হয়। সম্মেলনের এজেন্ডা ছিল- ‘Leading the Way’; যেখানে এইচপিএল কর্মীদের ২০২০ সালের শক্তিশালী পারফরম্যান্সের বিচারে ২০২১ সালের জন্য উচ্চাভিলাষী লক্ষ্য দেওয়া হয়েছিল। বিক্রয় সম্মেলনে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও ডিএমডি মো. হালিমুজ্জামান, এইচপিএলের এমডি আলাউদ্দিন আহমেদ এবং এইচপিএল-এর চেয়ারপারসন সুরাইয়া বিলকিস অনলাইনে যোগ দেন। এ ছাড়া সেলস অ্যান্ড অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের নির্বাহী পরিচালক এমএইচ মুর্তজা সারা দেশের সব কর্মচারীকে সংযুক্ত করে এ মেগা সম্মেলনের আহ্বায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এইচপিএল সফলভাবে এবং দক্ষতার সঙ্গে দক্ষ ব্যক্তি, সম্পদ, প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো এবং সর্বস্তরে বিজয়ী-কৌশল বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত সংযুক্ত করছে এবং পণ্য ও পরিষেবায় স্বাতন্ত্র্য বজায় রেখে প্রতিযোগিতায় এগিয়ে যেতে অপারেশনের প্রতিটি পদক্ষেপে উদ্ভাবনী ধারণা তৈরি করছে। বস্তুত ২০২১ সালের ‘লিডিং দ্য ওয়ে’-এর লক্ষ্য হচ্ছে ইতোমধ্যে বিজয়ী মনোভাবটিকে আরও উচ্চতায় উন্নীত করা।

sabrinanowrinlimu1609@gmail.com

উদ্ভাবনের পথে অগ্রদূত

 সাবরিনা নওরিন লিমু 
১৩ জানুয়ারি ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

দেশের ফার্মাসিউটিক্যাল শিল্পে অন্যতম উদ্ভাবনী প্রতিষ্ঠান হেল্থকেয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড (এইচপিএল) এশিয়া, আফ্রিকা এবং সিআইএস অঞ্চলের স্থানীয় ও বিদেশি বাজারের জন্য শ্রেণিবদ্ধ ব্র্যান্ডেড জেনেরিক পণ্য উৎপাদন করে থাকে। এ মহামারির সময়েও ব্যবসায়িক উদ্যম চাঙা রাখতে এইচপিএল সম্প্রতি সর্বাধুনিক প্রযুক্তি গ্রহণ করেছে।

ছয় হাজার ৫০০-এর বেশি কর্মক্ষম লোক নিয়ে বছর শেষের বিজনেস অ্যালাইনমেন্ট সম্মেলনটি পরবর্তী বছরের ব্যবসায়ের লক্ষ্য এবং লক্ষ্য নির্ধারণে সব সময় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। সাধারণত কক্সবাজারের মতো অভ্যন্তরীণ আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন স্থানে প্রতি বছর একটি করে ‘business with pleasure’ (আনন্দের সঙ্গে ব্যবসা) অভিজ্ঞতাভিত্তিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু এ বছরের জন্য বার্ষিক বিক্রয় সম্মেলনটি স্বাভাবিক মাত্রায় সম্পন্ন করার এ সুযোগটি মহামারির কারণে বাতিল করা হয়েছে। তবে এইচপিএল দেশব্যাপী বিক্রয় সম্মেলন পরিচালনার জন্য ডিজিটাল প্রযুক্তি গ্রহণ করেছে। রিয়েল টাইমে উভয় পক্ষের লাইভ যোগাযোগের মাধ্যমে বার্ষিক বিক্রয় সম্মেলন-২০২০ সম্পন্ন হয়, যা বাংলাদেশের সব আঞ্চলিক অফিসকে সংযুক্ত করেছে। এ অনিশ্চিত সময়ে শত প্রতিকূলতা সত্ত্বেও প্রতিষ্ঠানটির গতিশীলতার অনুশীলন বজায় রাখতে কর্মীদের মনোবল ও উদ্যম অটুট রাখার ব্যবস্থা করা হয়। সম্মেলনের এজেন্ডা ছিল- ‘Leading the Way’; যেখানে এইচপিএল কর্মীদের ২০২০ সালের শক্তিশালী পারফরম্যান্সের বিচারে ২০২১ সালের জন্য উচ্চাভিলাষী লক্ষ্য দেওয়া হয়েছিল। বিক্রয় সম্মেলনে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও ডিএমডি মো. হালিমুজ্জামান, এইচপিএলের এমডি আলাউদ্দিন আহমেদ এবং এইচপিএল-এর চেয়ারপারসন সুরাইয়া বিলকিস অনলাইনে যোগ দেন। এ ছাড়া সেলস অ্যান্ড অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের নির্বাহী পরিচালক এমএইচ মুর্তজা সারা দেশের সব কর্মচারীকে সংযুক্ত করে এ মেগা সম্মেলনের আহ্বায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এইচপিএল সফলভাবে এবং দক্ষতার সঙ্গে দক্ষ ব্যক্তি, সম্পদ, প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো এবং সর্বস্তরে বিজয়ী-কৌশল বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত সংযুক্ত করছে এবং পণ্য ও পরিষেবায় স্বাতন্ত্র্য বজায় রেখে প্রতিযোগিতায় এগিয়ে যেতে অপারেশনের প্রতিটি পদক্ষেপে উদ্ভাবনী ধারণা তৈরি করছে। বস্তুত ২০২১ সালের ‘লিডিং দ্য ওয়ে’-এর লক্ষ্য হচ্ছে ইতোমধ্যে বিজয়ী মনোভাবটিকে আরও উচ্চতায় উন্নীত করা।

sabrinanowrinlimu1609@gmail.com

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন