বাজেট হোক জনবান্ধব

  ড. ফোরকন উদ্দিন আহাম্মদ ৩০ মে ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বাজেট

সাধারণ অর্থে আয়-ব্যয়ের হিসাব বিবরণীকে বাজেট বোঝানো হয়ে থাকে। বাজেট যেমনই হোক, তাকে সে ছাঁচে ফেলেই বিবেচনা করা হয়ে থাকে।

বাজেট কোনো abstract বা বিমূর্ত বিষয় নয়। টাকা-পয়সা, অর্থ-সম্পদ, বিনিয়োগ, ব্যবসা-বাণিজ্য, আয়-রোজগার, আমদানি-রফতানি, উৎপাদন, ভোগ-ব্যয় ইত্যাদির সঙ্গে জাতীয় বাজেট সম্পর্কিত।

আমরা ছোটবেলায় পড়েছিলাম ‘Cut your coat according to your cloths.’ অর্থাৎ আয় বুঝে ব্যয় কর- এটাই হচ্ছে এই প্রবাদের মর্মার্থ। এ ছাড়া অন্য প্রবাদও প্রচলিত রয়েছে- যেমন গুড় তেমন মিষ্টি; কিংবা যেমন কর্ম তেমন ফল ইত্যাদি। এ কথা বলার অপেক্ষা রাখে না, গত কয়েক বছরের বাজেটে অনেকটাই ভিন্নতা পরিলক্ষিত হচ্ছে। এই ভিন্নতার কারণ হচ্ছে সফল জাতীয় নেতৃত্বের ইতিবাচক মানসিকতা, সদিচ্ছা, সততা ও আন্তরিকতা।

এটা নিশ্চিত করেই বলা যায়, প্রতিবছরের মতো এই অর্থবছরেও বাজেটের আকার বাড়বে। অনেক খাতেই বরাদ্দ বৃদ্ধি পাবে। মানুষের বয়স বাড়ার মতোই অর্থনীতির আকার বাড়ছে।

সুতরাং বাজেটের অংক বাড়বে, এটাই স্বাভাবিক। আগের বছরের তুলনায় বড় বলে বাজেট যেমন বিরাট সাফল্যের স্মারক নয়, তেমনি তাকে অস্বাভাবিক বা উচ্চাভিলাষী বলার কিছু নেই।

সরকারি দলিলপত্রে অর্থনীতির আকার যতটুকু দেখানো হয়, বাস্তবে অর্থনীতি আরও বড়। কেননা, দেশে হিসাব বহির্ভূত অর্থনৈতিক তৎপরতা বহুবিধ। গৃহশ্রম, শিশুশ্রম, মজুরিবিহীন শ্রম থেকে অর্থনীতিতে যা যোগ হয়, তা হিসাবের আওতায় আনার জন্য জাতিসংঘ থেকে শুরু করে বাংলাদেশের পরিসংখ্যান ব্যুরো সবাই সচেষ্ট।

আসলে প্রশ্নটা বাজেটের আকার নিয়ে যতটা নয়, তার থেকে বেশি হওয়া উচিত তার গতি-প্রকৃতি নিয়ে। শুধু বরাদ্দের দিকে নয়, নজর দেয়া দরকার বাজেটের গুণগত মানের দিকে।

বস্তুত জনগণের প্রত্যাশা, জনগণের প্রাপ্তি এবং জনগণের চাহিদায় যদি বাজেটের প্রতিফলন থাকে, তবে নিশ্চিত তা হবে আসল বাজেট। আর তা না হলে বাজেট গুরুত্বহীন ও তাৎপর্যহীন বলেই প্রতীয়মান হবে।

এই গুরুত্বহীন বাজেটে গরীব আর ধনীর সম্পদের ব্যবধান বাড়বে, সম্পদের বৈষম্য বাড়বে, মুদ্রাস্ফীতি বাড়বে, জাতীয় প্রবৃদ্ধি হার কমবে। ঋণের বোঝা বাড়বে। দেশ সংকটে পড়বে। তাই এবারের বাজেট হোক জনবান্ধব, পরিবেশবন্ধব, শিক্ষাবান্ধব ও মানবতাবান্ধব।

উপ-মহাপরিচালক, আনসার ও ভিডিপি (পিআরএল), আনসার-ভিডিপি একাডেমি, সফিপুর, গাজীপুর

ঘটনাপ্রবাহ : বাজেট ২০১৮

 

 

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter