জামিন পেলেন বিসিবির পরিচালক রাসেল

  নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ১৪:১৯ | অনলাইন সংস্করণ

জামিন পেলেন বিসিবির পরিচালক রাসেল
জামিন পেলেন বিসিবির পরিচালক শওকত আজিজ রাসেল। ছবি: যুগান্তর

পারটেক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান এমএ হাশেমের ছেলে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও গুলশান ক্লাবের প্রেসিডেন্ট শওকত আজিজ রাসেল মাদক এবং গুলি উদ্ধার মামলায় নারায়ণগঞ্জের একটি আদালত থেকে জামিন পেয়েছেন। পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল পর্যন্ত তিনি এ জামিন পেলেন।

মঙ্গলবার সকালে নারায়ণগঞ্জ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফয়সাল আতিক বিন কাদেরের আদালতে জামিন আবেদন করলে আদালত ৫ হাজার টাকা বন্ডে তার জামিন মঞ্জুর করেন।

এর আগে গত ৪ নভেম্বর হাইকোর্টের বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি একেএম জহিরুল হকের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ গাড়ি থেকে মাদক ও গুলি উদ্ধারের ঘটনায় নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় দায়ের হওয়া মামলায় অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পান শওকত আজিজ রাসেল।

আসামিপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ জানান, এ মামলায় শওকত আজিজ রাসেল হাইকোর্টের জামিনে ছিলেন। আজ হাইকোর্টের নির্দেশমতে নারায়ণগঞ্জ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন করা হয়। আদালত ৫ হাজার টাকা বন্ডে পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল পর্যন্ত জামিন মঞ্জুর করেন।

প্রসঙ্গত গত ১ নভেম্বর শওকত আজিজ রাসেলের ব্যবহৃত বিলাসবহুল গাড়ি থেকে বিপুল পরিমাণ মাদক ও গুলি উদ্ধারের দাবি করে পুলিশ। ওই দিন গভীর রাতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সিদ্ধিরগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকায় নারায়ণগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) গাড়িটি আটক করে তল্লাশি করা হয়।

এ সময় মাদক ও গুলি উদ্ধার করা হয় বলে জানানো হয়। গাড়িতে ছিলেন শওকত আজিজ রাসেলের স্ত্রী ফারাহ রাসেল ও ছেলে আনাব আজিজ।

পুলিশ ওই গাড়ি (ঢাকা মেট্টো-ঘ-১৩-৮৩৭৫) থেকে ২৮ রাউন্ড গুলি, ১ হাজার ২০০ পিস ইয়াবা, ২৪ বোতল বিভিন্ন বিদেশি ব্র্যান্ডের মদ, ৪৮ ক্যান বিয়ার এবং ২২ হাজার ৩০০ টাকা উদ্ধারের কথা জানায়।

শনিবার ২ নভেম্বর দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার (এসপি) হারুন অর রশিদ সাংবাদিকদের কাছে এসব তথ্য উপস্থাপন করেন। এ ঘটনায় শনিবার দুপুরে শওকত আজিজ রাসেল ও তার গাড়িচালক সুমনের বিরুদ্ধে অস্ত্র ও মাদক আইনে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় দুটি মামলা করে জেলা ডিবি পুলিশ।

এর আগে ২ নভেম্বর সকালে জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে ছুটে যান পারটেক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান এমএ হাশেম ও তার স্ত্রী সুলতানা হাশেম। ডিবি কার্যালয়ে গিয়ে শওকত আজিজ রাসেলের অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারে পুলিশকে সহায়তার আশ্বাস ও মুচলেকা দিয়ে পুত্রবধূ ফারাহ রাসেল ও নাতি আনাব আজিজকে ছাড়িয়ে নিয়ে যান এমএ হাশেম।

তবে এর পর দিন ৩ নভেম্বর শিল্পপতি শওকত আজিজ রাসেলের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান আম্বর গ্রুপের মালিকানাধীন অনলাইন পোর্টাল নিউজ বাংলাদেশে ওই ঘটনার একটি ভিডিও আপলোড হয়। যেখানে দেখানো হয়, ১ নভেম্বর রাতে রাজধানীর বাসা থেকে শওকত আজিজ রাসেলের স্ত্রী ও ছেলেকে নারায়ণগঞ্জ ডিবি পুলিশের একটি টিম তুলে নিয়ে আসে। এই ভিডিও প্রকাশের পরই তা বিভিন্ন গণমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়।

৩ নভেম্বর বিকালে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক প্রজ্ঞাপনে নারায়ণগঞ্জের এসপি হারুন অর রশিদকে বদলি করে তাকে নারায়ণগঞ্জ থেকে ঢাকার পুলিশ অধিদফতরের টিআর পদে সংযুক্ত করার আদেশের খবর ছড়িয়ে পড়ে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×