বিছানায় মেয়ের লাশ, নিখোঁজ সৌদি প্রবাসীর স্ত্রী

  নওগাঁ প্রতিনিধি ২৮ মার্চ ২০২০, ১৯:৫৩:৩৪ | অনলাইন সংস্করণ

লাশ উদ্ধার। প্রতীকী ছবি

নওগাঁর সদর উপজেলায় ঘরের বিছানার ওপর থেকে সুমাইয়া আক্তার (৭) নামে এক শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পুলিশের ধারণা তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনার পর থেকে শিশুটির মাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।

শুক্রবার রাতের কোনো এক সময় সদর উপজেলার শিকারপুর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর সরদারপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুমাইয়া আক্তার সৌদি প্রবাসী সিরাজুল ইসলামের মেয়ে।

স্থানীয়রা জানান, প্রতিদিনের মতো শুক্রবার রাতে মা তামান্না বেগম ও মেয়ে সুমাইয়া আক্তার রাতের খাওয়া শেষে ঘুমিয়ে পড়ে। শনিবার সকালে তারা ঘুম থেকে না উঠায় সুমাইয়ার দাদি তাদের ডাকতে যান। ঘরের দরজায় ধাক্কা দেয়ার পরও ভেতর থেকে কোনো সাড়াশব্দ মেলেনি।

পরে জোরে ধাক্কা দিলে দরজা খুলে যায়। এ সময় খাটের ওপর সুমাইয়াকে ঘুমানো অবস্থায় দেখা গেলেও তার মা তামান্না বেগমকে দেখা যায়নি। সুমাইয়াকে ডেকেও কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি। পরে তার গায়ে হাত দিলে কোনো নড়াচড়া না পেয়ে তার দাদি কান্নাকাটি শুরু করেন।

এ সময় স্থানীয়রা এসে দেখে সুমাইয়ার নিথর দেহ খাটের ওপর পড়ে আছে এবং তার মা বাড়ি বা এলাকার কোথাও নেই। এ দিকে ঘরের মধ্যে খাটের অগোছালো চাদরের ওপর সিগারেটের প্যাকেট এবং সঙ্গে ৫০ টাকা পড়ে ছিল।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, সুমাইয়ার বাবা সিরাজুল ইসলাম দীর্ঘদিন থেকে সৌদি আরবে আছেন। আর এ সুযোগে গোপনে মোবাইলে অন্য পুরুষের সঙ্গে কথা বলতেন তামান্না বেগম।

নওগাঁ সদর থানার ওসি সোহরাওয়ার্দী হোসেন বলেন, খবর পেয়ে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। শিশুটিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে। ময়নাতদন্তের পর প্রকৃত বিষয়টি জানা যাবে। তবে পরকীয়ার ঘটনায়ও এমনটি হতে পারে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত