রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বান্দরবান সীমান্তে বিজিবির ফাঁকা গুলি
jugantor
রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বান্দরবান সীমান্তে বিজিবির ফাঁকা গুলি

  বান্দরবান প্রতিনিধি  

১২ এপ্রিল ২০২০, ২১:২৬:০৮  |  অনলাইন সংস্করণ

বিজিবি
ফাইল ছবি

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু সীমান্তে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করেছে বিজিবি। রোববার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

বিজিবি ও স্থানীয়রা জানায়, জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের তুমব্রু সীমান্তের ৩২ এবং ৩৩ নম্বর সীমান্ত পিলার এলাকায় ২৫ থেকে ৩০ জন রোহিঙ্গা নাগরিক সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের প্রচেষ্টা চালায়। খবর পেয়ে বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড (বিজিবি) রোহিঙ্গাদের ছত্রভঙ্গ করতে কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে।

এ ছাড়াও নাইক্ষ্যংছড়ি, থানচি, আলীকদম এবং রুমা সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে বিজিবি টহল বাড়ানো হয়েছে। জোরদার করা হয়েছে সীমান্তজুড়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থাও।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বিজিবি ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার বলেন, কয়েকদিন থেকে বেশকিছু রোহিঙ্গা বান্দরবান ও কক্সবাজার সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে। রোববার ভোরে এরকম একটি রোহিঙ্গা নাগরিকের দলকে ছত্রভঙ্গ করতে বিজিবি সীমান্তে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে।

সীমান্ত অঞ্চলের বাসিন্দাদের দাবি, করোনাভাইরাসের আতঙ্কে মিয়ানমার থেকে বেশকিছু রোহিঙ্গা অবৈধভাবে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে। তবে বিজিবির কর্মকর্তারা মনে করছেন সম্প্রতি মিয়ানমার বিভিন্ন সময়ে আটক দেড় শতাধিক রোহিঙ্গাকে কারাগার থেকে মুক্তি দেয়ায় তারা হয়তো বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে।

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বান্দরবান সীমান্তে বিজিবির ফাঁকা গুলি

 বান্দরবান প্রতিনিধি 
১২ এপ্রিল ২০২০, ০৯:২৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিজিবি
ফাইল ছবি

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু সীমান্তে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করেছে বিজিবি। রোববার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

বিজিবি ও স্থানীয়রা জানায়, জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের তুমব্রু সীমান্তের ৩২ এবং ৩৩ নম্বর সীমান্ত পিলার এলাকায় ২৫ থেকে ৩০ জন রোহিঙ্গা নাগরিক সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের প্রচেষ্টা চালায়। খবর পেয়ে বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড (বিজিবি) রোহিঙ্গাদের ছত্রভঙ্গ করতে কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে।

এ ছাড়াও নাইক্ষ্যংছড়ি, থানচি, আলীকদম এবং রুমা সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে বিজিবি টহল বাড়ানো হয়েছে। জোরদার করা হয়েছে সীমান্তজুড়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থাও।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বিজিবি ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার বলেন, কয়েকদিন থেকে বেশকিছু রোহিঙ্গা বান্দরবান ও কক্সবাজার সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে। রোববার ভোরে এরকম একটি রোহিঙ্গা নাগরিকের দলকে ছত্রভঙ্গ করতে বিজিবি সীমান্তে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে।

সীমান্ত অঞ্চলের বাসিন্দাদের দাবি, করোনাভাইরাসের আতঙ্কে মিয়ানমার থেকে বেশকিছু রোহিঙ্গা অবৈধভাবে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে। তবে বিজিবির কর্মকর্তারা মনে করছেন সম্প্রতি মিয়ানমার বিভিন্ন সময়ে আটক দেড় শতাধিক রোহিঙ্গাকে কারাগার থেকে মুক্তি দেয়ায় তারা হয়তো বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালাচ্ছে।

 

ঘটনাপ্রবাহ : রোহিঙ্গা বর্বরতা