বিরামপুরে ইউএনও করোনায় আক্রান্ত
jugantor
বিরামপুরে ইউএনও করোনায় আক্রান্ত

  বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি  

৩০ জুলাই ২০২০, ১৩:২০:৩১  |  অনলাইন সংস্করণ

বিরামপুরে ইউএনও করোনায় আক্রান্ত

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার (ইউএনও) করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

বুধবার রাত ৯টার দিকে তার নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট করোনা পজিটিভ আসে।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলেমান হোসেন মেহেদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলেমান হোসেন মেহেদী যুগান্তরকে জানান, বিরামপুরে এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৮২০ জনের, এতে করোনা পজিটিভ হয়েছে ১৮৬ জন, সুস্থ হয়েছেন ১১৯ জন, অস্থায়ী হাসপাতালে (মুক্তিযোদ্ধা ভবনে) আছেন সাতজন এবং বাকিরা নিজ নিজ বাড়িতে হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন।

বিশেষ করে বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট বুধবার রাতে পাওয়া যায়।

তিনি আরও বলেন, সোমবার রাত থেকে শরীরে সামান্য জ্বর অনুভব হলে সন্দেহবশত তার করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দেন। আর বুধবার রাতে তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট পাওয়া যায়।

বিরামপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল আলম রাজু যুগান্তরকে জানান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার গত ৮ জুন বিরামপুর উপজেলায় ইউএনও হিসাবে যোগদান করেছেন।

প্রথম দিন থেকেই এই করোনাকে ভয় না করে নিরলসভাবে কাজ করেই যাচ্ছেন। শহরবাসীকে সচেতন রাখতে নিয়মিত মাইকিং, বিভিন্ন স্থান ঘুরে ঘুরে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতসহ প্রতিটি রাস্তার মোড়ে মোড়ে মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার, জীবাণুনাশক স্প্রে করার ব্যবস্থা করেছেন। সেই সঙ্গে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সহয়োগিতা নিয়েছেন এবং আমি চেয়ারম্যান হিসাবে তার সঙ্গে থেকে প্রতিটি কাজের সহয়োগিতা করেছি। অবশেষে তিনি নিজেই আক্রান্ত হলেন।

বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার যুগান্তরকে বলেন, আমি সরকারের নির্দেশে কাজ করছি। এই মহামারীতে সমাজের সব মানুষকে সচেতন হতে হবে। আমি নিজেও অনেক সচেতন ছিলাম, কিন্তু গুরুত্বপর্ণ কাজের মধ্যে থেকেই হয়তো কোনোভাবে আক্রান্ত হয়েছি। তবে নমুনা পরীক্ষা দেয়ার পর থেকে অফিস করিনি। নিজ বাড়িতে হোম কোয়ারেন্টিনে আছি।

বিরামপুরে ইউএনও করোনায় আক্রান্ত

 বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি 
৩০ জুলাই ২০২০, ০১:২০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিরামপুরে ইউএনও করোনায় আক্রান্ত
পরিমল কুমার সরকার। ছবি: যুগান্তর

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার (ইউএনও) করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

বুধবার রাত ৯টার দিকে তার নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট করোনা পজিটিভ আসে।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলেমান হোসেন মেহেদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলেমান হোসেন মেহেদী যুগান্তরকে জানান, বিরামপুরে এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৮২০ জনের, এতে করোনা পজিটিভ হয়েছে ১৮৬ জন, সুস্থ হয়েছেন ১১৯ জন, অস্থায়ী হাসপাতালে (মুক্তিযোদ্ধা ভবনে) আছেন সাতজন এবং বাকিরা নিজ নিজ বাড়িতে হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন।

বিশেষ করে বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট বুধবার রাতে পাওয়া যায়।

তিনি আরও বলেন, সোমবার রাত থেকে শরীরে সামান্য জ্বর অনুভব হলে সন্দেহবশত তার করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দেন। আর বুধবার রাতে তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট পাওয়া যায়।

বিরামপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল আলম রাজু যুগান্তরকে জানান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার গত ৮ জুন বিরামপুর উপজেলায় ইউএনও হিসাবে যোগদান করেছেন।

প্রথম দিন থেকেই এই করোনাকে ভয় না করে নিরলসভাবে কাজ করেই যাচ্ছেন। শহরবাসীকে সচেতন রাখতে নিয়মিত মাইকিং, বিভিন্ন স্থান ঘুরে ঘুরে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতসহ প্রতিটি রাস্তার মোড়ে মোড়ে মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার, জীবাণুনাশক স্প্রে করার ব্যবস্থা করেছেন। সেই সঙ্গে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সহয়োগিতা নিয়েছেন এবং আমি চেয়ারম্যান হিসাবে তার সঙ্গে থেকে প্রতিটি কাজের সহয়োগিতা করেছি। অবশেষে তিনি নিজেই আক্রান্ত হলেন।

বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার যুগান্তরকে বলেন, আমি সরকারের নির্দেশে কাজ করছি। এই মহামারীতে সমাজের সব মানুষকে সচেতন হতে হবে। আমি নিজেও অনেক সচেতন ছিলাম, কিন্তু গুরুত্বপর্ণ কাজের মধ্যে থেকেই হয়তো কোনোভাবে আক্রান্ত হয়েছি। তবে নমুনা পরীক্ষা দেয়ার পর থেকে অফিস করিনি। নিজ বাড়িতে হোম কোয়ারেন্টিনে আছি।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ছড়িয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন