তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে লাইব্রেরিয়ান শ্রীঘরে
jugantor
তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে লাইব্রেরিয়ান শ্রীঘরে

  মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি  

২৩ আগস্ট ২০২০, ১৮:৩০:৩১  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার মদনে তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে গেলে এক মাদ্রাসার সহকারী লাইব্রেরিয়ান মিল্লাদ আহম্মদকে (২৫) আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন পরিবারের লোকজন। শনিবার গভীর রাতে উপজেলার মদন বাজারে এ ঘটনার পর পুলিশ আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠিয়েছেন।

আটক মিল্লাদ আহম্মেদ মোজাফর আহম্মদ আলিম মাদ্রাসার সহকারী লাইব্রেরিয়ান। তিনি পৌর সদরের মাস্টারপাড়া এলাকার সলিম উদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে মিল্লাদ আহম্মেদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে একই এলাকার এক গার্মেন্টকর্মীর। এর সুবাদে মিল্লাদ প্রায়ই মেয়েটির বাসায় আসা-যাওয়া করত। শনিবার গভীর রাতে মেয়েটির সঙ্গে দেখা করতে তাদের বাসায় গেলে পরিবারের লোকজন সুকৌশলে তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।

এ সময় পুলিশ প্রেমিক মিল্লাদের সঙ্গে প্রেমিকা ওই মেয়েটিকেও থানায় নিয়ে যায়। পরে জিজ্ঞাসাবাদ করে মেয়েটিকে ছেড়ে দেয় এবং প্রেমিক মিল্লাদ আহম্মেদকে নেত্রকোনা আদালতে প্রেরণ করে।

নেত্রকোনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খালিয়াজুরি সার্কেল) জামাল উদ্দিন জানান, এ ব্যাপারে মেয়েটির পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। তবে আটক মিল্লাদ আহম্মেদকে রোববার দুপুরে ৫৪ ধারায় নেত্রকোনা আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে লাইব্রেরিয়ান শ্রীঘরে

 মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি 
২৩ আগস্ট ২০২০, ০৬:৩০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার মদনে তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে গেলে এক মাদ্রাসার সহকারী লাইব্রেরিয়ান মিল্লাদ আহম্মদকে (২৫) আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন পরিবারের লোকজন। শনিবার গভীর রাতে উপজেলার মদন বাজারে এ ঘটনার পর পুলিশ আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠিয়েছেন।

আটক মিল্লাদ আহম্মেদ মোজাফর আহম্মদ আলিম মাদ্রাসার সহকারী লাইব্রেরিয়ান। তিনি পৌর সদরের মাস্টারপাড়া এলাকার সলিম উদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে মিল্লাদ আহম্মেদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে একই এলাকার এক গার্মেন্টকর্মীর। এর সুবাদে মিল্লাদ প্রায়ই মেয়েটির বাসায় আসা-যাওয়া করত। শনিবার গভীর রাতে মেয়েটির সঙ্গে দেখা করতে তাদের বাসায় গেলে পরিবারের লোকজন সুকৌশলে তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।

এ সময় পুলিশ প্রেমিক মিল্লাদের সঙ্গে প্রেমিকা ওই মেয়েটিকেও থানায় নিয়ে যায়। পরে জিজ্ঞাসাবাদ করে মেয়েটিকে ছেড়ে দেয় এবং প্রেমিক মিল্লাদ আহম্মেদকে নেত্রকোনা আদালতে প্রেরণ করে। 

নেত্রকোনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খালিয়াজুরি সার্কেল) জামাল উদ্দিন জানান, এ ব্যাপারে মেয়েটির পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। তবে আটক মিল্লাদ আহম্মেদকে রোববার দুপুরে ৫৪ ধারায় নেত্রকোনা আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন