সানিয়া মির্জার নাম পাল্টে দিল রাজ্য সরকার!
jugantor
সানিয়া মির্জার নাম পাল্টে দিল রাজ্য সরকার!

  যুগান্তর ডেস্ক  

৩১ আগস্ট ২০১৯, ২০:৪৩:৫১  |  অনলাইন সংস্করণ

সানিয়া মির্জার নাম পাল্টে দিল রাজ্য সরকার!

ভারতীয় টেনিস তারকা সানিয়া মির্জার নাম বদল করে পিটি ঊষা নামে তার নতুন নাম দিয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ রাজ্য সরকার।

সম্প্রতি রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে প্রকাশিত একটি পোস্টারে সানিয়া মির্জার ছবির নিচে হিন্দু নাম পিটি ঊষা লেখা দেখে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এভাবেই সমালোচনা করেছেন ব্যবহারকারীরা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, অন্ধ্র প্রদেশের বন্দরনগরী বিশাখাপত্তনমে জাতীয় ক্রীড়া দিবস উদযাপন উপলক্ষে ভারতীয় ক্রীড়াবিদদের ব্যানার-ফেস্টুর সাঁটানো হয়েছে। এমনই একটি ফেস্টুনে সোনিয়া মির্জার নামের নিচে লেখা হয়েছে পিটি ঊষা।

একইভাবে বিচ রোড সাবমেরিন মিউজিয়ামের পাশে লাগানো একটি পোস্টারেও সোনিয়া মির্জার ছবির নিচে পিটি ঊষা লেখা দেখা যায়। আসলে পিটি ঊষা হলেন ভারতের একজন দৌড়বিদ। অর্থাৎ ছবি আর নামের মানুষ এক নন।

দেশের কোনো রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ছাপানো পোস্টারে এত বড় ভুল যা কারও চোখে পড়েনি। ছবির সঙ্গে নামের এমন অমিলে রাজ্যসরকারের ব্যাপক সমালোচনা করছেন স্থানীয় জনসাধারণ।

প্রতি বছর ২৯ আগস্ট মেজর ধ্যান চাঁদের জন্মদিনটি দেশে জাতীয় ক্রীড়া দিবস হিসেবে পালন করা হয়। এ উপলক্ষে নানা কর্মসূচি রাখা হয় সরকারের পক্ষ থেকে।

এ দিন অন্ধ্র প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী জগমোহন রেড্ডি জাতীয় পর্যায়ে পুরস্কারপ্রাপ্ত খেলোয়াড়দের এওয়ার্ড প্রদান ও নগদ অর্থ পুরস্কার প্রদানের ঘোষণা দিয়েছিলেন। তার বাবা অন্ধ্রের প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রী ওয়াইএস রাজশেখর রেড্ডির নামে এই পুরস্কার দেয়ার কথা ছিল।

সানিয়া মির্জার নাম পাল্টে দিল রাজ্য সরকার!

 যুগান্তর ডেস্ক 
৩১ আগস্ট ২০১৯, ০৮:৪৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সানিয়া মির্জার নাম পাল্টে দিল রাজ্য সরকার!
ছবি: সংগৃহীত

ভারতীয় টেনিস তারকা সানিয়া মির্জার নাম বদল করে পিটি ঊষা নামে তার নতুন নাম দিয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ রাজ্য সরকার।

সম্প্রতি রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে প্রকাশিত একটি পোস্টারে সানিয়া মির্জার ছবির নিচে হিন্দু নাম পিটি ঊষা লেখা দেখে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এভাবেই সমালোচনা করেছেন ব্যবহারকারীরা।  

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, অন্ধ্র প্রদেশের বন্দরনগরী বিশাখাপত্তনমে জাতীয় ক্রীড়া দিবস উদযাপন উপলক্ষে ভারতীয় ক্রীড়াবিদদের ব্যানার-ফেস্টুর সাঁটানো হয়েছে। এমনই একটি ফেস্টুনে সোনিয়া মির্জার নামের নিচে লেখা হয়েছে পিটি ঊষা।

একইভাবে বিচ রোড সাবমেরিন মিউজিয়ামের পাশে লাগানো একটি পোস্টারেও সোনিয়া মির্জার ছবির নিচে পিটি ঊষা লেখা দেখা যায়। আসলে পিটি ঊষা হলেন ভারতের একজন দৌড়বিদ। অর্থাৎ ছবি আর নামের মানুষ এক নন।

দেশের কোনো রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ছাপানো পোস্টারে এত বড় ভুল যা কারও চোখে পড়েনি। ছবির সঙ্গে নামের এমন অমিলে রাজ্যসরকারের ব্যাপক সমালোচনা করছেন স্থানীয় জনসাধারণ।

প্রতি বছর ২৯ আগস্ট মেজর ধ্যান চাঁদের জন্মদিনটি দেশে জাতীয় ক্রীড়া দিবস হিসেবে পালন করা হয়। এ উপলক্ষে নানা কর্মসূচি রাখা হয় সরকারের পক্ষ থেকে।

এ দিন অন্ধ্র প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী জগমোহন রেড্ডি জাতীয় পর্যায়ে পুরস্কারপ্রাপ্ত খেলোয়াড়দের এওয়ার্ড প্রদান ও নগদ অর্থ পুরস্কার প্রদানের ঘোষণা দিয়েছিলেন।  তার বাবা অন্ধ্রের প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রী ওয়াইএস রাজশেখর রেড্ডির নামে এই পুরস্কার দেয়ার কথা ছিল।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন