বিয়ের মাধ্যমে দারিদ্রতা দূরীকরণে ইন্দোনেশিয়ায় নতুন ফর্মুলা!

  যুগান্তর ডেস্ক ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ২০:২৪:৫৫ | অনলাইন সংস্করণ

ছবি: ইয়েনি শাফাক

বিয়ের মাধ্যমে দেশ থেকে দারিদ্রতা দূরীকরণের অভিনব এক প্রস্তাব দিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার মানবউন্নয়ন ও সংস্কৃতিমন্ত্রী মুহাদির আফেন্দি।

তার মতে, ধনী-গরিবের মাঝে অধিকহারে বৈবাহিক সম্পর্ক স্থাপনের মধ্যদিয়ে দারিদ্রতার মোকাবেলা করা সম্ভব। তাই দেশের বিবাহযোগ্য ও সামর্থবান যুবক-যুবতিদের এই কৌশল অবলম্বনের আহবান জানিয়েছেন তিনি। খবর ইয়েনি শাফাক আরবির।

বৃহস্পতিবার তুর্কি এই গণমাধ্যমটির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, ইন্দোনেশিয়ান ওই মন্ত্রীর দাবি, তার এই কৌশল দেশ থেকে দারিদ্রতা বিমোচনে নতুন মাইলফলক সৃষ্টি করতে পারে।

তার মন্তব্য, ইন্দোনেশিয়া বিশ্বের অন্যতম বৃহৎ মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ হলেও ‘ইসলামে বিবাহের ক্ষেত্রে সমতা’- এই বিধান দেশটির নাগরিকরা সঠিকভাবে বুঝতে সক্ষম হননি।

জাকার্তা পোস্টের বরাতে ইয়েনি শাফাক আরও জানায়, ইন্দোনেশিয়ায় অন্তত দেড়কোটি পরিবার অস্বচ্ছল। এ ফর্মূলামতে ধনী-গরিবের মধ্যে যদি অধিকহারে বৈবাহিক সম্পর্ক স্থাপন করা হয়, তাহলে উভয়শ্রেণীর মাঝে সামাজিক বৈষম্য হ্রাস পাবে এবং পারিবারিক ও আত্মীয়তার বন্ধন সুদৃঢ় হবে বলে মন্ত্রী মুহাদির আফেন্দি দাবি করেন।

তিনি এ বিষয়ে দেশটির ধর্মমন্ত্রী ফাখরুর রাজিকে একটি ‘ফতোয়া’ দিতেও অনুরোধ করেছেন।

বিশ্বব্যাংকের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, ইন্দোনেশিয়ায় ২৬৭ মিলিয়ন মানুষের বসবাস, যাদের মধ্যে অন্তত ১ শত ১৫ মিলিয়ন মানুষ অর্থনৈতিকভাবে মধ্যবিত্তের নিচে অবস্থান করছে।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত