লন্ডনে থানার ভেতর আসামির গুলিতে পুলিশ কর্মকর্তা নিহত
jugantor
লন্ডনে থানার ভেতর আসামির গুলিতে পুলিশ কর্মকর্তা নিহত

  অনলাইন ডেস্ক  

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৮:০৪:৫৫  |  অনলাইন সংস্করণ

ছবি: বিবিসি

লন্ডনে থানার মধ্যেই সন্দেহভাজন আসামির গুলিতে প্রাণ হারিয়েছেন এক পুলিশ কর্মকর্তা। শুক্রবার শহরটির দক্ষিণাঞ্চলীয় ক্রয়ডন পুলিশ স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে। খবর বিবিসির।

খবরে বলা হয়, সন্দেহভাজন এক ব্যক্তিকে আটক করে উইন্ডমিল লেনের কাস্টোডি সেন্টারে নিয়ে যাওয়ার সময় ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে গুলি করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে, সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। সেখানে দেহ তল্লাশীর সময় হয়তো বন্দুক দিয়ে ওই পুলিশ কর্মকর্তা ও নিজের ওপর গুলি চালান ওই ব্যক্তি।

গুরুতর আহত পুলিশ কর্মকর্তাকে থানার মধ্যেই প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

ঘটনাস্থলে ২৩ বছর বয়সী আরও এক বন্দি ছিলেন। তিনিও গুলিতে গুরুতর আহত হয়েছেন।

লন্ডন পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার সময় পুলিশের দিক থেকে কোনও গুলি ছোড়া হয়নি।

স্থানীয় পুলিশ কমিশনার ক্রেসিডা ডিক বলেন, আমরা নিহত পুলিশ পরিবারকে সহযোগিতা করছি। এছাড়া কাস্টোডি সেন্টারে থাকা প্রত্যক্ষদর্শীদের সহায়তার জন্যেও একটি টিম কাজ করছে।

নিহত পুলিশ সদস্যের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। তিনি বলেন, যারা নিজেদের জীবন বাজি রেখে আমাদের সুরক্ষার জন্য কাজ করছেন তাদের প্রতি আমরা চির ঋণী। এক টুইট বার্তায় বরিস জনসন বলেন, আমি নিহত পুলিশ অফিসারের পরিবার, বন্ধু ও সহকর্মীদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাই।

লন্ডনে থানার ভেতর আসামির গুলিতে পুলিশ কর্মকর্তা নিহত

 অনলাইন ডেস্ক 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬:০৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ছবি: বিবিসি
ছবি: বিবিসি

লন্ডনে থানার মধ্যেই সন্দেহভাজন আসামির গুলিতে প্রাণ হারিয়েছেন এক পুলিশ কর্মকর্তা। শুক্রবার শহরটির দক্ষিণাঞ্চলীয় ক্রয়ডন পুলিশ স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে। খবর বিবিসির। 

খবরে বলা হয়, সন্দেহভাজন এক ব্যক্তিকে আটক করে উইন্ডমিল লেনের কাস্টোডি সেন্টারে নিয়ে যাওয়ার সময় ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে গুলি করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে, সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। সেখানে দেহ তল্লাশীর সময় হয়তো বন্দুক দিয়ে ওই পুলিশ কর্মকর্তা ও নিজের ওপর গুলি চালান ওই ব্যক্তি।

গুরুতর আহত পুলিশ কর্মকর্তাকে থানার মধ্যেই প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

ঘটনাস্থলে ২৩ বছর বয়সী আরও এক বন্দি ছিলেন। তিনিও গুলিতে গুরুতর আহত হয়েছেন।

লন্ডন পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার সময় পুলিশের দিক থেকে কোনও গুলি ছোড়া হয়নি।

স্থানীয় পুলিশ কমিশনার ক্রেসিডা ডিক বলেন, আমরা নিহত পুলিশ পরিবারকে সহযোগিতা করছি। এছাড়া কাস্টোডি সেন্টারে থাকা প্রত্যক্ষদর্শীদের সহায়তার জন্যেও একটি টিম কাজ করছে।

নিহত পুলিশ সদস্যের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। তিনি বলেন, যারা নিজেদের জীবন বাজি রেখে আমাদের সুরক্ষার জন্য কাজ করছেন তাদের প্রতি আমরা চির ঋণী। এক টুইট বার্তায় বরিস জনসন বলেন, আমি নিহত পুলিশ অফিসারের পরিবার, বন্ধু ও সহকর্মীদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাই।