শান্তিরক্ষা মিশনে গেলেন ১৪০ পুলিশ সদস্য
jugantor
শান্তিরক্ষা মিশনে গেলেন ১৪০ পুলিশ সদস্য

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১৪ জানুয়ারি ২০২২, ২০:৪২:৪৬  |  অনলাইন সংস্করণ

শান্তিরক্ষা মিশনে গেলেন ১৪০ পুলিশ সদস্য

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে দায়িত্ব পালনের জন্য মালির উদ্দেশে দেশ ছেড়েছেন পুলিশের ১৪০ সদস্য। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে বাংলাদেশ বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে পশ্চিম আফ্রিকার মালির রাজধানী বামাকোর উদ্দেশে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ছাড়েন তারা।

কমান্ডার মোহাম্মদ শাহিনুর আলম খানের নেতৃত্বে বিএনএফপিইউ-২ এর চতুর্থ রোটেশনের ৭০ জন ও ডেপুটি কমান্ডার মো. স্নিগ্ধ আখতারের নেতৃত্বে বিএনএফপিইউ-১ এর অষ্টম রোটেশনের ৭০ জন পুলিশ সদস্য রয়েছেন।

ডিআইজি (অপারেশনস ও অতিরিক্ত দায়িত্বে মিডিয়া অ্যান্ড প্ল্যানি) মো. হায়দার আলী খান ও ইউএন অ্যাফেয়ার্স (অপারেশনস) উইংয়ের কর্মকর্তারা হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাদের বিদায় জানান।

পুলিশ সদর দপ্তরের এআইজি (মিডিয়া) মো. কামরুজ্জামান বলেন, ২০১৩ সাল থেকে বিএনএফপিইউ-১, জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে মালির বামাকোতে বাংলাদেশ পুলিশের সদস্যরা পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছেন। ২০১৭ সাল থেকে বিএনএফপিইউ-২ মালির উত্তর ভাগের সাহারা মরুভূমির বুকে তিম্বুক্ত রিজিয়নের গুন্দাম এলাকায় অত্যন্ত সুনামের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছে। দুর্গম ভৌগোলিক অবস্থান ও প্রতিকূল আবহাওয়ার মধ্যে বাংলাদেশ পুলিশের সদস্যরা অত্যন্ত সাহসিকতা এবং পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করেছেন।

শান্তিরক্ষা মিশনে গেলেন ১৪০ পুলিশ সদস্য

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১৪ জানুয়ারি ২০২২, ০৮:৪২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শান্তিরক্ষা মিশনে গেলেন ১৪০ পুলিশ সদস্য
প্রতীকী ছবি

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে দায়িত্ব পালনের জন্য মালির উদ্দেশে দেশ ছেড়েছেন পুলিশের ১৪০ সদস্য। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে বাংলাদেশ বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে পশ্চিম আফ্রিকার মালির রাজধানী বামাকোর উদ্দেশে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ছাড়েন তারা।  

কমান্ডার মোহাম্মদ শাহিনুর আলম খানের নেতৃত্বে বিএনএফপিইউ-২ এর চতুর্থ রোটেশনের ৭০ জন ও ডেপুটি কমান্ডার মো. স্নিগ্ধ আখতারের নেতৃত্বে বিএনএফপিইউ-১ এর অষ্টম রোটেশনের ৭০ জন পুলিশ সদস্য রয়েছেন। 

ডিআইজি (অপারেশনস ও অতিরিক্ত দায়িত্বে মিডিয়া অ্যান্ড প্ল্যানি) মো. হায়দার আলী খান ও ইউএন অ্যাফেয়ার্স (অপারেশনস) উইংয়ের কর্মকর্তারা হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাদের বিদায় জানান। 

পুলিশ সদর দপ্তরের এআইজি (মিডিয়া) মো. কামরুজ্জামান বলেন, ২০১৩ সাল থেকে বিএনএফপিইউ-১, জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে মালির বামাকোতে বাংলাদেশ পুলিশের সদস্যরা পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছেন। ২০১৭ সাল থেকে বিএনএফপিইউ-২ মালির উত্তর ভাগের সাহারা মরুভূমির বুকে তিম্বুক্ত রিজিয়নের গুন্দাম এলাকায় অত্যন্ত সুনামের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছে। দুর্গম ভৌগোলিক অবস্থান ও প্রতিকূল আবহাওয়ার মধ্যে বাংলাদেশ পুলিশের সদস্যরা অত্যন্ত সাহসিকতা এবং পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর