মুশফিকের সিদ্ধান্তে হতাশ বাবর

  স্পোর্টস ডেস্ক ২৪ জানুয়ারি ২০২০, ১৫:১৫ | অনলাইন সংস্করণ

বাবর

নিরাপত্তা অজুহাতে দলের সঙ্গে পাকিস্তান সফরে যাননি মুশফিকুর রহিম। মূলত পারিবারিক শঙ্কার কারণে সেখানে যাননি তিনি। তাকে পরিবারের কেউ অনুমতি দেননি। অবশ্য এ সিদ্ধান্ত তার ব্যক্তিগত অধিকারের পর্যায়ে পড়ে।

তবে তা মেনে নিতে পারছেন না পাকিস্তানিরা। সোশ্যাল মিডিয়ায় যে যার মতো করে মুশিকে নিয়ে মন্তব্য করছেন। অনেকে সমালোচনা ও ব্যঙ্গ করছেন। গেল বৃহস্পতিবার ম্যাচপূর্ববর্তী পাকিস্তানের সংবাদ সম্মেলনেও প্রসঙ্গটি ওঠে। দেশটিতে তার না যাওয়া নিয়ে আক্ষেপ ঝরেছে পাক টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক বাবর আজমের কণ্ঠে।

মুশফিক আসেননি পাকিস্তানে। তার প্রতি আপনার বার্তা কী? এক পাকিস্তানি সাংবাদিকের এমন প্রশ্নের জবাবে হতাশার সুরে বাবর বলেন, বাংলাদেশ দলের প্রায় সবাই এসেছে। শুধু মুশফিক আসেননি। আমি তাকে কেবল এটিই বলব– উনি এলে আমরা খুবই খুশি হতাম। তাদের আর সবার মতো তাকেও দারুণভাবে সংবর্ধনা দিতাম।

বাংলাদেশের এ সিনিয়র ক্রিকেটার তথা মিস্টার ডিপেন্ডেবলের উদ্দেশে তিনি বলেন, আমি তাকে এও বলছি– ক্রিকেটের জন্য পাকিস্তান সবসময় নিরাপদ স্থান। আমি আশা করি, টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলে সতীর্থরা ফিরে গেলে উনি পাকিস্তান সম্পর্কে জানবেন। ভবিষ্যতে অবশ্যই আমাদের এখানে খেলতে আসবেন।

পাকিস্তান সফর চূড়ান্ত হওয়ার আগে থেকেই এ নিয়ে নেতিবাচক ছিলেন মুশফিক। গেল ১৪ জানুয়ারি আইসিসির মধ্যস্থতায় সিদ্ধান্ত নেয় বিসিবি। সঙ্গে সঙ্গে বোর্ডকে চিঠি দিয়ে সেখানে না যাওয়ার কথা জানিয়ে দেন তিনি।

শুক্রবার লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে গড়াবে প্রথম টি-টোয়েন্টি। এ ম্যাচে জেতার ব্যাপারে দুদলই আশাবাদী। বাকি দুই ম্যাচ গড়াবে ২৫ ও ২৭ জানুয়ারি একই ভেন্যুতে। এখন কেবল পাকিস্তান-বাংলাদেশের বহুল প্রতীক্ষিত লড়াই দেখার পালা।

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর-২০২০

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

 
×