ক্যান্সার নির্মূলে উৎস খুঁজে বের করতে হবে
jugantor
ক্যান্সার নির্মূলে উৎস খুঁজে বের করতে হবে
-গওহর রিজভী

  ঢাবি প্রতিনিধি  

১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিকবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. গওহর রিজভী বলেছেন, অনেকে বলেন খাদ্যের কারণে ক্যান্সার হয়। আবার অন্যরা বলে পরিবেশ, যে ধরনের কীটনাশক ব্যবহার করা হয় শাক-সবজি উৎপাদনের জন্য অথবা পোলট্রিতে হরমোনের জন্য যে ইনজেশন দেয়া হয় তার কারণেই ক্যান্সার হচ্ছে। তবে আসল কথা হল ক্যান্সার নির্মূলের জন্য এর প্রধান উৎস আমাদের খুঁজে বের করতে হবে। সোমবার এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

‘ক্যান্সার কেয়ার অ্যান্ড রিসার্চ ট্রাস্ট বাংলাদেশে’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠান উপলক্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর এডভান্সড রিসার্চ ইন সায়োন্সের কনফারেন্স রুমে ‘মাল্টি-সেক্টোরাল কোপারেশন টু রিডিউস দি বার্ডেন অব ক্যান্সার ইন বাংলাদেশ অ্যান্ড এনসিউরিং পেশেন্টস একসেস’ শীর্ষক পলিসি ডায়লগের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিকবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. গওহর রিজভী। বিশেষ অতিথি ছিলেন অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র ক্যান্সার গবেষক ও বিশিষ্ট জেনেটিসিস্ট স্যার ওয়াল্টার বডমার। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন ক্যান্সার কেয়ার অ্যান্ড রিসার্চ ট্রাস্টের সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জিন প্রকৌশলী ও জীবপ্রযুক্তি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মুশতাক ইবনে আয়ুব প্রমুখ। অনুষ্ঠানের শেষে বাংলাদেশের সিনিয়র অনকোলিজিস্ট অধ্যাপক এমএ হাই সমাপনী বক্তব্য প্রদান করেন ও ক্যান্সার কেয়ার এবং রিচার্স ট্রাস্ট বাংলাদেশের সেক্রেটারি কাজী মোহাম্মদ জামশেদের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মাধ্যমে অনুষ্ঠান শেষ হয়।

গওহর রিজভী বলেন, ক্যান্সার সম্ভবত সবচেয়ে বড় ও দীর্ঘস্থায়ী অভিশাপ হয়ে দাঁড়িয়েছে সারা বিশ্বের জন্য। আমার মাও ক্যান্সারে আক্রান্ত ছিলেন। তিনি আরও বলেন, দেশের বিভিন্ন জেলায় ক্যান্সার হাসপাতাল করার কথা সরকার খুব গুরুত্বের সঙ্গে ভাবছে, এর জন্য আপনাদের সহযোগিতা দরকার।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে স্যার ওয়াল্টার বডমার তার দীর্ঘদিনের গবেষণা ও দাতব্য অভিজ্ঞতা থেকে বাংলাদেশের ক্যান্সার রোগীদের

জন্য বিশেষ পরামর্শ সার্ভিস ও গবেষণার জন্য বিশেষ অনুদানের গুরুত্ব তুলে ধরেন।

ক্যান্সার নির্মূলে উৎস খুঁজে বের করতে হবে

-গওহর রিজভী
 ঢাবি প্রতিনিধি 
১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিকবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. গওহর রিজভী বলেছেন, অনেকে বলেন খাদ্যের কারণে ক্যান্সার হয়। আবার অন্যরা বলে পরিবেশ, যে ধরনের কীটনাশক ব্যবহার করা হয় শাক-সবজি উৎপাদনের জন্য অথবা পোলট্রিতে হরমোনের জন্য যে ইনজেশন দেয়া হয় তার কারণেই ক্যান্সার হচ্ছে। তবে আসল কথা হল ক্যান্সার নির্মূলের জন্য এর প্রধান উৎস আমাদের খুঁজে বের করতে হবে। সোমবার এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

‘ক্যান্সার কেয়ার অ্যান্ড রিসার্চ ট্রাস্ট বাংলাদেশে’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠান উপলক্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর এডভান্সড রিসার্চ ইন সায়োন্সের কনফারেন্স রুমে ‘মাল্টি-সেক্টোরাল কোপারেশন টু রিডিউস দি বার্ডেন অব ক্যান্সার ইন বাংলাদেশ অ্যান্ড এনসিউরিং পেশেন্টস একসেস’ শীর্ষক পলিসি ডায়লগের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিকবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. গওহর রিজভী। বিশেষ অতিথি ছিলেন অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র ক্যান্সার গবেষক ও বিশিষ্ট জেনেটিসিস্ট স্যার ওয়াল্টার বডমার। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন ক্যান্সার কেয়ার অ্যান্ড রিসার্চ ট্রাস্টের সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জিন প্রকৌশলী ও জীবপ্রযুক্তি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মুশতাক ইবনে আয়ুব প্রমুখ। অনুষ্ঠানের শেষে বাংলাদেশের সিনিয়র অনকোলিজিস্ট অধ্যাপক এমএ হাই সমাপনী বক্তব্য প্রদান করেন ও ক্যান্সার কেয়ার এবং রিচার্স ট্রাস্ট বাংলাদেশের সেক্রেটারি কাজী মোহাম্মদ জামশেদের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মাধ্যমে অনুষ্ঠান শেষ হয়।

গওহর রিজভী বলেন, ক্যান্সার সম্ভবত সবচেয়ে বড় ও দীর্ঘস্থায়ী অভিশাপ হয়ে দাঁড়িয়েছে সারা বিশ্বের জন্য। আমার মাও ক্যান্সারে আক্রান্ত ছিলেন। তিনি আরও বলেন, দেশের বিভিন্ন জেলায় ক্যান্সার হাসপাতাল করার কথা সরকার খুব গুরুত্বের সঙ্গে ভাবছে, এর জন্য আপনাদের সহযোগিতা দরকার।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে স্যার ওয়াল্টার বডমার তার দীর্ঘদিনের গবেষণা ও দাতব্য অভিজ্ঞতা থেকে বাংলাদেশের ক্যান্সার রোগীদের

জন্য বিশেষ পরামর্শ সার্ভিস ও গবেষণার জন্য বিশেষ অনুদানের গুরুত্ব তুলে ধরেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন