সংগীত জগৎ ঘিরে আমার কোনো অপূর্ণতা নেই
jugantor
সংগীত জগৎ ঘিরে আমার কোনো অপূর্ণতা নেই

  অভি মঈনুদ্দীন  

১৭ নভেম্বর ২০২২, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

প্রখ্যাত সংগীতশিল্পী রুনা লায়লার জন্মদিন আজ। জীবনের ৬৯ বসন্ত পার করেছেন তিনি। জন্মদিন ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে যুগান্তরের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন অভি মঈনুদ্দীন।

* কীভাবে কাটবে এবারের জন্মদিন?

** এবার আসলে জন্মদিন ঘিরে কিছু পরিকল্পনা আছে। এর মধ্যে কিছু বিষয় আমি জানি। আবার কিছু বিষয় জানি না। আমাকে ঘিরে যারা আছেন তাদের অনেকেই পরিকল্পনা শেয়ার করছেন। কেউ কেউ আবার শুধু সময়টা নির্দিষ্ট করে রেখেছেন। তবে মনে হচ্ছে বেশ ভালোভাবে কাটবে। আজকের দিনে সবার দোয়া চাই, সৃষ্টিকর্তা যেন আমাকে, আমার পরিবারকে ভালো রাখেন।

* বাংলাদেশের সংগীতাঙ্গনের গত ১০ বছরের যে অবস্থা তা নিয়ে কী আপনি সন্তুষ্ট?

** আমাদের দেশে কিন্তু মেধাবী অনেক শিল্পী আছে। কিন্তু তাদের যথাযথভাবে কাজে লাগানো হচ্ছে না। এ কারণে তাদের মেধার বিকাশ ঘটছে না। তারপরও কেউ কেউ আছেন নিজের মতো করেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাদের সাধুবাদ জানাতেই হয়। তবে আমি বিশ্বাস করি, যেসব মেধাবী শিল্পী আছে তারা ভালো সুযোগ পেলে নিজেদের মেধা প্রকাশ করতে পারবে। এ জন্য ভালো ইনভেস্টর প্রয়োজন। আবার এটাও সত্যি, এ প্রজন্মের শিল্পীদের মৌলিক গানের খুব অভাব। যে কারণে তাদের নির্দিষ্ট কয়েকটি গানের বাইরে আমাদের গানগুলোই সাধারণত গেয়ে থাকে। এটা খারাপ বলছি না আমি। কিন্তু তারপরও নিজেদের মৌলিক গানের সংখ্যা বাড়াতে হবে। নিজেদের যথাযথভাবে তৈরি করতে হবে।

* দেশের সংগীতাঙ্গনকে ভবিষ্যতে কোথায় দেখতে চান?

** বাংলাদেশের সংগীতাঙ্গন আরও সমৃদ্ধ হবে, আমাদের এ প্রজন্মের শিল্পীদেরও নিজেদের আলাদা স্পেশাল আইডেন্টিটি হবে, তারা দেশকে রিপ্রেজেন্ট করবে এটাই প্রত্যাশা করি।

* রুনা লায়লার মতো আরেক গায়িকা পেতে চাইলে কীভাবে সম্ভব?

** আমি মনে করি কেউ কারও জায়গা নিতে পারে না। কেউ কারও মতো হয়ও না। হতে পারে না, হওয়া উচিতও নয়। একজন আরেকজনের নামে বিশেষায়িতভাবে পরিচিত হওয়ার কী প্রয়োজন। হ্যাঁ, এটা সত্যি আমিও নিজে কাউকে না কাউকে আদর্শ মনে করি। তাকে অনুপ্রেরণা হিসাবে নিয়ে গান গেয়েছি। সেই তার কাছ থেকে আমি অনেক কিছু শিখেছি, নিজেকে সৃমদ্ধ করার চেষ্টা করেছি। নিজেকে নিজের মতো করেই তৈরি করেছি। আমারও বিশ্বাস এখন যারা গানে আসছে তারা আমার মতো কেন, আমার চেয়েও ভালো কিছু হবে-এ বিশ্বাস আমি রাখি।

* নতুন প্রজন্মের জন্য কোনো সংগীত প্রতিষ্ঠান করার পরিকল্পনা আছে?

** আমি একজন গায়িকা। এর বাইরে কিছুদিন আগে থেকে সুর করছি। দেশ এবং দেশের বাইরে অনেক শিল্পী আমার সুরে গান গেয়েছেন। আমি এখনো গান শেখার চেষ্টা করি। কোনো ওস্তাদ বা পণ্ডিত পর্যায়ের আমি কেউ নই যে, কোনো প্রতিষ্ঠান করে শেখানো গান শেখাব। বরং এটা হতে পার, সরকারি পর্যায়ে কোনো উদ্যোগ নিয়ে গানের প্রতিষ্ঠান করা হলে তার সঙ্গে আমি কোনো না কোনোভাবে সম্পৃক্ত থাকতে পারি।

* গান নিয়ে আপনার বিশেষ কোনো চাওয়া আছে?

** এক জীবনে আমি পৃথিবীব্যাপী মানুষের যে শ্রদ্ধা, ভালোবাসা, সম্মান পেয়েছি এর চেয়ে বড় প্রাপ্তি বা চাওয়া আর কিছু থাকতে পারে না। মানুষের ভালোবাসাই আমার সবচেয়ে বড় উপহার। এটাই অনেক বড় সুখ আমার।

* সংগীত জগৎ ঘিরে কোনো ইচ্ছা আছে যেটা অপূর্ণ রয়ে গেছে?

** সংগীত জগৎ ঘিরে আমার মাঝে কোনোই অপূর্ণতা নেই। এক জীবনে আল্লাহর অশেষ রহমতে অনেক কিছুই পেয়েছি। মনে প্রাণে মানুষের ভালোবাসা, দোয়ায় আমি পরিপূর্ণ। এখানে আমার অপূর্ণ কিছু নেই। আমি মনে করি, এখন আমার আসলে দেওয়ার সময়। যতদিন বাঁচি আমাদের দেশের সংগীতাঙ্গনকে ভালো কিছু দিয়ে যেতে চাই।

* অভিনয়ে আর দেখার সম্ভাবনা আছে?

** না না, আর অভিনয় করা সম্ভব নয়। তবে সুর করার ইচ্ছা আছে। অনেক ভালো ভালো কিছু সুর সৃষ্টি করে যেতে চাই। সৃষ্টিকর্তা যেন সুস্থ রাখেন, ভালো রাখেন এ দোয়া চাই।

সংগীত জগৎ ঘিরে আমার কোনো অপূর্ণতা নেই

 অভি মঈনুদ্দীন 
১৭ নভেম্বর ২০২২, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

প্রখ্যাত সংগীতশিল্পী রুনা লায়লার জন্মদিন আজ। জীবনের ৬৯ বসন্ত পার করেছেন তিনি। জন্মদিন ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে যুগান্তরের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন অভি মঈনুদ্দীন।

* কীভাবে কাটবে এবারের জন্মদিন?

** এবার আসলে জন্মদিন ঘিরে কিছু পরিকল্পনা আছে। এর মধ্যে কিছু বিষয় আমি জানি। আবার কিছু বিষয় জানি না। আমাকে ঘিরে যারা আছেন তাদের অনেকেই পরিকল্পনা শেয়ার করছেন। কেউ কেউ আবার শুধু সময়টা নির্দিষ্ট করে রেখেছেন। তবে মনে হচ্ছে বেশ ভালোভাবে কাটবে। আজকের দিনে সবার দোয়া চাই, সৃষ্টিকর্তা যেন আমাকে, আমার পরিবারকে ভালো রাখেন।

* বাংলাদেশের সংগীতাঙ্গনের গত ১০ বছরের যে অবস্থা তা নিয়ে কী আপনি সন্তুষ্ট?

** আমাদের দেশে কিন্তু মেধাবী অনেক শিল্পী আছে। কিন্তু তাদের যথাযথভাবে কাজে লাগানো হচ্ছে না। এ কারণে তাদের মেধার বিকাশ ঘটছে না। তারপরও কেউ কেউ আছেন নিজের মতো করেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাদের সাধুবাদ জানাতেই হয়। তবে আমি বিশ্বাস করি, যেসব মেধাবী শিল্পী আছে তারা ভালো সুযোগ পেলে নিজেদের মেধা প্রকাশ করতে পারবে। এ জন্য ভালো ইনভেস্টর প্রয়োজন। আবার এটাও সত্যি, এ প্রজন্মের শিল্পীদের মৌলিক গানের খুব অভাব। যে কারণে তাদের নির্দিষ্ট কয়েকটি গানের বাইরে আমাদের গানগুলোই সাধারণত গেয়ে থাকে। এটা খারাপ বলছি না আমি। কিন্তু তারপরও নিজেদের মৌলিক গানের সংখ্যা বাড়াতে হবে। নিজেদের যথাযথভাবে তৈরি করতে হবে।

* দেশের সংগীতাঙ্গনকে ভবিষ্যতে কোথায় দেখতে চান?

** বাংলাদেশের সংগীতাঙ্গন আরও সমৃদ্ধ হবে, আমাদের এ প্রজন্মের শিল্পীদেরও নিজেদের আলাদা স্পেশাল আইডেন্টিটি হবে, তারা দেশকে রিপ্রেজেন্ট করবে এটাই প্রত্যাশা করি।

* রুনা লায়লার মতো আরেক গায়িকা পেতে চাইলে কীভাবে সম্ভব?

** আমি মনে করি কেউ কারও জায়গা নিতে পারে না। কেউ কারও মতো হয়ও না। হতে পারে না, হওয়া উচিতও নয়। একজন আরেকজনের নামে বিশেষায়িতভাবে পরিচিত হওয়ার কী প্রয়োজন। হ্যাঁ, এটা সত্যি আমিও নিজে কাউকে না কাউকে আদর্শ মনে করি। তাকে অনুপ্রেরণা হিসাবে নিয়ে গান গেয়েছি। সেই তার কাছ থেকে আমি অনেক কিছু শিখেছি, নিজেকে সৃমদ্ধ করার চেষ্টা করেছি। নিজেকে নিজের মতো করেই তৈরি করেছি। আমারও বিশ্বাস এখন যারা গানে আসছে তারা আমার মতো কেন, আমার চেয়েও ভালো কিছু হবে-এ বিশ্বাস আমি রাখি।

* নতুন প্রজন্মের জন্য কোনো সংগীত প্রতিষ্ঠান করার পরিকল্পনা আছে?

** আমি একজন গায়িকা। এর বাইরে কিছুদিন আগে থেকে সুর করছি। দেশ এবং দেশের বাইরে অনেক শিল্পী আমার সুরে গান গেয়েছেন। আমি এখনো গান শেখার চেষ্টা করি। কোনো ওস্তাদ বা পণ্ডিত পর্যায়ের আমি কেউ নই যে, কোনো প্রতিষ্ঠান করে শেখানো গান শেখাব। বরং এটা হতে পার, সরকারি পর্যায়ে কোনো উদ্যোগ নিয়ে গানের প্রতিষ্ঠান করা হলে তার সঙ্গে আমি কোনো না কোনোভাবে সম্পৃক্ত থাকতে পারি।

* গান নিয়ে আপনার বিশেষ কোনো চাওয়া আছে?

** এক জীবনে আমি পৃথিবীব্যাপী মানুষের যে শ্রদ্ধা, ভালোবাসা, সম্মান পেয়েছি এর চেয়ে বড় প্রাপ্তি বা চাওয়া আর কিছু থাকতে পারে না। মানুষের ভালোবাসাই আমার সবচেয়ে বড় উপহার। এটাই অনেক বড় সুখ আমার।

* সংগীত জগৎ ঘিরে কোনো ইচ্ছা আছে যেটা অপূর্ণ রয়ে গেছে?

** সংগীত জগৎ ঘিরে আমার মাঝে কোনোই অপূর্ণতা নেই। এক জীবনে আল্লাহর অশেষ রহমতে অনেক কিছুই পেয়েছি। মনে প্রাণে মানুষের ভালোবাসা, দোয়ায় আমি পরিপূর্ণ। এখানে আমার অপূর্ণ কিছু নেই। আমি মনে করি, এখন আমার আসলে দেওয়ার সময়। যতদিন বাঁচি আমাদের দেশের সংগীতাঙ্গনকে ভালো কিছু দিয়ে যেতে চাই।

* অভিনয়ে আর দেখার সম্ভাবনা আছে?

** না না, আর অভিনয় করা সম্ভব নয়। তবে সুর করার ইচ্ছা আছে। অনেক ভালো ভালো কিছু সুর সৃষ্টি করে যেতে চাই। সৃষ্টিকর্তা যেন সুস্থ রাখেন, ভালো রাখেন এ দোয়া চাই।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন