সংলাপের সফলতা নিয়ে এরশাদের সংশয়

  রংপুর ব্যুরো ০২ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ
হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ

সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সাত দফা দাবির কোনোটিই মানা সম্ভব নয়। তাই সংলাপের সফলতা নিয়ে সংশয় আছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে রংপুর পর্যটন মোটেলে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ কথা বলেন।

এরশাদ বলেন, ঐক্যফ্রন্ট শেখ হাসিনার পদত্যাগ চায়, ‘সংসদ ভেঙে দেয়ার কথা বলে- এসব দাবির কোনোটিই মেনে নেয়া সম্ভব নয়। কাজেই সংলাপ ব্যর্থ হবে বলে মনে হয়।’ তিনি সাংবাদিকদের পাল্টা প্রশ্ন করে বলেন, ‘শেখ হাসিনা কি পদত্যাগ করবেন? এ রকম অনেক অসাংবিধানিক দাবি তারা করেছে যা কোনোভাবেই মেনে নেয়া সম্ভব নয়।’

সাবেক রাষ্ট্রপতি আরও বলেন, ‘বিএনপি এখন নেতাবিহীন। তাদের চেয়ারপারসন সাজাপ্রাপ্ত হয়ে কারাগারে। তারেক রহমান সাজাপ্রাপ্ত হয়ে লন্ডনে অবস্থান করছেন। এখন তারা ড. কামালকে নিয়ে ঐক্যফ্রন্ট করেছেন। বিএনপি আদৌ নির্বাচনে অংশ নেবে কিনা তা নিয়েও সন্দেহ রয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘বিএনপি নিজেদের অস্তিত্বের সংকটে রয়েছে। একমাত্র জাতীয় পার্টি আগামী নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার ক্ষমতা রাখে। সেই প্রস্তুতি নিয়েই আমরা নির্বাচনের জন্য তৈরি আছি। তবে আগামী নির্বাচন অবাধ ও নিরপেক্ষ হবে কিনা তা নিয়ে সংশয় আছে।’ প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে জাতীয় পার্টির সংলাপ প্রসঙ্গে এরশাদ বলেন, ‘আমি আমার দলের নেতাদের নিয়ে ৫ নভেম্বর বঙ্গভবনে যাব। তবে সংলাপ করতে নয়, শুভেচ্ছা জানাতে; চা খেতে। আমি দাবি-দাওয়া নিয়ে এককভাবে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলব। কারণ ২১ জন নেতা নিয়ে সব কথা বলা সম্ভব নয়।’

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলার জন্য চিঠি দিয়েছিলাম। আমাকে ৫ নভেম্বর বঙ্গভবনে যাওয়ার আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।’ নির্বাচনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহার সংক্রান্ত অধ্যাদেশ প্রসঙ্গে এরশাদ বলেন, ‘ইভিএম সম্পর্কে আমি প্রথম থেকে আপত্তি জানিয়ে আসছি। কারণ ইভিএমের মাধ্যমে ভোট হলে সেই ভোটে কারচুপি করা সম্ভব। সে কারণে আমি আবারও ইভিএম ব্যবহার না করার জন্য সরকারকে অনুরোধ জানাব।’

এর আগে ঢাকা থেকে বিমানযোগে সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণ করেন এরশাদ। দলের নেতাকর্মীরা সেখানে ফুল দিয়ে তাকে স্বাগত জানান। পরে তিনি মোটর শোভাযাত্রাসহ রংপুর পর্যটন মোটেলে যান। এ সময় জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য মেজর খালেদ আকতার (অব.), ফকরুজ্জামান জাহাঙ্গীর, মহানগর জাপা সভাপতি ও সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা, সাধারণ সম্পাদক ইয়াসির আহাম্মেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter