কুড়িগ্রামে হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড
jugantor
কুড়িগ্রামে হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

কুড়িগ্রামে কাঠমিস্ত্রি হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। পৃথক ঘটনায় হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় কৃষক হত্যা মামলায় একজনের, নোয়াখালীতে ভাইকে হত্যার দায়ে ভাইকে এবং কুষ্টিয়ায় চায়ের দোকানি মিঠুন হোসেন হত্যার দায়ে ভাতিজার যাবজ্জীবন এবং অপর দুই আসামির ১০ বছর করে কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর :

কুড়িগ্রাম : কুড়িগ্রাম জেলা ও দায়রা জজ আদালত কাঠমিস্ত্রি হত্যা মামলায় করিম মিয়া নামে এক কাঠমিস্ত্রিকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন। মঙ্গলবার জেলা ও দায়রা জজ মো. আবদুল মান্নান এ রায় দেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, কুড়িগ্রাম পৌরসভার ভেলাকোপার দক্ষিণ মরাকাটা গ্রামের কাছুয়া মামুদের ছেলে করিম মিয়ার সঙ্গে কাঠমিস্ত্রির কাজ করত একই এলাকার আবেদ আলীর ছেলে আদম আলী। ২০১১ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় আদম আলী করিমের কাছে পাওনা টাকা চাইতে গেলে বচসার একপর্যায়ে বাটাল দিয়ে আদম আলীর পেটে ও কপালে আঘাত করে করিম মিয়া। পরে হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

নোয়াখালী : নোয়াখালীর কবির হাটে ছোট ভাইকে খুনের দায়ে বড় ভাইকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন নোয়াখালীর জেলা ও দায়রা জজ সালেহউদ্দিন আহমেদ। মঙ্গলবার তিনি এ রায় ঘোষণা করেন। হত্যাকাণ্ডের প্রায় ১০ বছর পর এ মামলার রায় ঘোষণা করা হয়েছে।

২০১০ সালে পূর্ববিরোধের জেরে বড় ভাই ইউছুপ আলী পূর্বপরিকল্পনা অনুসারে ছোট সামছুদ্দিন ইলিয়াছকে

ঘুমন্ত অবস্থায় শ্বাসরোধে হত্যা করা হয় । পরে এলাকায় প্রচার করা হয়, ডাকাত দল ডাকাতি করার সময় এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।

হবিগঞ্জ : হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় কৃষক মোতচ্ছির মিয়া হত্যা মামলায় একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়া তাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৫ বছরের কারাদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়। মঙ্গলবার দুপুরে এ রায় ঘোষণা করেন হবিগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ এসএম নাছিম রেজা। দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি হলেন উপজেলার পুটিয়া গ্রামের মৃত সৈয়দ আইয়ুব আলীর ছেলে সৈয়দ মজাম্মিল আলী। ২০০৭ সালের ১০ জুলাই বিকালে পূর্ববিরোধের জের ধরে নিজ বাড়িতে মোতচ্ছির মিয়ার ওপর হামলা চালায় আসামিরা। এতে গুরুতর আহত হন তিনি। পরে স্থানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান। ১১ জুলাই তার মৃত্যু হয়।

কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় চায়ের দোকানি মিঠুন হোসেন হত্যার দায়ে ভাতিজার যাবজ্জীবন এবং অপর দুই আসামির ১০ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অরূপ কুমার গোস্বামী এ রায় ঘোষণা করেন। যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত হলেন কুষ্টিয়ার সদর উপজেলার ঢাকা ঝালুপাড়া এলাকার মৃত মওলা মণ্ডলের ছেলে শিমুল হোসেন এবং ১০ বছরের সাজাপ্রাপ্তরা হলেন শিমুল হোসেনের স্ত্রী সাথী বেগম ও একই এলাকার খয়বার আলী প্রামাণিকের ছেলে সবুজ হোসেন। অপর তিন আসামি লিটন হোসেন, মনিরুল ইসলাম ও খয়বার আলী প্রামাণিককে বেকসুর খালাস দেন আদালত। ২০১৮ সালের ১৩ আগস্ট মিঠুন খুন হয়।

কুড়িগ্রামে হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

কুড়িগ্রামে কাঠমিস্ত্রি হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। পৃথক ঘটনায় হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় কৃষক হত্যা মামলায় একজনের, নোয়াখালীতে ভাইকে হত্যার দায়ে ভাইকে এবং কুষ্টিয়ায় চায়ের দোকানি মিঠুন হোসেন হত্যার দায়ে ভাতিজার যাবজ্জীবন এবং অপর দুই আসামির ১০ বছর করে কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর :

কুড়িগ্রাম : কুড়িগ্রাম জেলা ও দায়রা জজ আদালত কাঠমিস্ত্রি হত্যা মামলায় করিম মিয়া নামে এক কাঠমিস্ত্রিকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন। মঙ্গলবার জেলা ও দায়রা জজ মো. আবদুল মান্নান এ রায় দেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, কুড়িগ্রাম পৌরসভার ভেলাকোপার দক্ষিণ মরাকাটা গ্রামের কাছুয়া মামুদের ছেলে করিম মিয়ার সঙ্গে কাঠমিস্ত্রির কাজ করত একই এলাকার আবেদ আলীর ছেলে আদম আলী। ২০১১ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় আদম আলী করিমের কাছে পাওনা টাকা চাইতে গেলে বচসার একপর্যায়ে বাটাল দিয়ে আদম আলীর পেটে ও কপালে আঘাত করে করিম মিয়া। পরে হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

নোয়াখালী : নোয়াখালীর কবির হাটে ছোট ভাইকে খুনের দায়ে বড় ভাইকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন নোয়াখালীর জেলা ও দায়রা জজ সালেহউদ্দিন আহমেদ। মঙ্গলবার তিনি এ রায় ঘোষণা করেন। হত্যাকাণ্ডের প্রায় ১০ বছর পর এ মামলার রায় ঘোষণা করা হয়েছে।

২০১০ সালে পূর্ববিরোধের জেরে বড় ভাই ইউছুপ আলী পূর্বপরিকল্পনা অনুসারে ছোট সামছুদ্দিন ইলিয়াছকে

ঘুমন্ত অবস্থায় শ্বাসরোধে হত্যা করা হয় । পরে এলাকায় প্রচার করা হয়, ডাকাত দল ডাকাতি করার সময় এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।

হবিগঞ্জ : হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় কৃষক মোতচ্ছির মিয়া হত্যা মামলায় একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়া তাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৫ বছরের কারাদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়। মঙ্গলবার দুপুরে এ রায় ঘোষণা করেন হবিগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ এসএম নাছিম রেজা। দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি হলেন উপজেলার পুটিয়া গ্রামের মৃত সৈয়দ আইয়ুব আলীর ছেলে সৈয়দ মজাম্মিল আলী। ২০০৭ সালের ১০ জুলাই বিকালে পূর্ববিরোধের জের ধরে নিজ বাড়িতে মোতচ্ছির মিয়ার ওপর হামলা চালায় আসামিরা। এতে গুরুতর আহত হন তিনি। পরে স্থানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান। ১১ জুলাই তার মৃত্যু হয়।

কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় চায়ের দোকানি মিঠুন হোসেন হত্যার দায়ে ভাতিজার যাবজ্জীবন এবং অপর দুই আসামির ১০ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অরূপ কুমার গোস্বামী এ রায় ঘোষণা করেন। যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত হলেন কুষ্টিয়ার সদর উপজেলার ঢাকা ঝালুপাড়া এলাকার মৃত মওলা মণ্ডলের ছেলে শিমুল হোসেন এবং ১০ বছরের সাজাপ্রাপ্তরা হলেন শিমুল হোসেনের স্ত্রী সাথী বেগম ও একই এলাকার খয়বার আলী প্রামাণিকের ছেলে সবুজ হোসেন। অপর তিন আসামি লিটন হোসেন, মনিরুল ইসলাম ও খয়বার আলী প্রামাণিককে বেকসুর খালাস দেন আদালত। ২০১৮ সালের ১৩ আগস্ট মিঠুন খুন হয়।