‘শেখ হাসিনা বই তুলে দিয়ে ছাত্রলীগকে সঠিক পথে চালিত করেছেন’
jugantor
‘শেখ হাসিনা বই তুলে দিয়ে ছাত্রলীগকে সঠিক পথে চালিত করেছেন’

  পিরোজপুর প্রতিনিধি  

১৭ আগস্ট ২০২০, ২২:৩৮:৩০  |  অনলাইন সংস্করণ

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, জিয়াউর রহমান শিক্ষাঙ্গনে ছাত্রদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়ে শিক্ষার পরিবেশকে বিষিয়ে তুলেছিলেন আর বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা শিক্ষার্থীদের হাতে বই এবং কলম তুলে দিয়ে তাদের সঠিক পথে চালিত করেছেন। এটাই হচ্ছে বিএনপি ও আওয়ামী লীগের মধ্যে মৌলিক পার্থক্য।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর হাতে গড়া ছাত্রলীগকে তিনি শিখিয়ে গেছেন কীভাবে ছাত্র রাজনীতি করতে হয়। ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মী হোক দুর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার, মাদকের বিরুদ্ধে সোচ্চার, নৈতিকতার প্রশ্নে আপোসহীন। ছাত্রলীগের রয়েছে এক গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস। আওয়ামী লীগ অনেক সময় সঠিক দায়িত্ব ও আন্দোলন করতে পারেনি, কিন্তু ছাত্রলীগ আওয়ামী লীগের সেসব অসম্পূর্ণ কাজ রাজপথে থেকে মোকাবেলা করতে গিয়ে তাদের আত্মাহুতি দিতে হয়েছে।

বঙ্গবন্ধুর ৪৫তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে সোমবার এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় ছাত্রদের উদ্দেশে এসব কথা বলেন মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আহসান মাতবরের সভাপতিত্বে রোববার সদর উপজেলার শহীদ ওমর ফারুক অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন- জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শাজাহান খান তালুকদার, সাধারণ সম্পাদক এমএ হাকিম হাওলাদার, আবদুর রাজ্জাক খান বাদশা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামান ফুলু, বাস মালিক সমিতির সভাপতি জসিম উদ্দিন খান, জেলা কৃষক লীগের সভাপতি চান মিয়া মাঝি, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ আহ্বায়ক শফিউল হক মিঠু, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক গোপাল বসু, জেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক জিয়াউল আহসান, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাকসুদুল ইসলাম লিটন, যুবলীগ নেতা কামরুজ্জামান শামিম, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক অনিরুজ্জামান অনিক প্রমুখ।

ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মীকে উদ্দেশ করে মন্ত্রী বলেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বাংলাদেশকে রক্ষা করতে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে রক্ষা করতে, শেখ হাসিনার অগ্রযাত্রাকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যেতে একমাত্র ছাত্রলীগই পারে অতন্দ্র প্রহরীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে।

‘শেখ হাসিনা বই তুলে দিয়ে ছাত্রলীগকে সঠিক পথে চালিত করেছেন’

 পিরোজপুর প্রতিনিধি 
১৭ আগস্ট ২০২০, ১০:৩৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, জিয়াউর রহমান শিক্ষাঙ্গনে ছাত্রদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়ে শিক্ষার পরিবেশকে বিষিয়ে তুলেছিলেন আর বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা শিক্ষার্থীদের হাতে বই এবং কলম তুলে দিয়ে তাদের সঠিক পথে চালিত করেছেন। এটাই হচ্ছে বিএনপি ও আওয়ামী লীগের মধ্যে মৌলিক পার্থক্য।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর হাতে গড়া ছাত্রলীগকে তিনি শিখিয়ে গেছেন কীভাবে ছাত্র রাজনীতি করতে হয়। ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মী হোক দুর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার, মাদকের বিরুদ্ধে সোচ্চার, নৈতিকতার প্রশ্নে আপোসহীন। ছাত্রলীগের রয়েছে এক গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস। আওয়ামী লীগ অনেক সময় সঠিক দায়িত্ব ও আন্দোলন করতে পারেনি, কিন্তু ছাত্রলীগ আওয়ামী লীগের সেসব অসম্পূর্ণ কাজ রাজপথে থেকে মোকাবেলা করতে গিয়ে তাদের আত্মাহুতি দিতে হয়েছে।

বঙ্গবন্ধুর ৪৫তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে সোমবার এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় ছাত্রদের উদ্দেশে এসব কথা বলেন মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আহসান মাতবরের সভাপতিত্বে রোববার সদর উপজেলার শহীদ ওমর ফারুক অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন- জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শাজাহান খান তালুকদার, সাধারণ সম্পাদক এমএ হাকিম হাওলাদার, আবদুর রাজ্জাক খান বাদশা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামান ফুলু, বাস মালিক সমিতির সভাপতি জসিম উদ্দিন খান, জেলা কৃষক লীগের সভাপতি চান মিয়া মাঝি, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ আহ্বায়ক শফিউল হক মিঠু, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক গোপাল বসু, জেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক জিয়াউল আহসান, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাকসুদুল ইসলাম লিটন, যুবলীগ নেতা কামরুজ্জামান শামিম, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক অনিরুজ্জামান অনিক প্রমুখ।

ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মীকে উদ্দেশ করে মন্ত্রী বলেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বাংলাদেশকে রক্ষা করতে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে রক্ষা করতে, শেখ হাসিনার অগ্রযাত্রাকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যেতে একমাত্র ছাত্রলীগই পারে অতন্দ্র প্রহরীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন