যে কারণে লাল কাপড়েই মোড়ানো হয় বিরিয়ানির হাঁড়ি

  লাইফস্টাইল ডেস্ক ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৩:২৭ | অনলাইন সংস্করণ

বিরিয়ানির হাঁড়ি
বিরিয়ানির হাঁড়ি। ছবি সংগৃহীত

বিরিয়ানি অনেকেরই প্রিয় খাবার। খুব সহজে হাতের কাছে পাওয়া যায় ও খেতে খুব একটা সময় নিতে হয় না। এ ছাড়া যারা মুখরোচক খাবার খেতে পছন্দ করেন তাদের কাছে বিরিয়ানি প্রিয়।

রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় হোটেলে বিরিয়ানি রান্না করে তা বিক্রি করা হয়। তবে আপনি একটু খেয়াল করে দেখবেন যে প্রায় সব বিরিয়ানির হাঁড়ি লাল রঙের কাপড় দিয়ে মোড়ানো থাকে।

রাস্তাঘাটের আনাচে-কানাচে, অলিগলিতে এখন বিরিয়ানির দোকান। দোকানের একশ মিটারের মধ্যে এসে পড়লেই নাকে বিরিয়ানির গন্ধ আর লাল কাপড়ে মোড়া বিরিয়ানির বিশাল হাঁড়ি চোখে পড়বেই।

মটন, চিকেন, আন্ডা, আলু বা ভেজ বিরিয়ানি যেমনই হোক না কেন, পাত্রটি প্রায় সব দোকানেই একটা লাল কাপড়ে মোড়া থাকে।

তবে আপনি জানেন কী? কেন বিরিয়ানির হাঁড়ি লাল রঙের কাপড় দিয়ে মোড়ানো থাকে?

ইতিহাসের ব্যাখ্যা থেকে জানা যায়, সম্রাট হুমায়ুনের খাদ্য পরিবেশনে ‘দরবারি রীতি’ অনুযায়ী, রুপালি পাত্রের খাবারগুলোর জন্য লাল কাপড়, আর অন্য ধাতব বা চিনামাটির পাত্রগুলোকে সাদা কাপড়ে ঢেকে নিয়ে আসা হতো।

পরে মোগল দরবারেও এই রীতি অনুসরণ করা হয়। খাদ্য পরিবেশনের এই রীতি ও রঙের ব্যবহার লখনউয়ের নবাবরাও অনুসরণ করতেন। সেই থেকে বিরিয়ানির পাত্র লাল কাপড়ে ঢাকার রীতি চলে আসছে।

তবে এ ক্ষেত্রেও মতান্তর রয়েছে। অনেকেই মনে করেন, ইতিহাস বা ঐতিহ্যের রীতি মেনে নয়, ব্যবসার খাতিরে ক্রেতার দৃষ্টি আকর্ষণ করতেই বিরিয়ানির পাত্র লাল কাপড়ে মুড়ে রাখা হয়। ফলে দূর থেকেই তা ক্রেতার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে পারে।

সূত্র: জি নিউজ

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

 
×