নারীদের ৩ জটিল রোগে সতর্ক থাকা জরুরি
jugantor
নারীদের ৩ জটিল রোগে সতর্ক থাকা জরুরি

  ডা. বেদৌরা শারমিন  

২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩:১৮:১৭  |  অনলাইন সংস্করণ

ছবি সংগৃহীত

নারীদের কিছু রোগ রয়েছে, যা তারা অনেক সময় লুকিয়ে থাকেন। কোনো রোগ-ই লুকিয়ে রাখা ঠিক নয়। শরীরে কোনো সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।
অস্বাভাবিক স্রাব, প্রদাহ, ইচিং– এসব গাইনি রোগ দেখা দিতে পারে নারীদের। বেশিরভাগ নারীই এসব সমস্যায় ভোগেন।

১. ছত্রাকের কারণে সাধারণত ভ্যাজাইনায় সংক্রমণ হতে পারে। ক্যানডিডা নামের ছত্রাকের আক্রমণে এ সংক্রমণ হয়ে থাকে। নারীর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকা, ডায়াবেটিস, দীর্ঘদিন জন্মনিয়ন্ত্রক ওষুধ খাওয়া ও গর্ভাবস্থায় ছত্রাকের সংক্রমণ হতে পারে।

এ ছাড়া ইচিং, সাদাস্রাব, যৌন মিলনের সময় ব্যথা, লালচে ভাব, জ্বালাপোড়া, ব্যথা, ফোলা ও প্রদাহও হতে পারে।

২. নারীরা ট্রাইকোমোনিয়াসিস রোগে ভুগে থাকেন। বেশিরভাগ নারী এই রোগে ভোগেন। প্যারাসাইট ও অরক্ষিত যৌন সম্পর্কের কারণে এই রোগ হতে পারে। শুধু নারীরা আক্রান্ত হন এমন নয়। পুরুষেরও হলুদাভ সাদাস্রাব, যৌন সম্পর্কের সময় ব্যথা, প্রস্রাবের সময় ব্যথা, ইচিং ট্রাইকোমোনিয়াসের লক্ষণ।

৩. নারীরা ব্যাকটেরিয়াল ভ্যাজিনোসিস নামের এই রোগে ভুগে থাকেন।

একের বেশি যৌনসঙ্গী, গর্ভাবস্থা ও যৌন সম্পর্কের সময় কনডম ব্যবহার না করার কারণে এ রোগ হতে পারে।

কী করবেন

এসব সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। এছাড়া সুতির অন্তর্বাস ব্যবহার, আঁটসাঁট পোশাক না পরা, পিরিয়ডের সময় প্যাড কিছুক্ষণ পর পর বদলানো, ভেজা কাপড় দ্রুত বদল, ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে।

লেখক
গাইনি কনসালট্যান্ট, সেন্ট্রাল হাসপাতাল লিমিটেড।

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

নারীদের ৩ জটিল রোগে সতর্ক থাকা জরুরি

 ডা. বেদৌরা শারমিন 
২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০১:১৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ছবি সংগৃহীত
ছবি সংগৃহীত

নারীদের কিছু রোগ রয়েছে, যা তারা অনেক সময় লুকিয়ে থাকেন।  কোনো রোগ-ই লুকিয়ে রাখা ঠিক নয়। শরীরে কোনো সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। 
অস্বাভাবিক স্রাব, প্রদাহ, ইচিং– এসব গাইনি রোগ দেখা দিতে পারে নারীদের।  বেশিরভাগ নারীই এসব সমস্যায় ভোগেন।

১. ছত্রাকের কারণে সাধারণত ভ্যাজাইনায় সংক্রমণ হতে পারে। ক্যানডিডা নামের ছত্রাকের আক্রমণে এ সংক্রমণ হয়ে থাকে। নারীর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকা, ডায়াবেটিস, দীর্ঘদিন জন্মনিয়ন্ত্রক ওষুধ খাওয়া ও গর্ভাবস্থায় ছত্রাকের সংক্রমণ হতে পারে।

এ ছাড়া ইচিং, সাদাস্রাব, যৌন মিলনের সময় ব্যথা, লালচে ভাব, জ্বালাপোড়া, ব্যথা, ফোলা ও প্রদাহও হতে পারে। 

২. নারীরা ট্রাইকোমোনিয়াসিস রোগে ভুগে থাকেন। বেশিরভাগ নারী এই রোগে ভোগেন। প্যারাসাইট ও অরক্ষিত যৌন সম্পর্কের কারণে এই রোগ হতে পারে। শুধু নারীরা আক্রান্ত হন এমন নয়। পুরুষেরও হলুদাভ সাদাস্রাব, যৌন সম্পর্কের সময় ব্যথা, প্রস্রাবের সময় ব্যথা, ইচিং ট্রাইকোমোনিয়াসের লক্ষণ।

৩. নারীরা ব্যাকটেরিয়াল ভ্যাজিনোসিস নামের এই রোগে ভুগে থাকেন। 

একের বেশি যৌনসঙ্গী, গর্ভাবস্থা ও  যৌন সম্পর্কের সময় কনডম ব্যবহার না করার কারণে এ রোগ হতে পারে। 

কী করবেন

এসব সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। এছাড়া সুতির অন্তর্বাস ব্যবহার, আঁটসাঁট পোশাক না পরা, পিরিয়ডের সময় প্যাড কিছুক্ষণ পর পর বদলানো, ভেজা কাপড় দ্রুত বদল, ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে।

লেখক 
গাইনি কনসালট্যান্ট, সেন্ট্রাল হাসপাতাল লিমিটেড।

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]