স্কুলছাত্রীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা চেষ্টা, বখাটে গ্রেফতার
jugantor
স্কুলছাত্রীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা চেষ্টা, বখাটে গ্রেফতার

  কিশোরগঞ্জ ব্যুরো  

১২ আগস্ট ২০২০, ০০:৪২:২৫  |  অনলাইন সংস্করণ

গ্রেফতার বখাটে তরুণ নোবেল

কিশোরগঞ্জে প্রেম নিবেদন করে ব্যর্থ হয়ে এক বখাটে তরুণ নবম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাতে হত্যার চেষ্টা করেছে।

আহত স্কুলছাত্রীর নাম - মিতু আক্তার নাম (১৫)। তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হামলাকারী বখাটেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার সকাল ১১ টার দিকে জেলার করিমগঞ্জে উপজেলার ন্যামতপুর হাইস্কুল এণ্ড কলেজ এলাকায় এ বর্বরোচিত হামলার ঘটনা ঘটে।

আহত মিতু আক্তার নিয়ামতপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী এবং আঙ্গুর কান্দা গ্রামের আবদুর রউফের মেয়ে।

হামলাকারী বখাটে তরুণের নাম নোবেল (১৭)। পার্শ্ববর্তী নিকলী উপজেলার সিংপুর ইউনিয়নের পাথারকান্দি গ্রামের ফাইজুন ইসলামের ছেলে সে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, কোনোভাবে মিতু আক্তারের মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে প্রেম নিবেদন করে উত্যক্ত করত নোবেল। কিন্তু মিতু সাড়া না দেয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে নোবেল। মঙ্গলবার সকাল ১১ টার দিকে মিতু আক্তারকে রাস্তায় পেয়ে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাতে হত্যার চেষ্টা চালায় নোবেল। ধারাল ছুরির ৯টি আঘাতে গভীর রক্তাক্ত জখম হয় মিতুর শরীরে। তাকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে করিমগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের নেয়া হয়।

সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক। সেখান থেকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেয়ার পর সেখানকার জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সংকটাপন্ন অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

এ দিকে ঘটনার পর পর কিশোরগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএমের (বার) নির্দেশে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) অনির্বাণ চৌধুরী ও করিমগঞ্জ থানার ওসি মমিনুল ইসলামের নেতৃত্বে পুলিশ সাড়াশি অভিযান চালিয়ে রাত সাড়ে ৭ টার দিকে হামলাকারী তরুণ নোবেলকে পার্শ্ববর্তী প্রত্যন্ত হাওর এলাকা থেকে গ্রেফতার করে।

স্কুলছাত্রীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা চেষ্টা, বখাটে গ্রেফতার

 কিশোরগঞ্জ ব্যুরো 
১২ আগস্ট ২০২০, ১২:৪২ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
গ্রেফতার বখাটে তরুণ নোবেল
গ্রেফতার বখাটে তরুণ নোবেল। ছবি: যুগান্তর

কিশোরগঞ্জে প্রেম নিবেদন করে ব্যর্থ হয়ে এক বখাটে তরুণ নবম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাতে হত্যার চেষ্টা করেছে। 

আহত স্কুলছাত্রীর নাম - মিতু আক্তার নাম (১৫)।  তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হামলাকারী বখাটেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

মঙ্গলবার সকাল ১১ টার দিকে জেলার করিমগঞ্জে উপজেলার ন্যামতপুর হাইস্কুল এণ্ড কলেজ এলাকায় এ বর্বরোচিত হামলার ঘটনা ঘটে।  

আহত মিতু আক্তার নিয়ামতপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী এবং আঙ্গুর কান্দা গ্রামের আবদুর রউফের মেয়ে। 

হামলাকারী বখাটে তরুণের নাম নোবেল (১৭)। পার্শ্ববর্তী নিকলী উপজেলার সিংপুর ইউনিয়নের পাথারকান্দি গ্রামের  ফাইজুন ইসলামের ছেলে সে। 

পুলিশ ও  এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, কোনোভাবে মিতু আক্তারের মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে প্রেম নিবেদন করে উত্যক্ত করত নোবেল। কিন্তু মিতু সাড়া না দেয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে নোবেল।  মঙ্গলবার সকাল ১১ টার দিকে মিতু আক্তারকে রাস্তায় পেয়ে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাতে হত্যার চেষ্টা চালায় নোবেল। ধারাল ছুরির ৯টি আঘাতে গভীর রক্তাক্ত জখম হয় মিতুর শরীরে। তাকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে করিমগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের নেয়া হয়। 

সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক। সেখান থেকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেয়ার পর সেখানকার জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সংকটাপন্ন অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।   

এ দিকে ঘটনার পর পর কিশোরগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএমের (বার) নির্দেশে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) অনির্বাণ চৌধুরী ও  করিমগঞ্জ থানার ওসি মমিনুল ইসলামের  নেতৃত্বে  পুলিশ সাড়াশি অভিযান চালিয়ে রাত সাড়ে ৭ টার দিকে  হামলাকারী তরুণ নোবেলকে পার্শ্ববর্তী প্রত্যন্ত হাওর এলাকা থেকে গ্রেফতার করে।  
 

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন